চুয়াডাঙ্গা শুক্রবার , ২৩ এপ্রিল ২০২১
আজকের সর্বশেষ সবখবর

মেহেরপুরে একজনসহ দেশে আরও ৯৮ জনের মৃত্যু

সমীকরণ প্রতিবেদন
এপ্রিল ২৩, ২০২১ ১০:৪৫ পূর্বাহ্ণ
Link Copied!

Girl in a jacket

কমতে শুরু করেছে সংক্রমণ, নতুন করে চুয়াডাঙ্গায় ৫ জনসহ দেশে ৪০১৪ জন আক্রান্ত
সমীকরণ প্রতিবেদক:
করোনায় গত ২৪ ঘণ্টায় দেশে আরও ৯৮ জনের মৃত্যু হয়েছে। আর নতুন রোগী শনাক্ত হয়েছে ৪ হাজার ১৪ জন। গতকাল বৃহস্পতিবার স্বাস্থ্য অধিদপ্তরের নিয়মিত বিজ্ঞপ্তিতে এ তথ্য জানানো হয়। গত ২৪ ঘণ্টায় নমুনা পরীক্ষা হয়েছে ২৭ হাজার ৪২৯ জনের। নমুনা পরীক্ষা বিবেচনায় রোগী শনাক্তের হার ১৪ দশমিক শূন্য ৬৩ শতাংশ। এ পর্যন্ত দেশে মোট ৭ লাখ ৩৬ হাজার ৭৪ জনের করোনার সংক্রমণ শনাক্ত হয়েছে। তাঁদের মধ্যে মারা গেছেন ১০ হাজার ৭৮১ জন। মোট সুস্থ হয়েছেন ৬ লাখ ৪২ হাজার ৪৪৯ জন। গতকাল করোনায় ৯৫ জনের মৃত্যু হয়েছিল এবং ৪ হাজার ২৮০ জন নতুন রোগী শনাক্ত হয়েছিল। গত বছরের ৮ মার্চ দেশে প্রথম করোনা শনাক্তের কথা জানায় সরকার। গত বছরের মে মাসের মাঝামাঝি থেকে সংক্রমণ বাড়তে শুরু করে। আগস্টের তৃতীয় সপ্তাহ পর্যন্ত শনাক্তের হার ২০ শতাংশের ওপরে ছিল। এরপর থেকে শনাক্তের হার কমতে শুরু করে।
গত জুন থেকে আগস্ট এই তিন মাস করোনার সংক্রমণ ছিল তীব্র । মাঝে নভেম্বর-ডিসেম্বরে কিছুটা বাড়লেও বাকি সময় সংক্রমণ নিম্নমুখী ছিল। এ বছরের মার্চে শুরু হয়েছে করোনার দ্বিতীয় ঢেউ। প্রথম ঢেউয়ের চেয়ে এবার সংক্রমণ বেশি তীব্র। মধ্যে কয়েক মাস ধরে শনাক্তের চেয়ে সুস্থ বেশি হওয়ায় দেশে চিকিৎসাধীন রোগীর সংখ্যা কমে আসছিল। কিন্তু মার্চ থেকে চিকিৎসাধীন রোগীর সংখ্যাও আবার বাড়তে শুরু করেছে।
কোনো দেশে সংক্রমণ নিয়ন্ত্রণে আছে কি না, তা বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থার ঠিক করা কিছু নির্দেশক থেকে বোঝা যায়। তার একটি হলো রোগী শনাক্তের হার। টানা দুই সপ্তাহের বেশি রোগী শনাক্তের হার ৫ শতাংশের নিচে থাকলে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আছে বলে ধরা যায়। এ বছর ফেব্রুয়ারির শুরু থেকে শেষ পর্যন্ত শনাক্তের হার ৩ শতাংশের নিচে ছিল। দুই মাস পর গত ১০ মার্চ দৈনিক শনাক্ত আবার হাজার ছাড়ায়। এরপর দৈনিক শনাক্ত বাড়ছেই।
জনস্বাস্থ্য বিশেষজ্ঞরা বলছেন, দেশে করোনা সংক্রমণের দ্বিতীয় ঢেউয়ের পরিস্থিতি খারাপের দিকে যাচ্ছে। সংক্রমণ বেড়ে যাওয়ায় গত ২৯ মার্চ বেশ কিছু বিধিনিষেধসহ ১৮ দফা নির্দেশনা জারি করে সরকার। এর মধ্যে ঘরের বাইরে গেলে মাস্কের ব্যবহার অন্যতম। কিন্তু সংক্রমণ আশঙ্কাজনকভাবে বাড়তে থাকলেও জনগণের মধ্যে স্বাস্থ্যবিধি মানার ক্ষেত্রে এখনো উদাসীনতা দেখা যাচ্ছে। জনস্বাস্থ্যবিদেরা বলছেন, সংক্রমণ নিয়ন্ত্রণ করতে হলে মাস্ক পরাসহ স্বাস্থ্যবিধি মানার বিকল্প নেই।
চুয়াডাঙ্গা:
