চুয়াডাঙ্গা সোমবার , ১৬ জানুয়ারি ২০২৩
আজকের সর্বশেষ সবখবর

দেশে এখন ভোটার ১১ কোটি ৯০ লাখ

সমীকরণ প্রতিবেদনঃ
জানুয়ারি ১৬, ২০২৩ ১১:৫৪ পূর্বাহ্ণ
Link Copied!

Girl in a jacket

সমীকরণ প্রতিবেদন:
হালনাগাদে দেশে বর্তমানে নতুন করে ভোটার বেড়েছে ৭৯ লাখ ৮৩ হাজার ২৭৭ জন। এই বৃদ্ধির হার ৫ দশমিক ১০ শতাংশ। আগামী দ্বাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনে খসড়া ভোটার তালিকা অনুযায়ী, দেশে বর্তমানে মোট ভোটার ১১ কোটি ৯০ লাখ ৬১ হাজার ১৫৮ জন। গত ২০২২ সালে এই ভোটার ছিল ১১ কোটি ৩২ লাখ ৮৭ হাজার ১০ জন। আগামী ২ মার্চ চূড়ান্ত ভোটার তালিকা ঘোষণা করা হবে বলে জানিয়েছেন নির্বাচন কমিশন সচিব জাহাঙ্গীর আলম। আগারগাঁওয়ে নির্বাচন ভবনে তার দফতরে গতকাল খসড়া ভোটার তালিকা নিয়ে সাংবাদিকদের ব্রিফিংয়ের সময় এ তথ্য জানান তিনি। তিনি বলেন, চূড়ান্ত ভোটার তালিকায় যারা ভোটার, তারাই আগামী দ্বাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনে ভোট দিতে পারবেন। তবে এই তালিকায় বাদ বা কোনো সংশোধন থাকলে আগামী ৭ ফেব্রুয়ারির মধ্যে আপত্তি জানাতে হবে। ১৪ ফেব্রুয়ারি শুনানি হবে। দেশের সব উপজেলায় খসড়া তালিকা টানানো হবে। সচিব জাহাঙ্গীর আলম বলেন, হালনাগাদ মোট ভোটারের মধ্যে ছয় কোটি তিন লাখ ৮৩ হাজার ১১২ জন পুরুষ এবং পাঁচ কোটি ৮৬ লাখ ৭৭ হাজার ২০৯ জন মহিলা আর ৮৩৭ জন হিজড়া এই ভোটার তালিকায় রয়েছেন। গত ২০২২ সালে ভোটার ছিল মোট ১১ কোটি ৩২ লাখ ৮৭ হাজার ১০ জন। তিনি বলেন, বাতিল হয়েছেন ২২ লাখ ৯ হাজার ১২৯ জন। সব মিলিয়ে ভোটার বেড়েছে ৫৭ লাখ ৭৪ হাজার ১৪৮ জন। উল্লেখ্য, এবার গত জুন থেকে নভেম্বর পযন্ত ভোটার তালিকা হালনাগাদ কাযক্রম চলে। আর ২০১৬ ও ২০১৯ সাল থেকে তিন বছর পর পর (১৫-১৭ বছর বয়সী ও ভোটারযোগ্যদের) বাড়ি বাড়ি গিয়ে তথ্য সংগ্রহ চলে। হালনাগাদের তথ্য তুলে ধরে সচিব জাহাঙ্গীর আলম বলেন, ‘এ চূড়ান্ত ভোটার তালিকা দিয়ে দ্বাদশ সংসদ নির্বাচন অনুষ্ঠিত হবে। এবার ভোট দেয়ার যোগ্য হয়েছেন ৭৯ হাজার ৮৩ লাখ ২৭৭ জন। ২০২২ সালে ভোটার ছিল ১১ কোটি ৩২ লাখ ৮৭ হাজার ১০ জন।’ সচিব বলেন, ‘সব মিলিয়ে মৃতদের বাদ ও নতুনদের অন্তর্ভুক্ত করে এ বছরের খসড়া ভোটার তালিকা নতুন অন্তর্ভুক্তযোগ্য ভোটারের সংখ্যা ৫৭ লাখ ৭৪ হাজার ১৪৮ জন, যা ৫.