চুয়াডাঙ্গা শুক্রবার , ১৬ সেপ্টেম্বর ২০১৬

প্রশাসনিক কর্মকর্তা ও রাজনৈতিক নেতৃবৃন্দ ও বিশিষ্টজনেরা কে কোথায় নামাজ আদায় করলেন

সমীকরণ প্রতিবেদন
সেপ্টেম্বর ১৬, ২০১৬ ১:৪০ অপরাহ্ণ
Link Copied!

FB_IMG_1473912378794

নিজস্ব প্রতিবেদক: পবিত্র ঈদ-উল আযহার আনন্দ ভাগাভাগি করতে শিশু-কিশোর, ছোট-বড়, ধনী-গরীব এক কাতারে শামিল হয়ে ঈদ উৎসব পালন করেন। ঈদের জামায়াতগুলোতে এলাকার বিশিষ্টজনদের সাথে সাধারণ নাগরিকরা একই কাতারে নামাজ আদায় করেছেন। এবারও একাধিক ঈদগা মাঠে বিশিষ্টজনেরা নামাজ আদায় করেছেন চুয়াডাঙ্গা, মেহেরপুর ও ঝিনাইদহের জেলা ও উপজেলা পর্যায়ের সবকটি ঈদগাহ মাঠে ঈদ-উল আযহার নামাজ আদায় হয়েছে। ঈদুল আযহার জামাত মঙ্গলবার বিভিন্ন ঈদগাহ গুলোতে ৭টা থেকে ১০টা মধ্যে অনুষ্ঠিত হয়। চুয়াডাঙ্গা মেহেরপুর ও ঝিনাইদহে সবচেয়ে বড় ঈদের জামাত গুলো সকাল ৭ থেকে সাড়ে ৮.৩০মিনিটের মধ্যে অনুষ্ঠিত হয়। চুয়াডাঙ্গা জেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি জাতীয় সংসদের হুইপ বীর মুক্তিযোদ্ধা সোলায়মান হক জোয়ার্দ্দার ছেলুন এমপি চুয়াডাঙ্গা পৌর ঈদগাহ ময়দানে প্রথম জামাতে ঈদের নামাজ আদায় করেন। নামাজ শেষে পিতা-মাতা ও দাদা-দাদির কবর জিয়ারত করেন। পরে নিজ বাসভবনে দলীয় নেতাকর্মী, সরকারি-বেসরকারি গণ্যমান্য ব্যক্তিসহ সাধারণ জনগণের সাথে কুশলবিনিময় করেন। চুয়াডাঙ্গা জেলা প্রশাসক সায়মা ইউনুস চুয়াডাঙ্গায় সপরিবারে ঈদ উদযাপন করেছেন। জেলা প্রশাসকের পক্ষে তার স্বামী প্রফেসর মোহাম্মদ লোকমান হাকিম খাঁন ও ছেলে সামিন আরমান খাঁন টেনিস গ্রাউন্ডে জেলা প্রশাসনের আয়োজনে বিশেষ জামাতে নামাজ আদায় করেন। নামাজ শেষে জেলা প্রশাসক সায়মা ইউনুস গণ্যমান্য ব্যক্তিদের সাথে স্বামী ও ছেলেকে সাথে নিয়ে ঈদ শুভেচ্ছা বিনিময় করেন। চুয়াডাঙ্গা পুলিশ সুপার রশীদুল হাসান পুলিশ লাইন ঈদগা ময়দানে নামাজ আদায় করেন। তিনি সারাদিন পুলিশ লাইনে সবাইকে নিয়ে ব্যস্ত সময় কাটান। একই সাথে জেলার প্রত্যেকটি ঈদগাহ ময়দানসহ গুরুত্বপূর্ণ স্থান তদারকি করেন। চুয়াডাঙ্গার কৃতি সন্তান সিঙ্গাপুরস্থ বাংলাদেশ সোসাইটির সভাপতি, বিশিষ্ট সমাজ সেবক আলহাজ্ব সাহিদুজ্জামান টরিক তার ছোট ভাই চুয়াডাঙ্গা জেলা বিএনপির আহ্বায়ক কমিটির সদস্য ও সাবেক ছাত্রনেতা বিশিষ্ট ব্যবসায়ী হাজি শরীফুজ্জামান শরীফকে সাথে নিয়ে টেনিস গ্রাউন্ডে জেলা প্রশাসনের আয়োজনে বিশেষ জামাতে নামাজ আদায় করেন। নামাজ শেষে তিনি বাবার কবর জিয়ারত করতে সপরিবারে আলমডাঙ্গার পাচঁ কমলাপুরে যান। চুয়াডাঙ্গা জেলা পরিষদ প্রশাসক দামুড়হুদা উপজেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক