চুয়াডাঙ্গা মঙ্গলবার , ২৬ জুলাই ২০২২
আজকের সর্বশেষ সবখবর

ভারতের রাষ্ট্রপতি দ্রৌপদী মুর্মুর শপথ

সমীকরণ প্রতিবেদনঃ
জুলাই ২৬, ২০২২ ৮:৫১ পূর্বাহ্ণ
Link Copied!

সমীকরণ প্রতিবেদন: দ্রৌপদী মুর্মু গতকাল সকালে সংসদের ঐতিহাসিক সেন্ট্রাল হলে ভারতের পঞ্চদশ রাষ্ট্রপতি হিসেবে শপথ গ্রহণ করেছেন। আদিবাসী সাঁওতাল সমাজ থেকে তিনিই প্রথম রাষ্ট্রপতি। তিনি ভারতে দ্বিতীয় মহিলা রাষ্ট্রপতি। প্রথম মহিলা রাষ্ট্রপতি প্রতিভা সিং দেবী পাতিল শপথ অনুষ্ঠানে উপস্থিত ছিলেন। মুর্মুকে শপথবাক্য পাঠ করান সুপ্রিম কোর্টের প্রধান বিচারপতি এন ভি রামান্না। মঞ্চে ছিলেন চতুর্দশ রাষ্ট্রপতি রামনাথ কোবিন্দ, উপরাষ্ট্রপতি বেংকাইয়া নাইডু ও লোকসভার স্পিকার ওম বিড়লা। শপথ অনুষ্ঠানে ছিলেন প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি, কংগ্রেস সভাপতি সোনিয়া গান্ধী এবং বেশ কিছু সংসদ সদস্য ও বিভিন্ন রাজ্যের মুখ্যমন্ত্রী। রাষ্ট্রপতি পদ গ্রহণের পর মুর্মু তাঁর ভাষণের শেষে সাঁওতালি ভাষায় ‘জোহর’ এবং ‘জয় হিন্দ’ বলেন। তিনিই প্রথম রাষ্ট্রপতি যাঁর জন্ম ভারতের স্বাধীনতার পরে।
মুর্মু তাঁর ভাষণে বলেন, ‘এমন সময়ে আমি রাষ্ট্রপতি হলাম যখন ভারত স্বাধীনতার ৭৫ বছর উদ্যাপন করছে। আর আমি রাজনীতিতে যোগ দিই যখন ভারত স্বাধীনতার ৫০ বছর উদ্যাপন করছিল।’ ভারতের ওড়িশা রাজ্যের ময়ূরভঞ্জ জেলার উপরবেড়া দরিদ্র সাঁওতাল পরিবারে তাঁর জন্ম। রাষ্ট্রপতি মুর্মু বলেন, ‘আমার গ্রামে প্রাথমিক শিক্ষা লাভ করাই দুরূহ ছিল। তবু আমি আমার গ্রামের প্রথম মহিলা যে কলেজে পড়ার সুযোগ পেয়েছে। একজন সামান্য কাউন্সিলর থেকে রাষ্ট্রপতি হলাম। ভারতের গণতন্ত্রের এটাই বৈশিষ্ট্য।’ মহাত্মা গান্ধী, নেতাজি সুভাষচন্দ্র বসু ও জওহরলাল নেহরুর স্বাধীনতার জন্য অবদানের কথা স্বীকার করে দ্রৌপদী মুর্মু বলেন, ‘ভারতের স্বাধীনতা সংগ্রামে আদিবাসী সমাজের সাঁওতাল, কোল, ভীল বিদ্রোহের ভূমিকা অনস্বীকার্য।’ গতকাল তিনি রাইসিনা হিলসে রাষ্ট্রপতি ভবনে বাস শুরু করেন। বিদায়ী রাষ্ট্রপতি রামনাথ কোবিন্দ দিল্লির জনপথ রোডে নতুন বাংলোয় চলে যান।

দৈনিক সময়ের সমীকরণ সংবিধান, আইন ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো মন্তব্য না করার জন্য পাঠকদের বিশেষভাবে অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য অপসারণ করার ক্ষমতা রাখে।