চুয়াডাঙ্গা মঙ্গলবার , ১৯ জানুয়ারি ২০২১
আজকের সর্বশেষ সবখবর

মাদকমুক্ত সমাজ গড়তে এ ধরণের টুর্নামেন্ট আয়োজন অব্যহত থাকবে

সমীকরণ প্রতিবেদন
জানুয়ারি ১৯, ২০২১ ৮:৩৯ পূর্বাহ্ণ
Link Copied!

চুয়াডাঙ্গায় দ্বৈত ব্যাডমিন্টর টুর্নামেন্টের ফাইনাল ও পুরস্কার বিতরণ অনুষ্ঠানে ডিসি নজরুল ইসলাম
সমীকরণ প্রতিবেদন:
জমকালো আয়োজনে চুয়াডাঙ্গায় মুজিবর্ষ সেভেন ওয়ান অফিসার্স দ্বৈত ব্যাডমিন্টর টুর্নামেন্টের ফাইনাল ও পুরস্কার বিতরণ অনুষ্ঠিত হয়েছে। ফাইনালে দারুন খেলে চুয়াডাঙ্গা পুলিশ বিভাগের আবু জিহাদ ফকরুল আলম খান ও আশরাফ জুটি ২-০ সেটে জেলা ক্রীড়া সংস্থার রোকন-টুটুল জুটিকে পরাজিত করে চ্যাম্পিয়ন হওয়ার গৌরব অর্জন করে। গতকাল সোমবার রাত সাড়ে ১০টায় চুয়াডাঙ্গা জেলা প্রশাসকের কার্যালয় চত্বরের ব্যাডমিন্টন গ্রাউন্ডে দুই দিনব্যাপী টুর্নামেন্টের ফাইনাল খেলা শেষে চ্যাম্পিয়ন ও রানার্স আপ দলের মধ্যে পুরস্কার বিতরণ করা হয়। অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত থেকে পুরস্কার বিতরণ করেন চুয়াডাঙ্গা জেলা প্রশাসক মো. নজরুল ইসলাম সরকার।
প্রধান অতিথির বক্তব্যে জেলা প্রশাসক নজরুল ইসলাম সরকার বলেন, মাদকমুক্ত সমাজ গড়ে তুলতে এ ধরণের টুর্নামেন্ট আয়োজন অব্যহত রাখা হবে। টুর্নামেন্টে অংশগ্রহণকারী ২৪টি দলে যে ৪৯ জন অফিসার, কর্মকর্তা ও খেলোয়াড় অংশ্রগহণ করেছেন, তাঁরা খুবই ইনজয় করেছে বলে আমি মনে করি। সকলের চোখে-মুখে আনন্দ ও তৃপ্তির চিহ্ন ফুটে ওঠে।
বিশেষ অতিথির বক্তব্যে চুয়াডাঙ্গা পুলিশ সুপার মো. জাহিদুল ইসলাম সদর থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) আবু জিহাদ ও এএসআই আশরাফ চ্যাম্পিয়ন হওয়ায় তাঁদের ধন্যবাদ দেওয়ার পাশাপাশি জেলাকে মাদকমুক্ত করার প্রত্যয় ব্যক্ত করেন। তিনি বলেন, মাদক যুব সমাজকে ধংŸস করে সমাজের মেরুদণ্ড ভেঙে ফেলে। তাই খেলাধুলায় তাঁদেরকে ব্যস্ত রাখতে পারলে যুব সমাজ মাদক থেকে দূরে থাকবে।
টুর্নামেন্টের আহ্বায়ক ও অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক (সার্বিক) মনিরা পারভীনের সভাপতিত্বে পুরস্কার বিতরণ ও সমাপনী অন্ষ্ঠুানে বিশেষ অতিথি ছিলেন চুয়াডাঙ্গা-৬ বিজিবির অধিনায়ক লে. কর্নেল মো. খালেকুজ্জামান পিএসসি, অতিরিক্ত পুলিশ সুপার (প্রশাসন) আবু তারেক, অতিরিক্ত পুলিশ সুপার (সদর সার্কেল) কনক কুমার দাস, অতিরিক্ত জেলা ম্যাজিস্ট্রেট সাজিয়া আফরিন, চুয়াডাঙ্গা সদর উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা মোহাম্মদ সাদিকুর রহমান, জেলা গোয়েন্দা পুলিশের অফিসার ইনচার্জ (ওসি) কামরুজ্জামান, এনডিসি আমজাদ হোসেন, জেলা ক্রীড়া সংস্থার সাধারণ সম্পাদক নঈম হাসান জোয়ার্দ্দার, চুয়াডাঙ্গা জেলা ক্রীড়া সংস্থার সিনিয়র ভাইস চেয়ারম্যান ও সেভেন ওয়ানের চেয়ারম্যান মো. আব্দুল লতিফ খান যুবরাজ।
পৃষ্ঠপোষক লতিফ খান যুবরাজ বলেন, ‘আমি সৃষ্টির লক্ষ্য নিয়ে কাজ করে যাচ্ছি। আমাদের কোম্পানি বঙ্গবন্ধু বিপিএল-এর মতো বড় টুর্নামেন্টে টিম নেওয়ার পাশাপাশি নিজ জেলা চুয়াডাঙ্গা থেকে জাতীয় মানের খেলোয়াড় সৃষ্টি করাতে চাই। আমার কোম্পানি সেভেন ওয়ানের মাধ্যমে এ টুর্নামেন্টের সফল আয়োজন করতে পেরে নিজেকে ধন্য মনে করছি।’
অনুষ্ঠানে উপস্থিত ছিলেন চুয়াডাঙ্গা সরকারি কলেজের সাবেক অধ্যক্ষ প্রফেসর কামরুজ্জামান, জাতীয় ভোক্তা অধিকার সংরক্ষণ অধিদপ্তর চুয়াডাঙ্গা জেলা কার্যালয়ের সহকারী পরিচালক সজল আহম্মেদ, চুয়াডাঙ্গা প্রেসক্লাবের নির্বাহী সদস্য রফিক রহমান, বাংলাদেশ সাংবাদিক সমিতির সাধারণ সম্পাদক বিপুল আশরাফ, সদর থানার অফিসার ইনচার্জ (তদন্ত) লুৎফুল কবীর, জেলা ক্রীড়া সংস্থার সহসভাপতি সোহেল আকরাম, যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক আব্দুস সালাম, জিহাদী, জুলফিকার, টুটুলসহ আমন্ত্রিত অতিথিবৃন্দ। দুই দিনব্যাপী অনুষ্ঠিত খেলাগুলো পরিচালনা করেন মেহেদী ইসলাম রাসেল, সাইমুজ্জামান মিশা, হাবলু, নিশান, বিশাল, অভি ও নোমান।

দৈনিক সময়ের সমীকরণ সংবিধান, আইন ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো মন্তব্য না করার জন্য পাঠকদের বিশেষভাবে অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য অপসারণ করার ক্ষমতা রাখে।