মাহফুজুর রহমান মঞ্জু তার নিজ এলাকায় নামাজ আদায় করেন। জেলা আওয়ামীলীগের সহ-সভাপতি খুস্তার জামিল ও সাবেক মেয়র জেলা আওয়ামীলীগের যুগ্ম-সাধারণ সম্পাদক রিয়াজুল ইসলাম জোয়ার্দ্দার টোটন চুয়াডাঙ্গা পৌর ঈদগাহ ময়দানে নামাজ আদায় করেন। চুয়াডাঙ্গা পৌর মেয়র ওবায়দুর রহমান চৌধুরী জিপু চুয়াডাঙ্গা পৌর ঈদগাহ ময়াদনে প্রথম জামাতে ঈদের নামাজ আদায় শেষে বাবা কবর জিয়ারত করে সবার সাথে ঈদ শুভেচ্ছা বিনিময় করেন এবং সারাদিন কোরবানির জন্য নির্ধারিত স্থানগুলো তদারকি করেন। চুয়াডাঙ্গা সদর উপজেলা চেয়ারম্যান জেলা আওয়ামী লীগের সহ-সভাপতি আসাদুল হক বিশ্বাস আলোকদিয়া-মনিরামপুর নিজ গ্রামের ঈদগা ময়দানে নামাজ আদায় করেন। জেলা ক্রীড়া সংস্থার সাধারণ সম্পাদক ও জেলা যুবলীগ নেতা নঈম হাসান জোয়ার্দ্দার তার চাচা জাতীয় সংসদের হুইপ বীর মুক্তিযোদ্ধা সোলায়মান হক জোয়ার্দ্দার ছেলুন এমপি’র সাথে চুয়াডাঙ্গা পৌর ঈদগাহ ময়দানে নামাজ আদায় করেন। জেলা ছাত্রলীগের সাবেক সাধারণ সম্পাদক মোহাইমেন হাসান জোয়ার্দ্দার অনিক চুয়াডাঙ্গা পৌর ঈদগাহ ময়দানে নামাজ আদায় করেন। চুয়াডাঙ্গা প্রেসক্লাবের সভাপতি আজাদ মালিথা চুয়াডাঙ্গা আলিয়া মাদরাসা ঈদগাহ ময়দানে ঈদের নামাজ আদায় করেন। সেক্রেটারি ফাইজার চৌধুরী চুয়াডাঙ্গা পৌর ঈদগাহ ময়াদনে ঈদের নামাজ করেন। দৈনিক সময়ের সমীকরণের প্রধান সম্পাদক নাজমুল হক স্বপন ও নিউ মাকের্টের ব্যবসায়ী সুমন পারভেজ টেনিস গ্রাউন্ডে জেলা প্রশাসনের আয়োজনে বিশেষ জামাতে নামাজ আদায় করেন। এছাড়া চুয়াডাঙ্গা সবচেয়ে বড় দুটো ঈদের জামাত চুয়াডাঙ্গা কেন্দ্রীয় ঈদগা ময়দানে অনুষ্ঠিত হয়েছে। ভি.জে স্কুল মাঠ,বুজরুকগড়গড়ি সিঅ্যান্ডবি ঈদগা ময়দানে, হাটকালুগঞ্জ পুরাতন জামে মসজিদ সংলগ্ন ঈদগায়, কেদারগঞ্জ বেলায়েত হোসেন ঈদগায়, আদর্শ উচ্চ বিদ্যালয় ময়দানে, বুজরুকগড়গড়ি মাদরাসা প্রাঙ্গণে, ইসলামপাড়া গোরস্তান জামে সমজিদে, চুয়াডাঙ্গা পৌর কলেজমাঠ সংলগ্ন মাঠে, পলাশাড়া জামে মসজিদ প্রাঙ্গণে, খাদেমুল ইসলাম ঈদগায়, বেলগাছি ঈদগায়, রাহেলা খাতুন বালিকা স্কুলমাঠে, পুরাতন গোরস্তানপাড়া জামে মসজি, আল হেলাল ইসলামী একাডেমি মাঠে, নূরনগর-কলোনি জামে মসজিদ সংলগ্ন, নূরনগর ঈদগায়, বড়বাজার মসজিদে, ওয়াবদা ঈদগায়, বুজরুকগড়গড়ি বনানীপাড়া, ভিমরুল¬াহ ঈদগায়, সাতগাড়ি ঈদগায়, দিগড়ি ঈদগায়, তালতলা ঈদগায়, সুমিরদিয়া আল আকসা ঈদগায়, চুয়াডাঙ্গা টাউন ফুটবল মাঠে, ও পীরগঞ্জ (ঠাকুরপুর) ঈদগা ময়দানে ঈদের নামাজ নির্ধারিত সময়ে অনুষ্ঠিত হয়। উল্লেখিত ঈদগাহ ময়দান গুলোতে সমাজের বিভিন্ন স্তরের মানুষ স্ফূর্তভাবে পবিত্র ঈদুল আজহার নামাজ আদায় করেন।
