ইপেপার । আজশুক্রবার, ৩১ মে ২০২৪, ১৬ জ্যৈষ্ঠ ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

উচ্চ শিক্ষার জন্য অস্ট্রেলিয়া গেলেন জেহাদ-বিন-রফিক

সমীকরণ প্রতিবেদক:
  • আপলোড টাইম : ০৩:৪৮:৫৮ পূর্বাহ্ন, মঙ্গলবার, ৫ মার্চ ২০২৪
  • / ১৩৫ বার পড়া হয়েছে

চুয়াডাঙ্গার ভিক্টোরিয়া জুবিলি সরকারি উচ্চবিদ্যালয়ের সাবেক ছাত্র জেহাদ-বিন-রফিক উচ্চশিক্ষার জন্য সিডনী বিশ^বিদ্যালয়ে কম্পিউটার সায়েন্স অ্যান্ড ইঞ্জিনিয়ারিং পড়তে অস্ট্রেলিয়া গেছেন। গত ২৯ ফেব্রুয়ারি তিনি বাংলাদেশ বিমানে দেশত্যাগ করেন। জেহাদ-বিন-রফিক দামুড়হুদা উপজেলার বিক্রপুর গ্রামের বিশিষ্ট সমাজসেবক মরহুম ছাকবর আলী মিয়া ও মোছা. মনোয়রা খাতুনের নাতি এবং চুয়াডাঙ্গার সিনিয়র আইনজীবী রফিকুল আলম রান্টু ও রিতা জেসমিনের একমাত্র ছেলে।

জেহাদ-বিন-রফিক চুয়াডাঙ্গা ভিক্টোরিয়া জুবিলি সরকারি উচ্চবিদ্যালয় থেকে ২০২০ সালে এসএসসি, ঢাকা রেসিডেন্সিয়াল মডেল স্কুল এন্ড কলেজ থেকে ২০২২ সালে এসএইচসি পরীক্ষায় কৃতিত্বের পাশ করেন। এরপর অস্ট্রেলিয়ার সিডনী বিশ^বিদ্যালয়ে কম্পিউটার সায়েন্স এন্ড ইঞ্জিনিয়ারিং কোর্সে ভর্তি হয়ে উচ্চ শিক্ষার জন্য অষ্ট্রেলিয়া গমন করেছেন। সময় স্বল্পতার জন্য আত্মীয়-স্বজন, সাবেক শিক্ষক ও সহপাঠীদের সাথে দেখা করতে না পারায় সকলের কাছে দোয়া কামনা করেছেন।

ট্যাগ :

নিউজটি শেয়ার করে ছড়িয়ে দিন

উচ্চ শিক্ষার জন্য অস্ট্রেলিয়া গেলেন জেহাদ-বিন-রফিক

আপলোড টাইম : ০৩:৪৮:৫৮ পূর্বাহ্ন, মঙ্গলবার, ৫ মার্চ ২০২৪

চুয়াডাঙ্গার ভিক্টোরিয়া জুবিলি সরকারি উচ্চবিদ্যালয়ের সাবেক ছাত্র জেহাদ-বিন-রফিক উচ্চশিক্ষার জন্য সিডনী বিশ^বিদ্যালয়ে কম্পিউটার সায়েন্স অ্যান্ড ইঞ্জিনিয়ারিং পড়তে অস্ট্রেলিয়া গেছেন। গত ২৯ ফেব্রুয়ারি তিনি বাংলাদেশ বিমানে দেশত্যাগ করেন। জেহাদ-বিন-রফিক দামুড়হুদা উপজেলার বিক্রপুর গ্রামের বিশিষ্ট সমাজসেবক মরহুম ছাকবর আলী মিয়া ও মোছা. মনোয়রা খাতুনের নাতি এবং চুয়াডাঙ্গার সিনিয়র আইনজীবী রফিকুল আলম রান্টু ও রিতা জেসমিনের একমাত্র ছেলে।

জেহাদ-বিন-রফিক চুয়াডাঙ্গা ভিক্টোরিয়া জুবিলি সরকারি উচ্চবিদ্যালয় থেকে ২০২০ সালে এসএসসি, ঢাকা রেসিডেন্সিয়াল মডেল স্কুল এন্ড কলেজ থেকে ২০২২ সালে এসএইচসি পরীক্ষায় কৃতিত্বের পাশ করেন। এরপর অস্ট্রেলিয়ার সিডনী বিশ^বিদ্যালয়ে কম্পিউটার সায়েন্স এন্ড ইঞ্জিনিয়ারিং কোর্সে ভর্তি হয়ে উচ্চ শিক্ষার জন্য অষ্ট্রেলিয়া গমন করেছেন। সময় স্বল্পতার জন্য আত্মীয়-স্বজন, সাবেক শিক্ষক ও সহপাঠীদের সাথে দেখা করতে না পারায় সকলের কাছে দোয়া কামনা করেছেন।