হুইপ ছেলুন জোয়ার্দ্দারের কাছে প্রধানমন্ত্রী বরাবর স্মারকলিপি পেশ

480

চুয়াডাঙ্গা জেলা বিসিএস সাধারণ শিক্ষা ক্যাডার মর্যাদা রক্ষা কমিটি কর্তৃক
নিজস্ব প্রতিবেদক: বিসিএস পরীক্ষা ছাড়াই ক্যাডার ভুক্তি বন্ধে মাননীয় প্রধানমন্ত্রীর অনুশাসন ‘জাতীয় শিক্ষানীতি-২০১০’ ও বিসিএস নিয়োগ বিধি ১৯৮১ এর নির্দেশনা অনুযায়ী কলেজ জাতীয়করণ আদেশের আগেই জাতীয়করণের প্রক্রিয়াধীন কলেজসমূহের শিক্ষকদের ক্যাডার বহির্ভূত রেখে তাদের নিয়োগ, পদায়ন ও পদোন্নতি সংক্রান্ত আলাদা বিধিমালা প্রণয়নের প্রয়োজনীয় উদ্যোগ গ্রহণের দাবীতে চুয়াডাঙ্গা-১ আসনের সাংসদ, জাতীয় সংসদের হুইপ বীর মুক্তিযোদ্ধা সোলায়মান হক জোয়ার্দ্দার ছেলুনের কাছে প্রধানমন্ত্রী বরাবর স্মারকলিপি পেশ করেছে জেলা বিসিএস সাধারণ শিক্ষা ক্যাডার মর্যাদা রক্ষা কমিটির নেতৃবৃন্দ। গতকাল সন্ধ্যায় হুইপ ছেলুনের বাস ভবনে উপস্থিত হয়ে বিসিএস সাধারণ শিক্ষা ক্যাডার কর্মকর্তারা এ স্মারকলিপি প্রদান করেন।
লিখিত স্মারকলিপিতে উল্লেখ করা হয়, জাতীয় শিক্ষানীতি-২০১০ এর সুস্পষ্ট নির্দেশনা ও মাননীয় প্রধানমন্ত্রীর অনুশাসন লঙ্ঘন করার চেষ্টা চলছে। জাতীয় সংসদে প্রধানমন্ত্রীর এক সম্পূরক প্রশ্নের জবাবে মাননীয় প্রধানমন্ত্রী সুস্পষ্টভাবে বলেছেন, জাতীয়করণের পর সংশ্লিষ্ট কলেজ শিক্ষকদের নিজ প্রতিষ্ঠানেই থাকতে হবে। তাঁরা অন্যত্র বদলি হতে পারবেন না যা জাতীয়করণকৃত কলেজ শিক্ষকদের ক্যাডার বহির্ভুত রাখার ইঙ্গিত। কিন্তু শিক্ষানীতি এবং প্রধানমন্ত্রীর অনুশাসনকে সম্পূর্ণভাবে পাশকাটিয়ে কোন নীতিমালা প্রণয়ন ব্যতিরেকেই ৪৫টি কলেজের সব শিক্ষককে বিসিএস সাধারণ শিক্ষা ক্যাডারভুক্তকরণের কাজ সম্পন্ন করা হয়েছে এবং জাতীয়করণের জন্য চূড়ান্ত ২৮৩ কলেজে কর্মরত কমবেশী ১৫ হাজার শিক্ষককে একই প্রক্রিয়ায় বিসিএস পরীক্ষা ছাড়াই শিক্ষা ক্যাপারে আত্তীকরণের চেষ্টা চরছে যা ক্যাডার সার্ভিস সংক্রান্ত বিধিবিধানের পরিপন্থী। এ ছাড়াও সরকারি চাকুরির নন ক্যাডার কর্মকর্তারা পদোন্নতি পেলেও ক্যাডারভুক্ত হতে পারেন না, সেখানে সম্পূর্ণ বেসরকারি চাকুরি থেকে সরাসরি ক্যাডারভুক্তির বিষয়টি রীতিমত বাতুলতা।
এমতাবস্তায় ক্যাডার সাধারণ শিক্ষা কর্মকর্তাদের দাবি, শিক্ষা ক্যাডারে আত্তীকরণ বন্ধে BCS Recruitment Rules 1981 এর ব্যত্যয় না ঘটিয়ে নতুন কোন কলেজ জাতীয়করণ আদেশের আগেই জাতীয়করণের তালিকাভুক্ত কলেজ শিক্ষকদের ক্যাডার বহির্ভুত রেখে তাদের নিয়োগ, পদায়ন ও পদোন্নতি সংক্রান্ত আলাদা বিধিমালা করতে হবে। অর্থ্যৎ জাতীকরণকৃত কলেজ শিক্ষকরা হবেন ক্যাডার বহির্ভুত।
স্মারকলিপি প্রদানকালে চুয়াডাঙ্গা জেলা বিসিএস সাধারণ শিক্ষা ক্যাডার মর্যাদা রক্ষা কমিটির সদস্য এবং বিসিএস ক্যাডার চুয়াডাঙ্গা সরকারি কলেজ থেকে মো. ফরহাদ উদ্দীন, মো. দেলোয়ার হোসেন, মো. জাহিদুল হাসান, মো. মহসিন কবির, মো. হেলাল উদ্দীন, মৌসুমী হোসেন, মো. মারফত আলী, আদর্শ মহিলা কলেজ থেকে মো. মাসুদ পারভেজ, দর্শনা সরকারি কলেজের মো. জাহাঙ্গীর আলম খান, মো. আশরাফুল আলম ও মো. ইকরামুল হক উপস্থিত ছিলেন।