আলমডাঙ্গা অফিস জানিয়েছে, সারা দেশের ন্যয় আলমডাঙ্গাতেও গত ১৩ সেপ্টেম্বর ঈদ-উল আজহা উদযাপিত হয়েছে। আলমডাঙ্গা উপজেলার কেন্দ্রীয় ঈদগাহ ময়দান দারুস সালাম ঈদগাহ ময়দানে ঈদের নামাজ আদায় করেছেন উপজেলা চেয়ারম্যান বীর মুক্তিযোদ্ধা জেলা আওয়ামীলগের সদস্য হেলাল উদ্দিন, আলমডাঙ্গা উপজেলা নির্বাহী অফিসার আজাদ জাহান, জেলা আওয়ামীলীগের সহ-সভাপতি বীর মুক্তিযোদ্ধা এ্যাড. আব্দুর রশীদ, আলমডাঙ্গা দারুস সালাম ঈদগাহ কমিটির সভাপতি আলহাজ্ব ডাঃ আব্দুল হামিদ, আলমডাঙ্গা থানার অফিসার ইনচার্জ আকরাম হোসেন, উপজেলা বিএনপির একাংশের সভাপতি শহিদুল কাউনাইন টিলু, উপজেলা আওয়ামীলীগের সাধারন সম্পাদক ইয়াকুব আলী মাষ্টার, হারদী ইউপি চেয়ারম্যন জেলা আওয়ামীলীগের সদস্য নুরুল ইসলাম, বেলগাছি ইউপি চেয়ারম্যান উপজেলা আওয়ামীলীগের সহ-সভাপতি আমিরুল ইসলাম মন্টু, আলমডাঙ্গা প্রেসক্লাবের সভাপতি ও দৈনিক সময়ের সমীকরণের আলমডাঙ্গা ব্যুরো প্রধান খ. হামিদুল ইসলাম আজম, পৌর বিএনপির একাংশের সাধারণ সম্পাদক আজিজুর রহমান পিন্টু, আলমডাঙ্গা ডিগ্রী কলেজের অধ্যক্ষ আলহাজ্ব নজরুল ইসলাম, উপজেলা জাতীয় পার্টির সভাপতি জাহিদ হাসান রেন্টু, সাধারণ সম্পাদক আব্দুররশিদ। আলমডাঙ্গা এরশাদপুর ঈদগাহ ময়দানে ঈদের নামাজ আদায় করেছেন আলমডাঙ্গা উপজেলা আওয়ামীলীগের সভাপতি ও পৌর মেয়র হাসান কাদির গনু, পৌর আওয়ামীলীগের সভাপতি আবু মূছা। আলমডাঙ্গা গোবিন্দপুর ঈদগাহ ময়দানে ঈদের নামাজ আদায় করেছেন জেলা জাসদের সভাপতি সাবেক পৌর মেয়র বীর মুক্তিযোদ্ধা এম. সবেদ আলী, উপজেলা বিএনপির একাংশের সভাপতি আলহাজ মজিবর রহমান, পৌর আওয়ামীলীগের সাধারণ সম্পাদক সিরাজুল ইসলাম, পৌর বিএনপির সভাপতি আনিছুর রহমান, পৌর জাসদের সভাপতি সিরাজুল ইসলাম। বন্ডবিল ঈদগাহ ময়দানে ঈদের নামাজ আদায় করেছেন জেলা আওয়ামীলীগের সহ-সভাপতি বিশিষ্ট ব্যবসায়ী আওরঙ্গজেব মোল্লা টিপু, মোল্লা মটোরস্-এর স্বত্বাধিকারী বিশিষ্ট শিল্পপতি শহিদুল ইসলাম শিপলেন মোল্লা। কুমারী ঈদগাহ ময়দানে ঈদের নামাজ আদায় করেছেন প্রেসক্লাবের একাংশের সভাপতি খন্দকার শাহ আলম মন্টু, উপজেলা আওয়ামীলীগের সিনিয়রসহ-সভাপতি সাবেক ইউপি চেয়ারম্যান মজিবর রহমান, ইউপি চেয়ারম্যান আবু সাঈদ পিন্টু। মুন্সিগঞ্জ ঈদগাহ ময়দানের ঈদের নামাজ আদায় করেছেন আলমডাঙ্গার  উপজেলার সাবেক চেয়ারম্যান মকবুলার রহমান, ইউপি চেয়ারম্যান আমিনুল ইসলাম রোকন, সাবেক ইউপি চেয়ারম্যান ও উপজেলা বিএনপির একাংশের সাধারণ সম্পাদক আসিরুল ইসলাম সেলিম, হাটবোয়ালিয়ায় ঈদের নামাজ আদায় করেছেন চুয়াডাঙ্গা জেলা আওয়ামীলীগের তথ্য ও গবেষণা