স্বামী-স্ত্রীসহ আটক তিনজনের জেল-জরিমানা

24

দামুড়হুদায় মাদকদ্রব্য নিয়ন্ত্রণ অধিদপ্তরের পৃথক অভিযান
নিজস্ব প্রতিবেদক:
দামুড়হুদা থেকে তিন মাদক ব্যবসায়ীকে আটক করা হয়েছে। গতকাল সোমবার সকাল থেকে দুপুর পর্যন্ত দামুড়হুদা উপজেলার কলাবাড়ি গ্রামে অভিযান চালিয়ে গাঁজাসহ তাঁদেরকে আটক করা হয়। আটককৃতরা হলেন- আলমডাঙ্গা উপজেলার খাদিমপুর স্কুলপাড়ার মৃত আক্কাস আলীর ছেলে মিণ্টু (৪২), দামুড়হুদা উপজেলার কলাবাড়ি মাঠপাড়ার মৃত ছাত্তার জোয়ার্দ্দারের ছেলে মুকুল জোয়ার্দ্দার (৪৩) এবং মুকুল জোয়ার্দ্দারের স্ত্রী শ্যামলী খাতুন (৩০)। মিণ্টুকে নিয়মিত মামলাসহ দামুড়হুদা মডেল থানায় সোপর্দ করা হয় এবং বাকিদের ভ্রাম্যমাণ আদালতে জেল-জরিমানাসহ কারাগারে পাঠানো হয়েছে।
ভ্রাম্যমাণ আদালত সূত্রে জানা গেছে, গতকাল বেলা ১১টার দিকে চুয়াডাঙ্গা জেলা প্রশাসনের নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট আমজাদ হোসেনের নেতৃত্বে মাদকদ্রব্য নিয়ন্ত্রণ অধিদপ্তরের পরিদর্শক আব্দুল্লাহ আল মামুন, উপ-পরিদর্শক আবুল কালাম আজাদ ও সহকারী উপ-পরিদর্শক শাহারা ইয়াছমিন দামুড়হুদা উপজেলার কলাবাড়ি মাঠপাড়ায় অভিযান চালান। এসময় ওই এলাকার রাস্তার ওপর থেকে এক কেজি গাঁজাসহ মিণ্টুকে আটক করা হয়। আটককৃত মিণ্টুকে নিয়মিত মামলাসহ দামুড়হুদা মডেল থানায় সোপর্দ করা হয়।
এদিকে, গতকাল দুপুর সাড়ে ১২টার দিকে চুয়াডাঙ্গা জেলা প্রশাসনের নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট সবুজ কুমার বসাকের নেতৃত্বে মাদকদ্রব্য নিয়ন্ত্রণ অধিদপ্তরের একই অভিযানিক টিম কলাবাড়ি গ্রামের মাঠপাড়ায় অভিযান চালিয়ে মুকুল জোয়ার্দ্দার ও তাঁর স্ত্রী শ্যামলী খাতুনকে আটক করে। আটককৃত মুকুল জোয়ার্দ্দারের নিকট থেকে ১২০ গ্রাম এবং শ্যামলী খাতুনের কাছ থেকে ১ শ গ্রাম গাঁজা উদ্ধার করা হয়। পরে নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট সবুজ কুমার বসাক ভ্রাম্যমাণ আদালতের মাধ্যমে মাদকদ্রব্য নিয়ন্ত্রণ আইনে মুকুল জোয়ার্দ্দার ও তাঁর স্ত্রী শ্যামলী খাতুনকে ৬ মাস করে কারাদণ্ড ও উভয়কে ২ শ টাকা করে জরিমানা করা হয়। সাজাপ্রাপ্তদের গতকালই জেলা কারাগারে পাঠানো হয়েছে।