চুয়াডাঙ্গায় নতুন করে আরও পাঁচজন করোনা আক্রান্ত হয়েছেন। এ নিয়ে জেলায় মোট করোনা আক্রান্তের সংখ্যা দাঁড়িয়েছে ১ হাজার ৮৪১ জন। এর মধ্যে সদর উপজেলার ৯৭৭ জন, আলমডাঙ্গায় ৩৫২ জন, দামুড়হুদায় ৩১৫ জন ও জীবননগরে ১৯৭ জন। গতকাল বৃহস্পতিবার সদর জেলায় করোনা থেকে নতুন ৪ জন সুস্থ হয়েছেন। এ নিয়ে জেলায় মোট সুস্থ হয়েছে ১ হাজার ৬৭০ জন। এর মধ্যে সদর উপজেলার ৮৮৩ জন, আলমডাঙ্গার ৩২৫ জন, দামুড়হুদার ২৮৪ জন ও জীবননগরের ১৭৮ জন।
জানা যায়, গত বুধবার জেলা স্বাস্থ্যবিভাগ করোনা পরীক্ষার জন্য ১৬টি নমুনা সংগ্রহ করে পরীক্ষার জন্য প্রেরণ করে। গতকাল সিভিল সার্জন অফিসে উক্ত নমুনা ও পূর্বের পেন্ডিং নমুনার মধ্যে ১৬টি নমুনার ফলাফল সিভিল সার্জন অফিস প্রকাশ করে। এর মধ্যে পাঁচটি নমুনায় করোনা শনাক্ত হয়েছে, বাকি ১১টি নমুনার ফলাফল নেগেটিভ আসে। গতকাল জেলা স্বাস্থ্যবিভাগ করোনা পরীক্ষার জন্য নতুন ২৫টি নমুনা সংগ্রহ করে পরীক্ষার জন্য পরীক্ষাকেন্দ্রে প্রেরণ করেছে। এ নিয়ে জেলায় মোট নমুনা সংগ্রহ হয়েছে ৯ হাজার ১৪৮টি।
চুয়াডাঙ্গা সিভিল সার্জন অফিসের সর্বশেষ তথ্যানুযায়ী জেলা থেকে এ পর্যন্ত মোট নমুনা সংগ্রহ ৯ হাজার ১৪৮টি, প্রাপ্ত ফলাফল ৮ হাজার ৯২২টি, পজিটিভ ১ হাজার ৮৪১টি ও নেগেটিভ ৭ হাজার ৪৭টি। শেষ খবর পাওয়া পর্যন্ত চুয়াডায় ১১৭ জন করোনা আক্রান্ত রোগী চিকিৎসাধীন অবস্থায় ছিল। এর মধ্যে সদর উপজেলায় অবস্থানকালে আক্রান্ত হয়েছেন ৭১ জন, আলমডাঙ্গায় ১১ জন, দামুড়হুদায় ২০ জন ও জীবননগরে ১৬ জন। আক্রান্তদের মধ্যে বর্তমানে ১০৭ জন হোম আইসোলেশন আছেন। এর মধ্যে সদর উপজেলায় ৬৩ জন, আলমডাঙ্গায় ১১ জন, দামুড়হুদায় ২০ জন ও জীবননগরে ১৪ জন। সদর উপজেলার ৩জন ও জীবননগরের ১জনসহ ৪ জন প্রাতিষ্ঠানিক আইসোলেশনে আছেন। এছাড়াও উন্নত চিকিৎসার জন্য চুয়াডাঙ্গার বাইরে রয়েছেন আরও ৫ জন। চুয়াডাঙ্গায় করোনা আক্রান্ত হয়ে এ পর্যন্ত মোট মৃত্যু হয়েছে ৫৬ জনের। এর মধ্যে ৭ জনের মৃত্যু হয়েছে জেলার বাইরে।
মেহেরপুর :
মেহেরপুরে করোনায় মহিবুল ইসলাম নামে একজনের মৃত্যু হয়েছে। গতকাল বৃহস্পতিবার সন্ধ্যায় মেহেরপুর জেনারেল হাসপাতালের করোনা ওয়ার্ডে চিকিৎসাধীন অবস্থায় তাঁর মৃত্যু হয়। নিহত মহিবুল মেহেরপুর জেলার গাংনী উপজেলার কাজীপুর ইউনিয়নের হাড়াভাঙ্গা গ্রামের মাদ্রাসা পাড়ার মৃত সালামত আলীর ছেলে। গতকাল মেহেরপুরে নতুন করে আরও এক জনের শরীরে করোনা শনাক্ত হয়েছে। এ নিয়ে বর্তমানে করোনা আক্রান্ত হয়ে মেহেরপুরে চিকিৎসাধীন অবস্থায় রয়েছেন ৩৮ জন।

Girl in a jacket

দৈনিক সময়ের সমীকরণ সংবিধান, আইন ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো মন্তব্য না করার জন্য পাঠকদের বিশেষভাবে অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য অপসারণ করার ক্ষমতা রাখে।