চুয়াডাঙ্গা বৃহস্পতিবার , ১২ মে ২০২২
আজকের সর্বশেষ সবখবর

স্বামী খালাস, স্ত্রীর যাবজ্জীবন

সমীকরণ প্রতিবেদনঃ
মে ১২, ২০২২ ২:৪১ অপরাহ্ণ
Link Copied!

মেহেরপুরে হেরোইন রাখার দায়ে জরিনা খাতুন (৩৯) নামের এক নারীকে যাবজ্জীবন কারাদণ্ড দিয়েছেন আদালত। একই সঙ্গে তাকে ২০ হাজার টাকা জরিমানা অনাদায়ে আরও এক বছরের কারাদণ্ড দেওয়া হয়েছে। গতকাল বুধবার বিকেলে অতিরিক্ত জেলা ও দায়রা জজ আদালতের বিচারক রিপতী কুমার বিশ্বাস এ রায় দেন। জরিনা খাতুন মেহেরপুরের গাংনী উপজেলার রংমহল গ্রামের আব্দুর রহমানের স্ত্রী।
আদালতের অতিরিক্ত পাবলিক প্রসিকিউটর অ্যাডভোকেট কাজি শহীদ জানান, ২০১০ সালের ৭ জুলাই মাদকবিরোধী টাস্কফোর্সের অভিযান চালানো হয়। ওই সময় গাংনী উপজেলার রংমহল গ্রামের আব্দুর রহমানের বাড়ি তল্লাশি চালিয়ে ৫০ গ্রাম হেরোইন উদ্ধার করা হয়। ওই ঘটনায় মেহেরপুর জেলা মাদকদ্রব্য নিয়ন্ত্রণ অধিদপ্তরের পরিদর্শক আহসান হাবীব মামলা করেন। পরে মামলার তদন্তকারী কর্মকর্তা প্রাথমিক তদন্ত শেষ করে ২০১০ সালের ২৯ আগস্ট আদালতে চার্জশিট দেন। মামলায় সাতজন সাক্ষীর সাক্ষ্যপ্রদানে জরিনা খাতুন দোষী প্রমাণিত হলে আদালত তাকে যাবজ্জীবন সশ্রম কারাদণ্ড ও ২০ হাজার টাকা জরিমানা অনাদায়ে আরও এক বছরের কারাদণ্ড দেন। জরিনা খাতুনের স্বামী আব্দুর রহমানের বিরুদ্ধে আনিত অভিযোগ প্রমাণিত না হওয়ায় তাকে বেকসুর খালাস দেওয়া হয়।

দৈনিক সময়ের সমীকরণ সংবিধান, আইন ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো মন্তব্য না করার জন্য পাঠকদের বিশেষভাবে অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য অপসারণ করার ক্ষমতা রাখে।