চুয়াডাঙ্গা সোমবার , ২১ নভেম্বর ২০১৬
আজকের সর্বশেষ সবখবর

বারাদীতে গরুর খাস খাওয়ার গোলা তৈরি করাকে কেন্দ্র করে সংর্ঘষ প্রতিপক্ষের আঘাতে মৃত্যু

সমীকরণ প্রতিবেদন
নভেম্বর ২১, ২০১৬ ২:৫৯ অপরাহ্ণ
Link Copied!

setমেহেরপুর অফিস: মেহেরপুরের পাটকেলপোতা গ্রামে তুচ্ছ ঘটনায় প্রতিপক্ষের সংর্ঘষে একজন নিহত ও ৩ জন আহত হয়েছেন। ঘটনাটি ঘটেছে মেহেরপুর সদর উপজেলা পিরোজপুর ইউনিয়নের পাটকেলপোতা গ্রামে। এঘটনায় ওই গ্রামের মোঃ রবকুল হোসেনের ছেলে ক্ওাছার আলী বাদি হয়ে মেহেরপুর সদর থানায় একটি মামলা হয়েছে। মো: তাহাজ উদ্দীনের পরিবারের সঙ্গে রবগুলের পরিবারের একটি সংঘর্ষ ঘটে। মামলার বিবরণে জানা যায়, বাড়ির পাশে বারাদি বিএডিসি’র জায়গায় গরুর খাস খাওয়ার গোরা তৈরি করাকে কেন্দ্র করে একটি সংর্ঘষ হয়। এই ঘটনায় হাবিবুর রহমান ও জাব্বারুল, রাফিয়া খাতুন আহত হয়। তাদেরকে আহত আবস্থায় উদ্ধার করে মেহেরপুর জেনারেল হাসপাতালে ভর্তি করা হয়। পরে ডাক্তার প্রাথমিক চিকিৎসা দিয়ে কু্িষ্টয়া রেফার্ড করেন। পরে তাদেরকে রাজশাহী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে তাদের রেফার্ড করা হয়। রাজশাহী মেডিকেলে নেয়ার পথে জাব্বারুল মারা যান। প্রাথমিক তদন্ত শেষে মেহেরপুর সদর থানা পুলিশ চার্জশীট দাখিল করেন। কাওছার আলী বাদী হয়ে মেহেরপুর সদর থানায় মোঃ আলাউদ্দীন পিতা মোঃ তাহাজউদ্দীন, মোঃ তাহাজউদ্দীন পিতা (মৃত ) মোঃ গফুর  পোদ্দার  এর নামে এক খুনের মামলা দায়ের করে । মামলা নং জিআর ২৬২/১৪ ।  এদিকে আসামী পক্ষ খুনের আসামী হওয়াতে ভয় পেয়ে দীর্ঘদিন ধরে আত্মগোপনে থাকে এবং উক্ত সময়ে  বাদিপক্ষরা আসামীদের মালামাল লুট ও ঘরবাড়ি ভাংচুর করেছে বলে অভিযোগ করে। আসামীরা দীর্ঘদিন ধরে আত্মগোপনে থেকে আইনের প্রতি আস্থা এনে আত্মসমর্পণ করে। মামলা  চলাকালীন সময়ে  মেহেরপুর জেলখানায় আসামী তাহাজ উদ্দিন অসুস্থ্য হয়ে পড়লে তাকে মেহেরপুর জেনারেল হাসপাতালে নেয়া হয়। সেখানে চিকিৎসাধীন অবস্থায় মারা গেছেন। আসামী মোঃ আলাউদ্দিন এখন কারা বন্দী আছে।  আসামী পক্ষ সব কিছু হারিয়ে নিঃস্ব হয়ে বর্তমানে ঘর ছাড়া।

দৈনিক সময়ের সমীকরণ সংবিধান, আইন ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো মন্তব্য না করার জন্য পাঠকদের বিশেষভাবে অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য অপসারণ করার ক্ষমতা রাখে।