সহকারী শিক্ষিকা নাসিমা খাতুনকে এবার বরখাস্ত

30

প্রতিবেদক, আন্দুলবাড়ীয়া:
জীবননগরের আন্দুলবাড়ীয়া বহুমুখী মাধ্যমিক বিদ্যালয়ের ম্যানেজিং কমিটির জরুরি সভায় সমাজবিজ্ঞান বিভাগের সহকারী শিক্ষিকা নাসিমা খাতুনকে সাময়িক বরখাস্ত করা হয়েছে। গতকাল মঙ্গলবার বেলা তিনটার দিকে ম্যানেজিং কমিটির সভাপতি জরুরি সভা তলব করে সর্বসম্মতিক্রমে এ সিদ্ধান্ত গ্রহণ করেন। পরবর্তী সভায় সিদ্ধান্ত না নেওয়া পর্যন্ত এ বরখাস্ত বহাল রাখা হবে বলে কমিটির বৈঠক সূত্রে এ তথ্য জানা গেছে।
জানা গেছে, আন্দুলবাড়ীয়া বহুমুখী মাধ্যমিক বিদ্যালয়ের সহকারী শিক্ষিকা নাসিমা খাতুন গত ২০১৯ সালের ১৪ নভেম্বর জেএসসি পরীক্ষা চলাকালীন সময়ে হল ত্যাগ করে প্রধান শিক্ষক মমতাজ আহম্মেদর নিকট বোর্ডের একটি চিঠি স্বাক্ষর করতে দেন। প্রধান শিক্ষক স্বাক্ষর করতে কালক্ষেপণ করায় প্রধান শিক্ষক ও শিক্ষিকার মধ্যে বাগবিতণ্ডার সৃষ্টি হয়। এ ঘটনাকে কেন্দ্র করে প্রধান শিক্ষক ম্যানেজিং কমিটির নিকট শিক্ষিকার বিরুদ্ধে দায়িত্ব-কর্তব্য অবহেলা ও অসদাচরণের অভিযোগ তোলেন। এরই প্রেক্ষিতে ম্যানেজিং কমিটির সভায় কৃতকর্মের জন্য লিখিত জবাব প্রদানসহ ৩ সদস্যবিশিষ্ট তদন্ত কমিটি গঠন করে নাসিমা খাতুনকে সাময়িক বহিস্কার করা হয়। সাক্ষ্য প্রমাণে নাসিমা খাতুনের বিরুদ্ধে আনিত অভিযোগ প্রমাণিত হওয়ায় তাঁকে অভিযুক্ত করে তদন্তকারী দল ম্যানেজিং কমিটির নিকট তদন্ত প্রতিবেদন দাখিল করেন। ২০২০ সালের ৭ মে ম্যানেজিং কমিটির সভায় অভিযুক্ত শিক্ষিকা জবাব প্রদানে অনাকাঙ্খিত ঘটনার জন্য প্রকাশ্যে ক্ষমা প্রার্থনা করলে ম্যানেজিং কমিটি বহিস্কারাদেশ প্রত্যাহার করে কৃতকর্মের জন্য ৬ মাসের বিদ্যালয়ের বেতন কর্তন করার সিদ্ধান্ত প্রদান করে।
এ ঘটনাকে কেন্দ্র করে সহকারী শিক্ষিকা নাসিমা খাতুন জীবননগর সহকারী জজ আদালতে গত ৬ জানুয়ারি প্রধান শিক্ষক মমতাজ আহম্মেদ তাজসহ ১৬ জনকে বিবাদী করে নালিশি অভিযোগ দাখিল করেন। দাখিলি অভিযোগে মমতাজ আহম্মেদ তাজের বিরুদ্ধে কুপ্রস্তাব দেওয়া ও অন্যের স্ত্রীকে ভাগিয়ে নিয়ে বিয়ে করাসহ তার বিরুদ্ধে নারী ও শিশু নির্যাতন দমন আইনে বিভিন্ন মোকদ্দমা বিচারাধীন রয়েছে বলে উল্লেখ করা হয়। আদালতে দায়েরকৃত অভিযোগ মিথ্যা ও ভিত্তিহীন দাবী করে প্রধান শিক্ষক মমতাজ আহম্মেদ তাজের নেতৃত্বে গত সোমবার দুপুর ১২টার দিকে বিদ্যালয়ের শিক্ষক, শিক্ষিকা ও কর্মচারীরা সহকারী শিক্ষিকার বহিস্কারের দাবিতে মানববন্ধন কর্মসূচি পালন করে এবং ম্যানেজিং কমিটির সভাপতির নিকট স্মারকলিপি প্রদান করেন। সৃষ্ট ঘটনায় ম্যানেজিং কমিটি গতকাল মঙ্গলবার জরুরি সভা তলব করে তাঁকে সাময়িকভাবে বহিস্কার করেন।