মশক নিধনে ফগ মেশিন কাঁধে মেয়র মিণ্টু

32

ঝিনাইদহ অফিস:
দেশে করোনা পরিস্থিতির মধ্যে বাড়ছে ডেঙ্গুর ভয়াবহতা। এতে উদ্বিগ্ন নাগরিক সমাজ। বিষয়টি মাথায় রেখে ঝিনাইদহ শহরকে ডেঙ্গু মুক্ত রাখতে মশক নিধন শুরু করেছে পৌরসভা। মেয়র সাইদুল করিম মিণ্টু নিজেই ফগ মেশিন নিয়ে নেমে পড়েছেন মাঠে।
করোনা দুর্যোগ শুরুর পর থেকেই মাঠে আছেন মেয়র সাইদুল করিম মিণ্টু। করোনা আক্রান্ত হওয়ার পরও থেমে নেই তিনি। খাদ্য-সহায়তা ও অক্সিজেন নিয়ে ছুটছেন মানুষের বাড়ি বাড়ি। এ ছুটে চলার যেন শেষ নেই। ঝিনাইদহ পৌর এলাকায় প্রায় ৪০ হাজার মানুষের মধ্যে খাদ্য-সামগ্রী বিতরণ করে নজির সৃষ্টি করেছেন। করোনা আক্রান্ত রোগীদের জন্য ঝিনাইদহের দুটি স্বেচ্ছাসেবী সংগঠনের পৃষ্ঠপোষকতা করে ঝিনাইদহ শহরে ফ্রি অক্সিজেন সেবা প্রদান করছেন। তাঁর পরামর্শে পৌরসভার স্বেচ্ছাসেবী হিসেবে ছাত্রলীগ, স্বেচ্ছাসেবক লীগ প্রতিনিয়ত করোনা সচেতনতায় প্রচার ও মাস্ক বিতরণ করে যাচ্ছে। দেশে গণটিকা কার্যক্রম শুরু হলে ছাত্রলীগ করোনা টিকা প্রত্যাশিদের ফ্রি নিবন্ধন করে দিয়ে সহযোগিতা করছে সরকারকে। গতকাল রোববার সকালে মেয়র সাইদুল করিম মিণ্টু শহরের পাঁয়রা চত্বর থেকে হাটের রাস্তা অভিমুখে ফগ মেশিন দিয়ে মশক নিধনের কাজ শুরু করেন।
মেয়র সাইদুল করিম মিণ্টু বলেন, করোনায় ঝিনাইদহে ভয়াবহ অবস্থা চলছে। এর মধ্যে আবার চোখ রাঙাচ্ছে ডেঙ্গু। তাই আমরা বিষয়টি হালকাভাবে নিচ্ছি না। পৌর এলাকার সব পাড়া-মহল্লায় মশক নিধন শুরু হবে। মানুষ যাতে কোরবানির ঈদ ভালোভাবে করতে পারে, সেই চেষ্টা করা হচ্ছে।