সম্পাদক ভাংবাড়িয়া ইউপি চেয়ারম্যান কাউছার আহমেদ বাবলু, সাবেক ইউপি চেয়ারম্যান সানোয়ার হোসেন লাড্ডু, আলমডাঙ্গা মুক্তিযোদ্ধা কমান্ডের সাবেক কমান্ডার আবুল কাশেম মাষ্টার। কালিদাসপুর ঈদগা ময়দানের ঈদের নামাজ আদায় করেছেন ইউপি চেয়ারম্যান নুরুল ইসলাম, সাবেক ইউপি চেয়ারম্যান হাসানুজ্জামান, আলমডাঙ্গা উপজেলা মুক্তিযোদ্ধা কমন্ডার শফিউর রহমান জোয়ার্দ্দার সুলতান, উপজেলা যুবলীগের আহবায়ক আহসানউল্লাহ, উপজেলা যুবদলের আহবায়ক এমদাদুল হক ডাবু।
মেহেরপুর অফিস জানিয়েছে, ত্যাগের মহিমায় বছর ঘুরে আবারও ফিরে এসেছে ঈদুল আযহা। মুসুলমানদের ঘরে ঘরে নিয়ে এসেছে খুশির বার্তা। ধর্মীয় ভাবগাম্ভীর্যের মধ্য দিয়ে মুসলিম সম্প্রদায় উদযাপন করেছে ঈদুল আযহা। মঙ্গলবার সকাল ৮ টার সময় মেহেরপুর শহরের কেন্দ্রীয় ঈদগাহ ময়দাানে ঈদের প্রধান জামাত অনুষ্ঠিত হয়েছে। ৮.টার সময় মেহেরপুর শহরের কেন্দ্রীয় ঈদগাহ ময়দানে ঈদের প্রধান জামাত অনুষ্ঠিত হয়েছে। ঈমামতি করেন মাও. আব্দুল হান্নান। পৌর মেয়র মোতাছিম বিল¬াহ মতু সহ কয়েক হাজার মুসলি¬ এখানে ঈদের নামাজ আদায় করেন। সকাল সাড়ে ৮.১৫ মিনিটের সময় ঈদের ২য় জামাত অনুষ্ঠিত হয়েছে মেহেরপুর-চুয়াডাঙ্গা সড়কের পুরাতন ঈদগাহ ময়দানে। সেখানে ঈমামতি করেন মাও. রোকনুজ্জামান। এছাড়াও জেলার পাড়া-মহল¬া, গ্রামগঞ্জে ঈদের জামাত অনুষ্ঠিত হয়েছে। নামাজ শেষে মহান আল¬াহর সন্তুষ্টির উদ্দেশ্যে পশু কোরবানি দেন মুসলিম সম্প্রদায়।
জীবননগর অফিস জানিয়েছে, জীবননগর উপজেলার সকল স্থানে কঠোর নিরাপত্তার মধ্যে দিয়ে এবং আনান্দঘন পরিবেশে  পালিত হল পবিত্র ঈদুল আযহা। গত মঙ্গলবার সারাদেশের ন্যায় জীবননগর উপজেলার কেন্দ্রীয় ঈদগা মাঠে সকাল সাড়ে ৮টার সময় কঠোর নিরাপত্তার মধ্যে দিয়ে পালিত হল ঈদুল আযহা এ সময় সকলের সাথে জীবননগর কেন্দ্রীয় ঈদগা মাঠে ঈদুল আযহার নামাজ আদায় করেন জীবননগর উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান আবু. মো. আ. লতিফ, জীবননগর উপজেলা নির্বাহী অফিসার নুরুল হাফিজ, পৌর মেয়র জাহাঙ্গীর আলম, জীবননগর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা লিয়াকত হোসেন সহ  সরকারী বেসরকারী বিভিন্ন প্রতিষ্ঠানের কর্মকর্তা কর্মচারী ও জীবননগর শহরের সকল মুরসুল্লীগণ এখানে নামাজ আদায় করেন। এই ঈদগায়ে জীবননগর উপজেলার সব চেয়ে বড় জামায়াতে হয়ে থাকে বলে জানা গেছে ।

দৈনিক সময়ের সমীকরণ সংবিধান, আইন ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো মন্তব্য না করার জন্য পাঠকদের বিশেষভাবে অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য অপসারণ করার ক্ষমতা রাখে।