ইপেপার । আজ রবিবার, ০৩ মার্চ ২০২৪, ১৯ ফাল্গুন ১৪৩০ বঙ্গাব্দ

মালয়েশিয়ায় প্রবেশ করতে পারবেন না বাংলাদেশি শ্রমিকরা

সমীকরণ প্রতিবেদন
  • আপলোড টাইম : ০৯:১৯:১৯ পূর্বাহ্ন, বৃহস্পতিবার, ৫ নভেম্বর ২০২০
  • / ১০৮ বার পড়া হয়েছে

বিশ্ব প্রতিবেদন:
করোনার নিষেধাজ্ঞা বিদ্যমান থাকায় বাংলাদেশিসহ বিদেশি শ্রমিকরা মালয়েশিয়ায় প্রবেশ করতে পারবেন না। দেশটির সিনিয়র মন্ত্রী (সিকিউরিটি ক্লাস্টার) দাতুক সিরি ইসমাইল সাবরি ইয়াকুব এ তথ্য জানিয়েছেন। মালয়েশিয়ায় কর্মস্থলে ফিরতে না পারায় সম্প্রতি বাংলাদেশি শ্রমিকরা ঢাকায় বিক্ষোভ করেছেন। এর পরিপ্রেক্ষিতে মালয়েশিয়ার মন্ত্রী এ তথ্য জানিয়েছেন। ইসমাইল সাবরি জানান, কোভিড-১৯ এর কারণে মালয়েশিয়ায় বিদেশি শ্রমিকদের প্রবেশে নিষেধাজ্ঞা রয়েছে। এছাড়া ইমিগ্রেশন বিভাগ নিষেধাজ্ঞা শিথিল বা সরকারের এ সংক্রান্ত নীতি পরিবর্তনের জন্য কোনো অনুরোধ জানায়নি। তিনি বলেন, ‘আমি জোর দিয়ে বলতে চাই, বিদেশিদের জন্য সীমান্ত বন্ধ রাখার আমাদের নীতি যেমন ছিল তেমনই রয়েছে। এর মধ্যে কোনো পরিবর্তন আসেনি। যারা ইমিগ্রেশন বিভাগের অনুমোদন পেয়েছেন, তাদের ছাড়া অন্য কোনো বিদেশি শ্রমিককে প্রবেশ করতে দেওয়া হবে না।’ মন্ত্রী বলেন, ‘আমরা জানতে পেরেছি, কোভিড-১৯ মহামারির কারণে যে ২৩টি দেশে কড়া নিষেধাজ্ঞা রয়েছে, বাংলাদেশ তার মধ্যে অন্যতম। তাই অনেকে ফিরতে চাইলেও তাদের অনুমতি দেবো না।’

ট্যাগ :

নিউজটি শেয়ার করে ছড়িয়ে দিন

মালয়েশিয়ায় প্রবেশ করতে পারবেন না বাংলাদেশি শ্রমিকরা

আপলোড টাইম : ০৯:১৯:১৯ পূর্বাহ্ন, বৃহস্পতিবার, ৫ নভেম্বর ২০২০

বিশ্ব প্রতিবেদন:
করোনার নিষেধাজ্ঞা বিদ্যমান থাকায় বাংলাদেশিসহ বিদেশি শ্রমিকরা মালয়েশিয়ায় প্রবেশ করতে পারবেন না। দেশটির সিনিয়র মন্ত্রী (সিকিউরিটি ক্লাস্টার) দাতুক সিরি ইসমাইল সাবরি ইয়াকুব এ তথ্য জানিয়েছেন। মালয়েশিয়ায় কর্মস্থলে ফিরতে না পারায় সম্প্রতি বাংলাদেশি শ্রমিকরা ঢাকায় বিক্ষোভ করেছেন। এর পরিপ্রেক্ষিতে মালয়েশিয়ার মন্ত্রী এ তথ্য জানিয়েছেন। ইসমাইল সাবরি জানান, কোভিড-১৯ এর কারণে মালয়েশিয়ায় বিদেশি শ্রমিকদের প্রবেশে নিষেধাজ্ঞা রয়েছে। এছাড়া ইমিগ্রেশন বিভাগ নিষেধাজ্ঞা শিথিল বা সরকারের এ সংক্রান্ত নীতি পরিবর্তনের জন্য কোনো অনুরোধ জানায়নি। তিনি বলেন, ‘আমি জোর দিয়ে বলতে চাই, বিদেশিদের জন্য সীমান্ত বন্ধ রাখার আমাদের নীতি যেমন ছিল তেমনই রয়েছে। এর মধ্যে কোনো পরিবর্তন আসেনি। যারা ইমিগ্রেশন বিভাগের অনুমোদন পেয়েছেন, তাদের ছাড়া অন্য কোনো বিদেশি শ্রমিককে প্রবেশ করতে দেওয়া হবে না।’ মন্ত্রী বলেন, ‘আমরা জানতে পেরেছি, কোভিড-১৯ মহামারির কারণে যে ২৩টি দেশে কড়া নিষেধাজ্ঞা রয়েছে, বাংলাদেশ তার মধ্যে অন্যতম। তাই অনেকে ফিরতে চাইলেও তাদের অনুমতি দেবো না।’