চুয়াডাঙ্গা সোমবার , ১৭ অক্টোবর ২০১৬
আজকের সর্বশেষ সবখবর

দামুড়হুদায় বহিস্কৃত কাজী মোখলেছের বিরুদ্ধে অভিযোগ অনুমতি ছাড়াই অনৈতীকভাবে পড়ানো হচ্ছে বিয়ে!

সমীকরণ প্রতিবেদন
অক্টোবর ১৭, ২০১৬ ১১:১৯ পূর্বাহ্ণ
Link Copied!

sdrteদামুড়হুদা প্রতিনিধি: দামুড়হুদায় বাল্য বিয়ে পড়ানোর অভিযোগে বহিস্কৃত কাজী  মোখলেছুর রহমান প্রশাসনের অনুমতি ছাড়াই আবারও বিয়ে পড়াচ্ছেন বলে অভিযোগ উঠেছে। বহিস্কৃত কাজী মোখলেছুর এলাকায় গোপনে বিয়ে পড়ালেও কাবিন দিতে না পারায় চরম ভোগান্তির মধ্যে পড়েছে কনের পরিবারের লোকজন। জানা গেছে, দামুড়হুদা উপজেলার জুড়ানপুর ইউনিয়নের কাজী মোখলেছুর রহমান বাল্য বিয়ে পড়ানোর অভিযোগে প্রায় মাস ছয়েক আগে দামুড়হুদা উপজেলা নির্বাহী অফিসার তার বিরুদ্ধে ভ্রাম্যমান আদালত বসিয়ে ১ মাসের কারাদন্ড প্রদান করেন। সেই সাথে তার দায়িত্ব থেকেও সাময়িক অব্যহতি দেয়া হয় এবং নতিপোতা ইউনিয়নের কাজী রবিউল ইসলামকে ওই ইউনিয়নের দায়িত্ব দেয়া হয়। বহিস্কৃত কাজী মোখলেছ কারাভোগ শেষে এলাকায় ফিরে প্রশাসনের অনুমতি ছাড়াই আবারও শুরু করে বিয়ে পড়ানোর কাজ। তিনি গত ১২ অক্টোবর বিষ্ণুপুর দক্ষিনপাড়ার ঠান্ডুর মেয়ে লিমা খাতুনের বিয়ে পড়ান এবং ফিস বাবদ এক হাজার দুইশ টাকা দিতে বলেন। এ সময় মেয়ের পিতা স্লিপ চাইলেও অদ্যবধি তিনি ওই স্লিপ দেননি। একইভাবে এলাকায় বিভিন্ন গ্রামে বিয়ে পড়াচ্ছেন। কিন্তু  কোন কাবিন দিচ্ছেনা বলে অভিযোগ উঠেছে। এ নিয়ে মেয়ের পিতা পড়েছেন মহা দুঃচিন্তায়। এ বিষয়ে দায়িত্বপ্রাপ্ত কাজী রবিউল ইসলাম বলেন, কাজী মোখলেছ পুনরায় দায়িত্ব পেয়েছে কী না আমার জানা নেই। বিষয়টি খতিয়ে দেখে সংশ্লিষ্ট কাজীর বিরুদ্ধে ব্যবস্থা গ্রহনের জন্য দামুড়হুদা উপজেলা নির্বাহী অফিসারের সুদৃষ্টি কামনা করেছেন ভূক্তভোগি পিতা ঠান্ডু মিয়া।

দৈনিক সময়ের সমীকরণ সংবিধান, আইন ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো মন্তব্য না করার জন্য পাঠকদের বিশেষভাবে অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য অপসারণ করার ক্ষমতা রাখে।