চুয়াডাঙ্গা রবিবার , ৭ আগস্ট ২০১৬
আজকের সর্বশেষ সবখবর

৭ দফা দাবিতে রেলপথ সম্পর্কিত স্থায়ি কমিটির সদস্য আলী আজগর টগর এমপির নিকট স্মারকলিপি পেশ

সমীকরণ প্রতিবেদন
আগস্ট ৭, ২০১৬ ৪:৫৮ পূর্বাহ্ণ
Link Copied!

unnamed

আলমডাঙ্গা অফিস: আলমডাঙ্গাবাসির পক্ষ থেকে রেলপথ সম্পর্কিত স্থায়ি কমিটির সদস্য আলী আজগর টগর-এমপির নিকট স্মারকলিপি দেওয়া হয়েছে। আলমডাঙ্গা উপজেলা যুবলীগের যুগ্ন আহ্বায়ক সাজ্জাদুল ইসলাম স্বপন আলমডাঙ্গার পক্ষ থেকে তার হাতে এ স্মারকলিপি তুলে দেন। আলমডাঙ্গা রেলস্টেশনে সীমান্ত ট্রেনের স্টপেজ, ৫৭ আপ ৭৮ ডাউন কমিউটার ট্রেন দুটি দর্শনা পর্যন্ত চলাচলসহ ৭ দফা দাবি সংবলিত এ স্মারকলিপি গ্রহণকালে চুয়াডাঙ্গা-২ আসনের সাংসদ আগামি পরশু ৮ আগস্ট অনুষ্ঠিতব্য রেলপথ সম্পর্কিত স্থায়ি কমিটিতে এ স্মারকলিপির দাবিগুলো উপস্থাপন করে পাশ করিয়ে নেওয়ার চেষ্টা করবেন বলে আশ্বস্ত করেন। স্মারকলিপিতে দাবিকৃত দফাগুলো হল- ঈশ্বরদী- চাপাইনবাবগঞ্জ চলাচলকারি ৫৭ আপ ও ৭৮ ডাউন ট্রেন দুটি দর্শনা জংশন পর্যন্ত চলাচল সম্প্রসারণ, খুলনা- সৈয়দপুরগামি ৭৪৭ আপ ও ডাউন সীমান্ত এক্সপ্রেস ২ মিনিট আলমডাঙ্গা স্টেশনে স্টপেজ, দেশের একমাত্র দ্বিতল স্টেশন আলমডাঙ্গা রেলওয়ে স্টেশনটির আদি নির্মাণশৈলী অক্ষুণ্ণ রেখে আধুনিকায়ন, আপ ও ডাউন প্লাটফর্ম বর্ধিতকরণ, এক্সপ্রেস রোড, ফুটওভার ব্রীজ স্থাপন, যাত্রী ছাউনি বর্ধিতকরণ ইত্যাদি।
স্মারকলিপিতে আরও উল্লেখ করা হয়েছে যে, দেশের অন্যতম প্রাচীন বাণিজ্যিক অঞ্চল আলমডাঙ্গা উপজেলার জনসংখ্যা ১০ লাখ। এ উপজেলার পার্শ্ববর্তি কুষ্টিয়া জেলার মিরপুর উপজেলার ৬টি ইউনিয়ন ও ঝিনাইদহ জেলার হরিণাকুন্ডু উপজেলার মানুষ, মেহেরপুর জেলার গাংনী উপজেলার অধিকাংশ মানুষ আলমডাঙ্গা স্টেশন হতে ট্রেনে যাতায়াত করে থাকে। ফলে দেশের অন্যান্য রেলস্টেশন থেকে আলমডাঙ্গা রেলস্টেশনের গুরুত্ব অধিক। তাছাড়া রাজশাহী দেশের অন্যতম শিক্ষা ও চিকিৎসা নগরী হিসেবে খ্যাতি লাভ করেছে। প্রতিদিন সীমান্তবর্তি দর্শনা, চুয়াডাঙ্গা, আলমডাঙ্গা, পোড়াদাহ, ভেড়ামারার কয়েক হাজার রোগি ও শিক্ষার্থি এ রেলপথে চলাচল করে। দর্শনা ভারত-বাংলাদেশ সীমান্তবর্তি রেলওয়ে জংশন হিসেবেও বেশ গুরুত্বপূর্ণ। এমতাবস্থায় ৫৭ ও ৭৮ ডাউন কমিউটার ট্রেনি সকাল ৭টায় ঈশ্বরদী স্টেশন থেকে যাত্রারম্ভ করে আবদালপুর স্টেশনে প্রায় ৪০ মিনিট অহেতুক যাত্রা বিরতি করে। অথচ ওই ৪০ মিনিটের সাথে আর কিছু সময় বাড়িয়ে দিয়ে ট্রেন দুটি দর্শনা পর্যন্ত চলাচলের ব্যবস্থা খুব সহজের করা সম্ভব। এতে একদিকে, রেলওয়ের যেমন আর্থিক লাভ হবে , অন্যদিকে, আমাদের কয়েক জেলার কয়েক লাখ মানুষের ট্রেনযাত্রা আরও সাচ্ছন্দময় হত। উন্নত হত কয়েকটি জেলার মানুষের যোগাযোগ ব্যবস্থার। এ স্মারকলিপি প্রদানকালে অন্যান্যের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন উপজেলা যুবলীগের যুগ্ন আহ্বায়ক শাহীন রেজা, জেলা যুবলীগ নেতা তরিকুল ইসলাম টুকুল, উৎপল প্রমুখ।

দৈনিক সময়ের সমীকরণ সংবিধান, আইন ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো মন্তব্য না করার জন্য পাঠকদের বিশেষভাবে অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য অপসারণ করার ক্ষমতা রাখে।