চুয়াডাঙ্গা মঙ্গলবার , ৩ জানুয়ারি ২০১৭
আজকের সর্বশেষ সবখবর

নীতি নৈতিকতা আর আইনের তোয়াক্কা না করে ঝিনাইদহে বিভিন্ন সংগঠনের সাইনবোর্ড শোভা বর্ধনের জন্য এসব করা হলেও ভোগান্তিতে পথচারীসহ ছোটখাট যানবাহন

সমীকরণ প্রতিবেদন
জানুয়ারি ৩, ২০১৭ ১১:৩৮ পূর্বাহ্ণ
Link Copied!

Toron-Pic-Road-Side

ঝিনাইদহ অফিস: ঝিনাইদহ জেলা শহরের সড়ক মহাসড়ে দলীয় ও বিভিন্ন ধর্মীয় সংগঠনের তোরণ, সাইনবোর্ড ও প্লাকার্ড এখন মৃত্যু ফাঁদে পরিণত হয়েছে। এসব তোরণ বা দলীয় সাইনবোর্ড দিনের পর দিন সড়কের উপর জায়গা দখল করে থাকায় যানবাহন চলাচলে বাঁধা সৃষ্টি হচ্ছে। অনেক সময় দুর্ঘটনায় পতিত হচ্ছে রিক্সা, ভ্যান, ইজিবাইকসহ সাইকেল আরোহীরা। খোঁজ নিয়ে জানা গেছে, ঝিনাইদহ চুয়াডাঙ্গা বাসষ্ট্যান্ডে এমন একাধিক তোরণ জায়গা দখল করে আছে। ঝিনাইদহ ফায়ার সার্ভিসের সামনে একটি তোরণ রাস্তা দখল করে আছে এক মাসেরও বেশি সময়। নীতি নৈতিকতা আর আইনের তোয়াক্কা না করে এসব তোরণ আর প্লাকার্ড তৈরীর করে রাখা হয়েছে দলীয়ভাবে। শহরের প্রধান বাস টার্মিনাল, হামদহ, আরাপপুর ও বাইপাস সড়তের আলহেরা স্কুলের সামনে অনেক দলীয় তোরণ শোভা পাচ্ছিল। শহরের হাটের রাস্তায় রাজারবাগের একটি তোরণ দিনের পর দিন রাস্তা দখল করে আছে। খোজ নিয়ে জানা গেছে, ঝিনাইদহে সড়ক ও সেতুমন্ত্রী আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ওবাইদুল কাদের আসার খবরে দলীয়ভাবে তোরণ, ব্যানার ও প্লাকার্ড তৈরী করা হয়। শহরের শোভা বর্ধনের জন্য এসব করা হলেও বেশ কিছুদিন পার হলেও সেগুলো এখনো সড়ক দখল করে আছে। সড়কের পাশে থাকায় ফুটপাতে চলাচলকৃত পথচারী ও ছোটখাট যানবাহন অসুবিধায় পড়ছে। এ বিষয়ে ঝিনাইদহ পৌরসভার সচিব মোঃ আজমল হোসেন জানান, তোরণগুলো বেশির ভাগ রাজনৈতিক। তারপরও আলাপ আলোচনা করে ব্যবস্থা নেওয়া হবে। সড়ক বিভাগের রাস্তা দখল করা নিয়ে ঝিনাইদহ সড়ক বিভাগের নির্বাহী প্রকৌশলী মো: সেলিম আজাদ খান জানান, আমি নতুন এসেছি। তোরণগুলোর বিষয়ে আমি সংশ্লিষ্টদের সাথে আলাপ করে ব্যবস্থা গ্রহন করবো।

দৈনিক সময়ের সমীকরণ সংবিধান, আইন ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো মন্তব্য না করার জন্য পাঠকদের বিশেষভাবে অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য অপসারণ করার ক্ষমতা রাখে।