চুয়াডাঙ্গা সোমবার , ১২ ফেব্রুয়ারি ২০২৪

চুয়াডাঙ্গা জেলা আইনশৃঙ্খলা কমিটির মাসিক সভায় জেলা প্রশাসক ড. কিসিঞ্জার চাকমা

এসএসসি পরীক্ষা চালাকালে কোচিং সেন্টার খোলা থাকলেই ব্যবস্থা

নিউজ রুমঃ
ফেব্রুয়ারি ১২, ২০২৪ ১০:৩৫ পূর্বাহ্ণ
Link Copied!

নিজস্ব প্রতিবেদক:

চুয়াডাঙ্গা জেলা আইনশৃঙ্খলা কমিটির ফেব্রুয়ারি মাসের মাসিক সভা অনুষ্ঠিত হয়েছে। গতকাল রোববার সকাল ১০টায় জেলা প্রশাসকের সম্মেলনকক্ষে এ সভা অনুষ্ঠিত হয়। সভায় সভাপতিত্ব চুয়াডাঙ্গার জেলা প্রশাসক ড. কিসিঞ্জার চাকমা।

মাসিক সভায় মানব পাচার প্রতিরোধ, চোরাচালান নিরোধ, চোরাচালান মামলা সমূহ নিস্পত্তি ত্বরান্বিত করার লক্ষ্যে মনিটরিং সেলের সভা অনুষ্ঠিত হয়। চলতি সভার সিদ্ধান্ত অনুযায়ী জেলা প্রশাসক ড. কিসিঞ্জার চাকমা বলেন, চুয়াডাঙ্গার ডিবি পুলিশ অভিযান চালিয়ে যে রুপার চালান উদ্ধার করেছে, তাদেরকে আনুষ্ঠানিকভাবে সম্মান জানানো হবে। এসএসসি পরীক্ষা চালাকালীন সময় সকল কোচিং সেন্টার বন্ধা রাখতে হবে। কোনো কোচিং সেন্টারের কার্যক্রম চালানো হলে তাদের বিরুদ্ধে আইনগত ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে। ধান, চালসহ নিত্যপ্রয়োজনীয় যেকোনো ধরনের পণ্য মজুত করা যাবে না। প্রশাসনের পক্ষ থেকে মজুত বিরোধী কার্যক্রম অব্যাহত রাখতে হবে। দ্রব্যমূল্য বৃদ্ধিতে বাজারে যাতে কোনো অস্থিতি সৃষ্টি করতে না পারে, সেদিকে লক্ষ্য রাখতে হবে। মাদকের অভিযান বৃদ্ধি করার জন্য জেলা মাদকদ্রব্য নিয়ন্ত্রণ অধিদপ্তরকে নির্দেশ প্রদান করা হয়।

জেলা প্রশাসক বলেন, নারী ও শিশু নির্যাতন বন্ধ এবং বাল্যবিবাহ প্রতিরোধের প্রতি প্রতিনিয়ত উঠান বৈঠক ও জনসচেতনতা বৃদ্ধি করতে হবে। রেললাইনের নিরাপত্তা বৃদ্ধি করতে মানুষের মাঝে সচেতনতা বৃদ্ধি করতে হবে। একই সাথে রেললাইনের আশপাশ যারা বসবাস করেন, তাদের মধ্যে সচেতনতা বৃদ্ধি করতে হবে। শহরকে যানজট নিরসনে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা গ্রহণ করতে হবে। সবাইকে সাথে নিয়ে পরিদর্শন করে শহরের যানজট নিরসনের একটা সিদ্ধান্ত নিতে হবে। আসন্ন ইউপি নির্বাচন আইনশৃঙ্খলা স্বাভাবিক রাখতে সব ধরনের ব্যবস্থা গ্রহণ করতে হবে।

আইনশৃঙ্খলা কমিটির সভায় বিশেষ অতিথির বক্তব্য দেন চুয়াডাঙ্গা পুলিশ সুপার আর এম ফয়জুর রহমান (পিপিএম-সেবা)। জানুয়ারি মাসের আইনশৃঙ্খলা কমিটির মাসিক সভার বিবরণী পড়ে শোনান এবং সভার সঞ্চালনা করেন চুয়াডাঙ্গা জেলা প্রশাসনের সহকারী কমিশনার সাদাত হোসেন।

এসময় উপস্থিত ছিলেন অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক (শিক্ষা ও আইসিট) কবীর হোসেন, চুয়াডাঙ্গা জেলা পরিষদের প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তা মিজানুর রহমান, সদর উপজেলা নির্বাহী অফিসার ফাতেমা-তুজ-জোহরা, আলমডাঙ্গা উপজেলা নির্বাহী অফিসার স্নিদ্ধা দাস, দামুড়হুদা উপজেলা সহকারী কমিশনার (ভূমি) সজল কুমার দাস, জীবননগর উপজেলা সহকারী কমিশনার (ভূমি) তিথি মিত্র, সিভিল সার্জনের প্রতিনিধি ডা. এএসএম ফাতেহ্ আকরাম দোলন, চুয়াডাঙ্গা অতিরিক্ত পুলিশ সুপার (প্রশাসন ও অর্থ) রিয়াজুল ইসলাম, চুয়াডাঙ্গা অতিরিক্ত পুলিশ সুপার (ক্রাইম অ্যান্ড অপস্) নাজিম উদ্দীন আল আজাদ, সহকারী পুলিশ সুপার (দামুড়হুদা সার্কেল) জাকিয়া সুলতানা, জেলা ভোক্তা অধিকার সংরক্ষণ অধিদপ্তরের সহকারী পরিচালক সজল আহম্মেদ, চুয়াডাঙ্গা বিজিবি-৬ এর প্রতিনিধি, জেলা সমাজসেবা অফিদপ্তরের উপ-পরিচালক সিদ্দীকা সোহেলী রশিদ, এপিপি অ্যাড. আবু তালেব, জেলা মহিলা বিষয়ক কর্মকর্তা মাকছুরা জান্নাত, জেলা আওয়ামী লীগের সাবেক উপপ্রচার সম্পাদক শওকত আলী, চুয়াডাঙ্গা প্রেসক্লাবের সভাপতি রাজীব হাসান কচি, সাধারণ সম্পাদক বিপুল আশরাফ, বাংলাদেশ সাংবাদিক সমিতি চুয়াডাঙ্গা ইউনিটের সভাপতি সরদার আল-আমিনসহ চুয়াডাঙ্গা জেলার বিভিন্ন দপ্তরের প্রধানগণ, জনপ্রতিনিধিবৃন্দ, সুশীল সমাজের নেতৃবৃন্দ এবং মিডিয়া ব্যক্তিবর্গ।

এই সাইটে নিজম্ব নিউজ তৈরির পাশাপাশি বিভিন্ন নিউজ সাইট থেকে খবর সংগ্রহ করে সংশ্লিষ্ট সূত্রসহ প্রকাশ করে থাকি। তাই কোন খবর নিয়ে আপত্তি বা অভিযোগ থাকলে সংশ্লিষ্ট নিউজ সাইটের কর্তৃপক্ষের সাথে যোগাযোগ করার অনুরোধ রইলো।বিনা অনুমতিতে এই সাইটের সংবাদ, আলোকচিত্র অডিও ও ভিডিও ব্যবহার করা বেআইনি।