চুয়াডাঙ্গা বৃহস্পতিবার , ১১ জানুয়ারি ২০১৮
আজকের সর্বশেষ সবখবর

মিড-ডে মিলে সমাজের বৃত্তবানদের এগিয়ে আসার আহ্বান জেলা প্রশাসকের

সমীকরণ প্রতিবেদন
জানুয়ারি ১১, ২০১৮ ১১:১৭ পূর্বাহ্ণ
Link Copied!

দামুড়হুদার গোপালপুরে বিদ্যালয়ে মিড ডে মিল ও অভিভাবক সমাবেশ অনুষ্ঠিত
দামুড়হুদা/ভালাইপুর প্রতিনিধি: দামুড়হুদা উপজেলার জুড়ানপুর ইউনিয়নের গোপালপুর ডিজিএম শান্তিপাড়া সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ে মিড ডে মিল ও অভিভাবক সমাবেশ অনুষ্ঠিত হয়েছে। গতকাল বুধবার বেলা ১১টার দিকে বিদ্যালয় মাঠে এ সমাবেশ অনুষ্ঠিত হয়। দামুড়হুদা উপজেলা শিক্ষা অফিসার সাকী সালামের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠিত অভিভাবক সমাবেশে প্রধান অতিথি হিসাবে উপস্থিত ছিলেন চুয়াডাঙ্গা জেলা প্রশাসক জিয়াউদ্দিন আহাম্মেদ। প্রধান অতিথির বক্তব্যে জেলা প্রশাসক জিয়াউদ্দীন আহাম্মেদ বলেন, বিদ্যালয়ের সকল কার্যক্রমে আমি খুবই আনন্দিত। তিনি শিক্ষার্থীদের অভিভাবদের উদ্দেশ্যে বলেন আপনার সন্তানকে সুশিক্ষায় শিক্ষিত করে তুলতে হলে পিতা মাতা দু’জনকেই সমান ভাবে সন্তানদের প্রতি খেয়াল রাখতে হবে। তবে একটা শিশুর জন্য মায়ের গুরুত্বটা সবথেকে বেশি প্রয়োজন। তিনি আরও বলেন, চুয়াডাঙ্গা জেলা শিক্ষার দিক থেকে অনেক পিছিয়ে আছে। তাই কিভাবে শিক্ষার মান উন্নয়ন করা সম্ভব সেদিকে আমাদের সকলকে একত্রিত হয়ে কাজ করতে হবে। তিনি বলেন, আজ যেমন প্রধান শিক্ষকের মায়ের মৃত্যুবার্ষিকী উপলক্ষে মিড ডে মিলের আয়োজন করেছেন, ঠিক তেমন ভাবে সমাজের বিত্তবানরা এগিয়ে আসলে বাচ্চারা বিদ্যালয়ে আসার প্রতি আরো বেশি মনোযোগী হবে। তিনি শিক্ষকদের পরামর্শদেন বিদ্যালয়ে পড়াশোনার পাশাপাশি আরো বেশ কিছু কার্যক্রম শুরু করতে হবে। যেমন সততা ষ্টোর স্থাপন করতে হবে। যে দোকানে কোন বিক্রেতা থাকবে না। দোকানের প্রতিটা মালা মালের উপর মূল্য লেখা থাকবে। শিক্ষার্থীরা নিজেরা দোকান থেকে তাদের প্রয়োজনীয় জিনিস পত্র নিয়ে নিজ থেকে ক্রয় মূল্য দোকানে রেখে আসবে। যার মাধ্যমে বাচ্চারা সৎ ও নিতীবান হয়ে উঠবে। বর্ষা মৌসুমে ছাত্র-ছাত্রীদের বিদ্যালয়ে আসা যাওয়া করতে যেন কোন সদস্যা না হয় তার জন্য একটি বক্স কালভার্টের ব্যবস্থা করবেন বলেও জানান।
অনুষ্ঠানের সভাপতির বক্তব্যে উপজেলা প্রাথমিক শিক্ষা অফিসার সাকী সালাম বলেন, বিদ্যালয়ের ম্যানেজিং কমিটির সাথে বিদ্যালয়ের সকল শিক্ষকের সুস¤পর্ক রাখতে হবে। তাহলে বিদ্যালয়ের আরো বেশি উন্নয়ন করা সম্ভব হবে। অভিভাবকদের উদ্দেশ্য তিনি বলেন, আপনারা নিয়মিত বিদ্যালয়ে এস খোজখবর নিবেন, তাতে করে বাচ্চারা আরো বেশি মনোযোগী হবে এবং শিক্ষকরাও উৎসাহিত হবে। উপজেলা শিক্ষা অফিসারের নেতৃত্বে উপজেলা পরিষদের পক্ষথেকে বাচ্চাদের জন্য আকর্ষনীয় টিফিন বাক্স দেওয়া হয়। অনুষ্ঠানে স্বাগত বক্তব্য রাখেন বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক আলাউদ্দিন, অভিভাকদের মধ্যে বক্তব্য রাখেন বিজলী খাতুন, ম্যানেজিং কমিটির পক্ষথেকে বক্তব্য দেন সাবেক ইউপি সদস্য নাজিম উদ্দিন।
এছাড়াও অনুষ্ঠানে উপস্থিত ছিলেন বিদ্যালয়ের শিক্ষক সাহাদৎ হোসেন, নাজমা খাতুন, মইনুদ্দিন, একরামুল হক, ইসরাফিল হোসেন, আসমাউল-হুসনা, মিঠু, ম্যানেজিং কমিটির সভাপতি আবুল কালাম, ফরজ, তুহিন মল্লিক, ওমর, ডাঃ সোলায়মান, বখতিয়ার, সালাম, বজলুর, শাহিন, মনিরুজ্জামান মাষ্টার, রহিম মাষ্টার, মাফুজ মিনারুল মেম্বর, আফরোজা খাতুন, রয়েল এক্সপ্রেসের স্বতাধিকারী সালাউদ্দিন ও লোটাস। অনুষ্ঠানটি সার্বিক ভাবে উপস্থাপনা করেন দামুড়হুদা প্রাথমিক শিক্ষক সমিতির সাধারন স¤পাদক আরোতী।

দৈনিক সময়ের সমীকরণ সংবিধান, আইন ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো মন্তব্য না করার জন্য পাঠকদের বিশেষভাবে অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য অপসারণ করার ক্ষমতা রাখে।