দুবাই ভ্রমণে বিধিনিষেধ শিথিল

29

বিশ্ব প্রতিবেদন:
সংযুক্ত আরব আমিরাতের দুবাইতে প্রবেশের ক্ষেত্রে করোনাভাইরাস সংক্রান্ত বিধিনিষেধ শিথিল করা হয়েছে। রবিবার এক বিবৃতিতে এমনটি জানিয়েছে দুবাইয়ের দুর্যোগ ব্যবস্থাপনা কমিটি। সেখানে বলা হয়, শুধুমাত্র সংযুক্ত আরব আমিরাত অনুমোদিত করোনা টিকার দুটি ডোজ গ্রহণকারী দুবাইতে প্রবেশ করতে পারবে। এই সিদ্ধান্তের আওতাভুক্ত হবে দক্ষিণ আফ্রিকা, নাইজেরিয়া এবং ভারত। যা কার্যকর হবে আগামী ২৩ জুন থেকে। বিবৃতিতে ভারত থেকে আসতে চাওয়া যাত্রীদের ক্ষেত্রে বলা হয়েছে, যারা বৈধ রেসিডেন্ট ভিসাধারী শুধু তারাই দুবাই প্রবেশ করতে পারবেন। তবে তাদের নেওয়া থাকতে হবে করোনা টিকার দুটি ডোজই। গালফ নিউজের এক প্রতিবেদন জানায়, ভারতের যাত্রীদের দুবাই আসার আগেই নিজ দেশে কোভিড-১৯ টেস্ট করাতে হবে। যাদের নেগেটিভ আসবে তারাই শুধু প্রবেশ করতে পারবে। করোনা টেস্ট সার্টিফিকেটের মেয়াদ থাকতে হবে ৭২ ঘণ্টা। করোনার টিকাগ্রহণ ও পিসিআর টেস্টের শর্ত সাপেক্ষে দক্ষিণ আফ্রিকা এবং নাইজেরিয়ার ভ্রমণকারীদেরও প্রবেশ করতে দেয়া হবে দুবাইতে। এদেরও প্রয়োজন হবে কোভিড-১৯ নেগেটিভ সার্টিফিকেট। যার মেয়ার থাকতে হবে ৭২ ঘণ্টা। এসব দেশে ছাড়াও নিজ দেশের নাগিরকদের প্রবেশ করার সুযোগ দিচ্ছে দুবাই। এদের ক্ষেত্রেও শিথিল করা হয়েছে করোনা বিধিনিষেধ। সংযুক্ত আরব আমিরাত অনুমোদিত করোনা টিকাগুলো হলো চীনের সিনোফার্ম, ফাইজার-বায়োটেক, রাশিয়ার স্পুটনিক ও অক্সফোর্ড অ্যাস্ট্রাজেনেকা। চলতি বছরের এপ্রিলের শেষের দিকে ভারতসহ বেশকিছু দেশের নাগরিকদের জন্য সীমান্ত বন্ধ ঘোষণা করে দুবাই। করোনার দ্বিতীয় ঢেউয়ের প্রকোপ রোধে এমন সিদ্ধান্ত নিয়েছিল তারা। এছাড়া গত মাসে বাংলাদেশ, পাকিস্তান, নেপাল ও শ্রীলঙ্কার থেকে আসা যাত্রীদের ভ্রমণে নিষেধাজ্ঞা দিয়েছিল সংযুক্ত আরব আমিরাত। যা এখনও কার্যকর রয়েছে। এসব দেশের নাগরিকরা বাণিজ্যিক কোন ফ্লাইটে করে আমিরাতে ঢুকতে পারছেন না।