চুয়াডাঙ্গা মঙ্গলবার , ৩০ জানুয়ারি ২০২৪

চুয়াডাঙ্গা ও দামুড়হুদায় পৃথক সড়ক দুর্ঘটনায় আহত ৪

নিউজ রুমঃ
জানুয়ারি ৩০, ২০২৪ ৪:২০ পূর্বাহ্ণ
Link Copied!

সমীকরণ প্রতিবেদক:
চুয়াডাঙ্গার সদর উপজেলার ডিঙ্গেদহ ও দামুড়হুদা উপজেলায় পৃথক সড়ক দুর্ঘটনায় নারীসহ চারজন আহত হয়েছেন। গতকাল সোমবার সকাল সাতটায় দামুড়হুদার কাঁঠালতলায় বিচালি বোঝায় পাওয়ারট্রলি নিয়ন্ত্রণ হারিয়ে চালকসহ দুজন আহত হন। এছাড়া সকাল সাড়ে ১০টার দিকে ডিঙ্গেদহ হাটখোলা নামকস্থানে দ্রুতগামী একটি যাত্রীবাহী বাসের ধাক্কায় আরও দুজন মোটরসাইকলে আরোহী আহত হন।

পরে স্থানীয়রা আহতদের উদ্ধার করে চুয়াডাঙ্গা সদর হাসপতালে ভর্তি করে। আহতরা হলেন, দামুড়হুদার হেমায়েতপুর গ্রামের বজলুর রহমানের ছেলে পাওয়ারটিলার চালক বিপ্লব হোসেন (২৮), একই এলাকার নজরুল ইসলামের ছেলে ফারুক আলি (৩২), মেহেরপুরের গাংনী উপজেলার মহিষাখোলা গ্রামের ইবাদুর রহমান (৩৮) ও তার স্ত্রী স্বর্ণালী খাতুন (৩০)।

জানা গেছে, গতকাল সকালে বিচালি বোঝায় পাওয়ারটিলা নিয়ে জয়রামপুর কাঁঠালতলা বাজারের নিকটে পৌঁছালে রাস্তার পাশের একটি বাবলা গাছের সাথে ধাক্কা লাগলে পাওয়ারটিলারটি উল্টে যায়। এসময় পাওয়ারটিলার চালক বিপ্লব হোসেন ও আরোহী ফারুক আলি রাস্তার ওপরে ছিটকে পড়ে গুরুতর জখম হয়। খবর পেয়ে ফায়ার সার্ভিসের কর্মীরা স্থানীয়দের সাহায্যে তাদের উদ্ধার করে দামুড়হুদা উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করে। তবে অবস্থা গুরুতর হওয়ায় কর্তব্যরত চিকিৎসক আহত দুজনকে প্রাথমিক চিকিৎসা দিয়ে চুয়াডাঙ্গা সদর হাসপাতালে রেফার্ড করেন।

এদিকে, মোটরসাইকেলযোগে ইবাদুর রহমান ও স্ত্রী স্বর্ণালী খাতুন চুয়াডাঙ্গা থেকে ঝিনাইদহের অভিমুখে যাচ্ছিলেন। পথিমধ্যে ডিঙ্গেদহের হাটখোলা নামকস্থানে পৌঁছালে দ্রুতগামী একটি যাত্রীবাহী বাস নিয়ন্ত্রণ হারিয়ে তাদের মোটরসাইকেলে ধাক্কা দেয়। এতে ইবাদুর রহমান ও তার স্ত্রী গুরুতর আহত হন। পরে স্থানীয়রা তাদেরকে উদ্ধার করে চুয়াডাঙ্গা সদর হাসপাতালে ভর্তি করে।

এই সাইটে নিজম্ব নিউজ তৈরির পাশাপাশি বিভিন্ন নিউজ সাইট থেকে খবর সংগ্রহ করে সংশ্লিষ্ট সূত্রসহ প্রকাশ করে থাকি। তাই কোন খবর নিয়ে আপত্তি বা অভিযোগ থাকলে সংশ্লিষ্ট নিউজ সাইটের কর্তৃপক্ষের সাথে যোগাযোগ করার অনুরোধ রইলো।বিনা অনুমতিতে এই সাইটের সংবাদ, আলোকচিত্র অডিও ও ভিডিও ব্যবহার করা বেআইনি।