ইপেপার । আজশুক্রবার, ৩১ মে ২০২৪, ১৬ জ্যৈষ্ঠ ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

নির্বাচন থেকে সরে দাঁড়ালেন চেয়ারম্যান প্রার্থী আরজুমান

প্রতিবেদক, গাংনী:
  • আপলোড টাইম : ০৮:৪৬:০৯ অপরাহ্ন, সোমবার, ১৩ মে ২০২৪
  • / ১৩ বার পড়া হয়েছে

মেহেরপুরের গাংনী উপজেলা পরিষদ নির্বাচন থেকে সরে দাঁড়ালেন দোয়াত কলম প্রতীকের চেয়ারম্যান প্রার্থী সাবেক এমপির পত্নী লাইলা আরজুমান বানু (শিলা)। গতকাল রোববার দুপুরে গাংনী থানা রোডের বাসভবনে এক সংবাদ সম্মেলনের মাধ্যমে তাঁর স্বামী সদ্য সাবেক সংসদ সদস্য ও উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি সাহিদুজ্জামান খোকন এ ঘোষণা দেন। এসময় কান্নায় ভেঙে পড়েন লাইলা আরজুমান বানু।

সংবাদ সম্মেলনে লাইলা আরজুমানের স্বামী সাহিদুজ্জামান খোকন বলেন, ‘কারো চাপে নয়, এটি আমাদের পারিবারিক সিদ্ধান্ত। আমি বর্তমানে গাংনী উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি। স্ত্রী লাইলা আরজুমান বানু নির্বাচনে অংশ নেওয়ায় দলের মধ্যে নানা আলোচনা-সমালোচনা শুরু হয়েছে। দলীয় স্বার্থ বজায় রাখতে নির্বাচন থেকে সরে আসায় শ্রেয় বলে তিনি মনে করেন।’

তিনি আরো বলেন, ‘এতদিন আমাদের পক্ষে যারা কষ্ট করে মূল্যবান সময় নষ্ট করেছেন, তাদের প্রতি সমবেদনা জানাচ্ছি। নিজেদের ভেতর ভ্রাতৃত্ব বজায় রেখে আপনারা যাকে যোগ্য মনে করবেন, তাকে ভোট দেবেন।’

ট্যাগ :

নিউজটি শেয়ার করে ছড়িয়ে দিন

নির্বাচন থেকে সরে দাঁড়ালেন চেয়ারম্যান প্রার্থী আরজুমান

আপলোড টাইম : ০৮:৪৬:০৯ অপরাহ্ন, সোমবার, ১৩ মে ২০২৪

মেহেরপুরের গাংনী উপজেলা পরিষদ নির্বাচন থেকে সরে দাঁড়ালেন দোয়াত কলম প্রতীকের চেয়ারম্যান প্রার্থী সাবেক এমপির পত্নী লাইলা আরজুমান বানু (শিলা)। গতকাল রোববার দুপুরে গাংনী থানা রোডের বাসভবনে এক সংবাদ সম্মেলনের মাধ্যমে তাঁর স্বামী সদ্য সাবেক সংসদ সদস্য ও উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি সাহিদুজ্জামান খোকন এ ঘোষণা দেন। এসময় কান্নায় ভেঙে পড়েন লাইলা আরজুমান বানু।

সংবাদ সম্মেলনে লাইলা আরজুমানের স্বামী সাহিদুজ্জামান খোকন বলেন, ‘কারো চাপে নয়, এটি আমাদের পারিবারিক সিদ্ধান্ত। আমি বর্তমানে গাংনী উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি। স্ত্রী লাইলা আরজুমান বানু নির্বাচনে অংশ নেওয়ায় দলের মধ্যে নানা আলোচনা-সমালোচনা শুরু হয়েছে। দলীয় স্বার্থ বজায় রাখতে নির্বাচন থেকে সরে আসায় শ্রেয় বলে তিনি মনে করেন।’

তিনি আরো বলেন, ‘এতদিন আমাদের পক্ষে যারা কষ্ট করে মূল্যবান সময় নষ্ট করেছেন, তাদের প্রতি সমবেদনা জানাচ্ছি। নিজেদের ভেতর ভ্রাতৃত্ব বজায় রেখে আপনারা যাকে যোগ্য মনে করবেন, তাকে ভোট দেবেন।’