প্রত্যেকটি সরকারি দপ্তরকে ভালো সেবা দিতে হবে

56

চুয়াডাঙ্গায় মাসিক উন্নয়ন সমন্বয় কমিটির সভায় জেলা প্রশাসক নজরুল ইসলাম
নিজস্ব প্রতিবেদক:
চুয়াডাঙ্গা জেলা উন্নয়ন সমন্বয় কমিটির বছরের প্রথম তথা জানুয়ারি মাসের মাসিক সভা অনুষ্ঠিত হয়েছে। গতকাল রোববার সকাল ১০টায় অনলাইন প্লাটফর্মে জুম ক্লাউড অ্যাপের মাধ্যমে এ সভা অনুষ্ঠিত হয়। সভায় সভাপতিত্ব করেন চুয়াডাঙ্গা জেলা প্রশাসক নজরুল ইসলাম সরকার।
সভাপতির বক্তব্যে জেলা প্রশাসক বলেন, প্রত্যেকটি সরকারি উন্নয়নমূলক কাজ শতভাগ মানসম্পন্ন হতে হবে। সংশ্লিষ্ট প্রতিষ্ঠানকে ঠিকাদার এবং কাজের ওপর নজর রাখতে হবে। মাননীয় প্রধানমন্ত্রী মানসম্পন্ন কাজ চান। সেটি বাস্তবায়ন করতে হবে। প্রত্যেকটি ক্ষেত্রে দুর্নীতি রোধ করতে হবে। সরকারের জিরো টলারেন্স নীতি অবলম্বন করতে হবে। ক্ষুধামুক্ত দারিদ্রমুক্ত সোনার বাংলা গড়ে তুলতে প্রত্যেককে কাজ করতে হবে। প্রত্যেকটি সরকারি দপ্তরকে ভালো সেবা দিতে হবে। মনে করতে হবে মানুষের সেবা দেওয়ায় প্রধান কাজ। আর সেই কাজটিকে ভালোভাবে করতে হবে। আমরা চাই জেলার প্রত্যেকটি মানুষ সরকারি প্রত্যেকটি সেবা যেন সহজেই পায়। খেয়াল রাখতে হবে কোনোভাবেই যেন সাধারণ মানুষের সরকারি সেবা পেতে দুর্ভোগ পোহাতে না হয়।
জেলা শিক্ষা অফিসারের উদ্দেশ্যে তিনি বলেন, কিছু কিছু স্থানে শোনা যাচ্ছে স্কুলগুলো ভর্তি কার্যক্রমে সরকার নির্ধারিত ফি থেকে বেশি অর্থ নেওয়া হচ্ছে। সরকার যে খাতগুলোতে টাকা নেওয়ার নির্দেশনা দিয়েছে, তার থেকে বেশি নেওয়া যাবে না। জেলা কর্মসংস্থান ও কারিগরি প্রশিক্ষণ কেন্দ্রকে নির্দেশনা দিয়ে তিনি বলেন, সরকার টেকনিক্যাল শিক্ষার ওপর গুরুত্ব দিচ্ছে। এই শিক্ষা যেন খাতায় থেকে না যায়। হাতে-কলমে শেখাতে হবে। বিদেশ যাওয়ার বিষয়ে আপনাদের দুটি দপ্তরের সম্পর্কই আছে। কম খরচে যে বিদেশ যাওয়া যায়, সেটি মানুষকে জানাতে হবে। সাধারণ মানুষ যেন দালালের খপ্পরে পড়ে অনেক বেশি টাকা খরচ না করে, সরকারিভাবে কম খরচে বিদেশ যেতে পারে। সে বিষয়ে উদ্যোগ নিতে হবে।
সভায় উপস্থিত ছিলেন অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক (সার্বিক) মনিরা পারভীন, চুয়াডাঙ্গা সদর উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা মোহাম্মদ সাদিকুর রহমান প্রমুখ। এছাড়াও নিজ নিজ কার্যালয় থেকে জুম অ্যাপে উন্নয়ন সমন্বয় কমিটির সভায় যুক্ত ছিলেন কমিটির সদস্যরা।