দামুড়হুদায় আলমসাধু উল্টে দুজন জখম

21

নিজস্ব প্রতিবেদক:
চুয়াডাঙ্গার দামুড়হুদায় আলমসাধু উল্টে চালকসহ দুজন গুরুতর জখম হয়েছে। গতকাল সোমবার বিকেল চারটার দিকে দামুড়হুদা উপজেলার চিৎলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের সামনে এ দুর্ঘটনা ঘটে। পরে স্থানীয় ব্যক্তিরা গুরুতর জখম অবস্থায় আহত দুজনকে চিৎলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নেয়। দুজনের জখম গুরুতর হওয়ায় স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে থেকে তাঁমদেরকে প্রাথমিক চিকিৎসা দিয়ে চুয়াডাঙ্গা সদর হাসপাতালে রেফার্ড করে। আহতরা হলেন, চুয়াডাঙ্গা পৌর এলাকার সি অ্যান্ড বি-পাড়ার খোকন হোসেনের ছেলে রাশেদ হোসেন (২৮) ও ডিগ্রি ঢাকা পাড়ার জাকির হোসেনের ছেলে হাফিজুর রহমান (৩০)। আহত দুজনেই চুয়াডাঙ্গা প্রতিভাস প্রডাক্টস-এর চাকরি করে।
জানা যায়, গতকাল সোমবার দুপুরে আলমসাধুযোগে খাতা-পত্র নিয়ে ডেলিভারির জন্য কার্পাশডাঙ্গায় যাচ্ছিল রাশেদ হোসেন ও হাফিজুর রহমান। পথের মধ্যে দামুড়হুদা উপজেলার চিৎলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের সামনে পৌঁছালে গোতিরোধকে দেঁেধ আলমসাধুটি উল্টে যায়। এসময় রশেদ হোসেনন ও আলমসাধুর চালক হাফিজুর রহমান গুরুতর জখম হয়। স্থানীয় ব্যক্তিরা দ্রুত দুজনকে উদ্ধার করে স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নেয়। সেখান থেকে প্রাথমিক চিকিৎসা শেষে দুজনকেই সদর হাসপাতালে রেফার্ড করে। পরে পরিবারের সদস্যরা দুজনকে সদর হাসপাতালের জরুরি বিভাগে নেয়। জরুরি বিভাগের কর্তব্যরত চিকিৎসক ডা. ওয়াহেদ মাহমুদ রবিন দুজনকেই তাৎক্ষণিক চিকিৎসা দিয়ে হাপসাতালের সার্জারি ওয়ার্ডে ভর্তি করেন। শেষ খবর পাওয়া পর্যন্ত দুজনেই সদর হাসপাতালের সার্জারি ওয়ার্ডে চিকিৎসাধীন অবস্থায় ছিলো।