চুয়াডাঙ্গা বৃহস্পতিবার , ১১ জানুয়ারি ২০২৪

আলমডাঙ্গায় মেয়াদোত্তীর্ণ ও বিক্রয় নিষিদ্ধ ওষুধ বিক্রি;

ভোক্তার অভিযানে ২ ফার্মেসিকে ২৫ হাজার টাকা জরিমানা

নিউজ রুমঃ
জানুয়ারি ১১, ২০২৪ ৮:৪৯ পূর্বাহ্ণ
Link Copied!

আলমডাঙ্গা অফিস:
আলমডাঙ্গায় মেয়াদোত্তীর্ণ ও বিক্রয় নিষিদ্ধ ওষুধ বিক্রি করায় দুই ফার্মেসিকে ২৫ হাজার টাকা জরিমানা করা হয়েছে। গতকাল বুধবার উপজেলার জামজামি বাজার এলাকায় অভিযান পরিচালনা করে এই জরিমানা করেন জাতীয় ভোক্তা সংরক্ষণ অধিদপ্তর চুয়াডাঙ্গা জেলা কার্যালয়ের সহকারী পরিচালক সজল আহম্মেদ।

জানা গেছে, গতকাল জাতীয় ভোক্তা অধিকার সংরক্ষণ অধিদপ্তর চুয়াডাঙ্গা জেলা কার্যালয় কর্তৃক আলমডাঙ্গা উপজেলার জামজামি বাজার এলাকায় অভিযান পরিচালনা করা হয়। হোটেল ও ফার্মেসিসহ নিত্যপ্রয়োজনীয় পণ্যের প্রতিষ্ঠানে তদারকি করার সময় জামজামি বাজারে মেসার্স মালিতা ফার্মেসি নামক প্রতিষ্ঠানে প্রচুর মেয়াদোত্তীর্ণ ও বিক্রয় নিষিদ্ধ ফিজিশিয়ান স্যাম্পল ওষুধ পাওয়া যায়। এছাড়া কমার্শিয়াল প্যাকেটের মধ্যে লুকিয়ে ফিজিশিয়ান স্যাম্পল ওষুধ এবং একই প্যাকেটের মধ্যে ভালো ও মেয়াদোত্তীর্ণ ওষুধ মিশিয়ে বিক্রয়ের প্রমাণ পাওয়া যায়। এসব অপরাধে প্রতিষ্ঠানটির মালিক মো. রফিকুল ইসলামকে ভোক্তা অধিকার সংরক্ষণ আইন ২০০৯ এর ৪৫ ও ৫১ ধারায় ১০ হাজার টাকা এবং মেসার্স আল্লারদান ফার্মেসির মালিক মো. হেলাল উদ্দিনকে একই অপরাধ ও ধারায় ১৫ হাজার টাকা জরিমানা করা হয়। পরে জব্দকৃত মেয়াদোত্তীর্ণ ওষুধ জনসম্মুখে পুড়িয়ে নষ্ট করা হয়।

এছাড়া বাজারে হোটেলসহ পাইকারি আড়ত ও খুচরা বাজারে তদারকি করা হয়। তাদের ক্রয়-বিক্রয় ভাউচার সংরক্ষণ, মূল্য-তালিকা প্রদর্শন বিষয়ে নির্দেশনা দেওয়া হয়। এসময় উপস্থিত ব্যবসায়ী ও জনসাধারণকে এ বিষয়ে সতর্ক ও সচেতনতামূলক লিফলেট বিতরণ করা হয়। অভিযান পরিচালনায় সহযোগিতা করে উপজেলা স্যানিটারি ইন্সপেক্টর মো. নিজাম উদ্দিন ও এসআই রকিবের নেতৃত্বে আলমডাঙ্গা থানা-পুলিশের একটি দল।

এই সাইটে নিজম্ব নিউজ তৈরির পাশাপাশি বিভিন্ন নিউজ সাইট থেকে খবর সংগ্রহ করে সংশ্লিষ্ট সূত্রসহ প্রকাশ করে থাকি। তাই কোন খবর নিয়ে আপত্তি বা অভিযোগ থাকলে সংশ্লিষ্ট নিউজ সাইটের কর্তৃপক্ষের সাথে যোগাযোগ করার অনুরোধ রইলো।বিনা অনুমতিতে এই সাইটের সংবাদ, আলোকচিত্র অডিও ও ভিডিও ব্যবহার করা বেআইনি।