১০%’। খসড়া তালিকা প্রকাশের পর নাম বা অন্য তথ্য সংশোধনের জন্য স্থানীয় কর্তৃপক্ষের কাছে আবেদন করতে পারবেন সংশ্লিষ্টরা। দাবি আপত্তি নিষ্পত্তি করে ২ মার্চ চূড়ান্ত ভোটার তালিকা প্রকাশ করা হবে। এখন দ্বাদশ সংসদ নির্বাচনে ভোট দিতে পারবেন এমন ভোটারের সংখ্যা দাঁড়াবে ১১ কোটি ৯০ লাখ ৬১ হাজার ১৫৮ জন। ২ মার্চ ২০২২ ভোটার ছিল ১১ কোটি ৩২ লাখ ৮৭ হাজার ১০ জন। এর মধ্যে পুরুষ পাঁচ কোটি ৭৬ লাখ ৮৯ হাজার ৫২৯ জন, নারী পাঁচ কোটি ৫৫ লাখ ৯৭ হাজার ২৭ জন এবং হিজড়া ৪৫৪ জন। হালনাগাদে যুক্ত ২০২২ সালে ৭৯ লাখ ৮৩ হাজার ২৭৭ জন। পুরুষ ৪০ লাখ ৭২ হাজার ৪৫৫ জন, নারী ৩৯ লাখ ১০ হাজার ৪৩৯ জন এবং হিজড়া ৩৮৩ জন। মৃত ভোটার তালিকা থেকে বাদ ২২ লাখ ৯ হাজার ১২৯ জন। খসড়া তালিকার ভোটারসহ মোট ভোটার এখন ১১ কোটি ৯০ লাখ ৬১ হাজার ১৫৮ জন। এর মধ্যে পুরুষ ছয় কোটি তিন লাখ ৮৩ হাজার ১১২ জন, নারী পাঁচ কোটি ৮৬ লাখ ৭৭ হাজার ২০৯ জন এবং হিজড়া ৮৩৭ জন। ২০২৩ সালের শেষে বা ২০২৪ সালের শুরুতে দ্বাদশ সংসদ নির্বাচন হবে, এসব ভোটার এ নির্বাচনে ভোট দিতে পারবেন। এ বছর ২০ মে থেকে ২০ নভেম্বর পর্যন্ত দেশজুড়ে চার ধাপে ভোটারযোগ্য ব্যক্তিদের তথ্য সংগ্রহ চলে। এ সময় বর্তমান ভোটার তালিকা থেকে বাদ দিতে মৃতদের তথ্য সংগ্রহও করা হয়েছে; এবার মৃত ভোটারের তথ্যও নেয়া হয়। ইসি কর্মকর্তারা জানান, এবার ভোটার তালিকা হালনাগাদে ১৫-১৭ বছর বয়সী এবং ভোটারযোগ্য বাদ পড়া নাগরিকের তথ্য সংগ্রহ করে নির্বাচন কমিশন। এর মধ্যে ২০২৩ সালে নতুন যারা ভোটার তালিকাভুক্ত হচ্ছেন, তারা দ্বাদশ সংসদ নির্বাচনে ভোট দিতে পারবেন। তারা জানান, বাকিরা ২০২৪ ও ২০২৫ সালে ১৮ বছর বা তার বেশি বয়সী হওয়ার পর স্বয়ংক্রিয়ভাবে ভোটার তালিকায় যুক্ত হবেন। ২০০৭-২০০৮ সালে ছবিযুক্ত ভোটার তালিকা প্রণয়নের পর এ পর্যন্ত ভোটার তালিকা হালানাগাদ কার্যক্রম সম্পন্ন হয়েছে পাঁচবার।

Girl in a jacket

দৈনিক সময়ের সমীকরণ সংবিধান, আইন ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো মন্তব্য না করার জন্য পাঠকদের বিশেষভাবে অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য অপসারণ করার ক্ষমতা রাখে।