সারা দেশে ভারি বর্ষণ জনজীবন বিপর্যস্ত

294

img_9363_49429_1497282053

সমীকরণ ডেস্ক: সাগরে নিম্নচাপের প্রভাবে সারা দেশের বেশিরভাগ অঞ্চলে সোমবার সারা দিন ভারি বৃষ্টিপাত হয়। এতে জনজীবন বিপর্যস্ত হয়ে পড়ে। বিঘিœত হয় স্বাভাবিক কর্মকা-। ঝড়োবৃষ্টির কবলে পড়ে নোয়াখালীর হাতিয়ায় ইঞ্জিনচালিত নৌকাডুবিতে দুই জেলে নিহত হয়েছেন। নিখোঁজ আছেন আরও ৫ জন। এছাড়া কক্সবাজারে ট্রলারডুবির ঘটনায় দুই জেলে নিখোঁজ হয়েছেন। রাঙ্গামাটিতে ভূমিধসে দুই শিশুর মৃত্যু হয়েছে। বিরূপ আবহাওয়ার কারণে চট্টগ্রাম বন্দর চ্যানেল উত্তাল হয়ে ওঠে। বহির্নোঙরে পণ্য খালাস বিঘ্নিত হয়। প্রচ- ঢেউ আর বাতাসের তোড়ে দুটি জাহাজ ডুবে যায়। আর পতেঙ্গা সমুদ্র সৈকতে আটকে গেছে দুটি লাইটার জাহাজ। সোমবারের সারা দিনের বৃষ্টির পানিতে চট্টগ্রামের নিম্নাঞ্চল তলিয়ে গেছে। জলাবদ্ধতা দেখা দেয় চট্টগ্রাম ও ঢাকা শহরের ভেতরেও। কোথাও হাঁটুপানি আবার কোথাও কোমর সমান পানি জমে যায়। এতে পানিবন্দি হয়ে পড়েন সংশ্লিষ্ট এলাকার বাসিন্দারা। চট্টগ্রামে পিচ ঢালাই রাজপথে নৌকা চলাচল করতে দেখা গেছে। এছাড়া ঝড়ো ও দমকা হাওয়ায় কক্সবাজারে অসংখ্য গাছপালা ভেঙে পড়েছে। এতে বিদ্যুৎ সরবরাহ বিচ্ছিন্ন রয়েছে। রোববার সন্ধ্যা থেকে সোমবার সন্ধ্যা পর্যন্ত জেলা শহর ছাড়া কক্সবাজারের বিশাল এলাকা অন্ধকারে রয়েছে। বিদ্যুতের অভাবে রোববার রাতে কক্সবাজার থেকে স্থানীয় কোনো পত্রিকা প্রকাশ করা সম্ভব হয়নি। বৈরী আবহাওয়ার কারণে সোমবার বরিশাল-ঢাকাসহ অভ্যন্তরীণ বিভিন্ন নৌরুটে লঞ্চ চলাচলে নিষেধাজ্ঞা জারি করে বাংলাদেশ অভ্যন্তরীণ নৌ পরিবহন কর্তৃপক্ষ (বিআইডব্লিউটিএ)। রাত সাড়ে ৮টার পর এ নিষেধাজ্ঞা জারি করা হয়। তবে এর আগে সদরঘাট থেকে বড় লঞ্চ ও জাহাজ গন্তব্যে ছেড়ে গেছে। এদিকে বৈরী আবহাওয়ার কারণে মাওয়ায় শিমুলিয়া-কাওড়াকান্দি রুটে লঞ্চ ও সি-বোট চলাচল বন্ধ করে দেয়া হয়েছে। তবে ৫টি ফেরি চলাচল অব্যাহত রাখা হয়েছে। এদিকে, দুর্যোগপূর্ণ আবহাওয়ার কারণে বরিশাল-ঢাকাসহ অভ্যন্তরীণ বিভিন্ন নৌরুটে লঞ্চ চলাচলে নিষেধাজ্ঞা জারি করেছে বিআইডব্লিউটিএ। বিআইডব্লিউটিএর নৌ নিরাপত্তা ও ট্রাফিক বিভাগের উপ-পরিচালক আজমল হুদা মিঠু জানান, সোমবার সারা দিন লঘুচাপের সঙ্গে ২নং সতর্ক সংকেত দেখাতে বলা হয়েছে। কিন্তু সন্ধ্যার পর লঘুচাপটি নিম্নচাপে পরিণত হওয়ায় সব ধরনের নৌযান চলাচলের ওপর রাত সাড়ে ৮টার পর থেকে নিষেধাজ্ঞা জারি করা হয়েছে। তিনি বলেন, নিম্নচাপ আবহাওয়ার জন্য ভয়ঙ্কর পূর্বাভাস। তাই পরবর্তী নির্দেশ না দেয়া পর্যন্ত অভ্যন্তরীণ রুটগুলোতে নৌযান চলাচল বন্ধ থাকবে। এছাড়া নিম্নচাপ ও চলমান বৃষ্টিপাতের কারণে ব্রাহ্মণবাড়িয়ার আশুগঞ্জ নৌবন্দর থেকে সব ধরনের নৌযান চলাচল বন্ধ করে দেয় বাংলাদেশ অভ্যন্তরীণ নৌ পরিবহন কর্তৃপক্ষ। এছাড়া আশুগঞ্জ নৌ বন্দরকে এক নম্বর সতর্ক সংকেত দেখাতে বলা হয়েছে।