চুয়াডাঙ্গা মঙ্গলবার , ২৪ জানুয়ারি ২০২৩
আজকের সর্বশেষ সবখবর

দুটি ‘অখ্যাত’ পত্রিকায় সংবাদ প্রকাশ প্রসঙ্গে দিলীপ কুমার আগরওয়ালা বললেন

আমাকে হেয়প্রতিপন্ন করতেই উদ্দেশ্যপ্রণোদিত সংবাদ প্রকাশ
সমীকরণ প্রতিবেদনঃ
জানুয়ারি ২৪, ২০২৩ ৮:৩৬ পূর্বাহ্ণ
Link Copied!

Girl in a jacket

নিজস্ব প্রতিবেদক:
হঠাৎ চুয়াডাঙ্গা শহরের দোকানে দোকানে দুটি পত্রিকা বিনামূল্যে বিতরণ করা হয়েছে। ‘দৈনিক এই আমার দেশ ও গড়ব বাংলাদেশ’ নামে পত্রিকা দুটিতে ‘দিলীপ আগরওয়ালরা ফেঁর গ্যাঁড়াকলে’ প্রধান শিরোনামে একটি সংবাদ প্রকাশিত হয়েছে। সংবাদটি চুয়াডাঙ্গায় গতকাল সোমবার ছিল টক অব দ্যা টাউন। এরই প্রেক্ষিতে ডায়মন্ড ওয়ার্ল্ডের ব্যবস্থাপনা পরিচালক এবং তারাদেবী ফাউন্ডেশনের প্রতিষ্ঠাতা চেয়ারম্যান, বাংলাদেশ জুয়েলার্স অ্যাসোসিয়েশন (বাজুস)-এর সাধারণ সম্পাদক ও এফবিসিসিআই-এর পরিচালক বাবু দিলীপ কুমার আগরওয়ালার সাথে যোগাযোগ করে দৈনিক সময়ের সমীকরণ।

দিলীপ কুমার আগরওয়ালা সংবাদটিকে উদ্দেশ্য প্রণোদিত দাবি করেছেন। তিনি দৈনিক সময়ের সমীকরণকে বলেন, ‘২০১৭ সালে আমিসহ বেশকিছু ব্যক্তি ও প্রতিষ্ঠানের বিরুদ্ধে বেনামে দুদকে অভিযোগ দেয় কেউ বা কারা। অভিযোগটি দুদক আমলে নিয়ে তদন্তে নামে। দীর্ঘদিন তদন্তে আমাদের বিরুদ্ধে কোনো অভিযোগের সত্যতা না পেলে দুদক অভিযোগটি খারিজ করে দেয়। হঠাৎ করে এটি নিয়ে এফবিসিসিআই-এর একজন পরিচালক রাজ্জাক খান রাজ নিজের একটি অনলাইন পত্রিকায় উদ্দেশ্য প্রণোদিতভাবে আমার সামাজিক কাজে ঈর্ষান্বিত হয়ে ভিত্তিহীন সংবাদ প্রকাশ করেছেন। পত্রিকাটির প্রিন্ট ভার্সন বাজারে নিয়মিত না বের হলেও প্রকাশিত সংবাদের কপি বিনামূল্যে বিতরণ করা হয়েছে। উদ্দেশ্যপ্রণোদিতভাবে আমাকে হেয়প্রতিপন্ন করার চেষ্টা করা হচ্ছে।’

তিনি আরও বলেন, ‘আমি চুয়াডাঙ্গার একটি সম্ভ্রান্ত পরিবারে জন্মেছি। আমার পিতামহ, পিতা এবং আমি এখানে জন্মে এখানেই বেড়ে উঠেছি। আমার বাবা অমিয় আগরওয়ালা জার্মান থেকে ডিগ্রি নিয়েছেন। তিনি বাংলাদেশ আওয়ামী লীগের একজন উল্লেখযোগ্য আর্থিক সহায়তাকারী (ডোনার)। আমি কোনো সেটেলার নয়, আমি চুয়াডাঙ্গারই সন্তান। আমার বিরুদ্ধে যিনি অপপ্রচারে নেমেছেন, তিনি শুধু চুয়াডাঙ্গা জেলারই নন, এই বিভাগেরও বহিরাগত। তিনি আওয়ামী লীগের মনোনয়নের স্বপ্ন দেখছেন। আমাকে ছায়া প্রতিদ্বন্দ্বী ভেবে মিথ্যা প্রচার করতে উঠেপড়ে লেগেছেন। যা সম্পূর্ণভাবে উদ্দেশ্যপ্রণোদিত।’

দিলীপ কুমার আগরওয়ালা আরও বলেন, ‘যেই অখ্যাত পত্রিকায় ভিত্তিহীন উদ্দেশ্যপ্রণোদিত সংবাদটি ছাপা হয়েছে, তা বাজারেই কখনো চোখে পড়েনি। অথচ সোমবার আমার প্রতিষ্ঠান ডায়মন্ড ওয়ার্ল্ডেও পাঁচ কপি করে বিনামূল্যে দিয়ে এসেছে। সংবাদটিতে গ্যাড়াকলে শব্দ ব্যবহার করা হয়েছে। এটা কোন ধরনের শব্দ, ভাবতে অবাক লাগে। আমি মনে করি, অপ্রচারিত পত্রিকা আর উদ্দেশ্যপ্রণোদিত সংবাদকে চুয়াডাঙ্গার মানুষ গুরুত্বহীনভাবেই দেখবে। আমি জন্মের পর থেকেই আপনাদের সাথে আছি। আমার শেষকৃত্যও যেন চুয়াডাঙ্গাতেই হয়। মায়ের মৃত্যুর পর মায়ের নামে প্রতিষ্ঠা করেছি তারাদেবী ফাউন্ডেশন। চুয়াডাঙ্গা তথা এই অঞ্চলের মানুষের সুখে-দুঃখে পাশে আছি। হুইল চেয়ার, শিক্ষাবৃত্তি, ঈদ উপহার, শীতবস্ত্র বিতরণসহ বিভিন্ন সামাজিক কাজের মাধ্যমে আপনাদের পাশে আছি। আপনাদের পাশে থাকব।’

Girl in a jacket

দৈনিক সময়ের সমীকরণ সংবিধান, আইন ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো মন্তব্য না করার জন্য পাঠকদের বিশেষভাবে অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য অপসারণ করার ক্ষমতা রাখে।