চুয়াডাঙ্গা রবিবার , ৭ জানুয়ারি ২০১৮
আজকের সর্বশেষ সবখবর

দলে থাকবেন না তাসকিন-সৌম্য?

সমীকরণ প্রতিবেদন
জানুয়ারি ৭, ২০১৮ ১০:১১ পূর্বাহ্ণ
Link Copied!

খেলাধুলা ডেস্ক: প্রস্তুতি ম্যাচ শেষে দুজনই শেরেবাংলা স্টেডিয়াম থেকে বের হলেন বিষন্ন মনে। গুঞ্জন মানলে, তাসকিন আহমেদ ও সৌম্য সরকার থাকবেন না ত্রিদেশীয় সিরিজ স্কোয়াডে! বিসিবি যদিও এখনো আনুষ্ঠানিকভাবে দল ঘোষণা করেনি। নির্বাচকেরা জানান, দল ঘোষণা হতে পারে কাল। সূত্র জানাচ্ছে, সেই দলে এ দুজনের না থাকার সম্ভাবনাই বেশি। সৌম্য-তাসকিন দুজনকেই বলে দেওয়া হয়েছে ৯ জানুয়ারি থেকে শুরু বাংলাদেশ ক্রিকেট লিগের (বিসিএল) ম্যাচ খেলতে। ওয়ালটন মধ্যাঞ্চলের হয়ে বিসিএলের প্রথম রাউন্ড খেলতে কালই সিলেটে চলে যাচ্ছেন তাসকিন। সৌম্যও কাল বিকেএসপিতে যোগ দিচ্ছেন প্রাইম ব্যাংক দক্ষিণাঞ্চলের অনুশীলনে। দুজনের সঙ্গে আজ আলাদা কথা বলেছেন ওয়ানডে অধিনায়ক মাশরাফি বিন মুর্তজা। তাঁদের বুঝিয়েছেন, এ বাদ পড়া মানেই জাতীয় দলের দরজাটা বন্ধ হয়ে যাওয়া নয়। দুজনকে ফিরে আসার চ্যালেঞ্জটা নিতে বলেছেন মাশরাফি।
যদি ত্রিদেশীয় সিরিজে বাংলাদেশ দলে না থাকেন সৌম্য-তাসকিন, নতুন এক অভিজ্ঞতা হবে ৩২টি করে ওয়ানডে খেলা এ দুই তারকা ক্রিকেটারের। ২০১৪ সালের ১ ডিসেম্বর মিরপুর শেরেবাংলা স্টেডিয়ামে জিম্বাবুয়ের বিপক্ষে ওয়ানডে দিয়ে আন্তর্জাতিক অভিষেক হওয়া সৌম্যকে কখনো পারফরম্যান্সের কারণে ওয়ানডে স্কোয়াডের বাইরে থাকতে হয়নি। ২০১৫ সালের নভেম্বরে জিম্বাবুয়ে সিরিজটা খেলতে পারেননি চোটের কারণে। ২০১৬ সালের অক্টোবরে ইংল্যান্ডের বিপক্ষে তিন ম্যাচ সিরিজে একটি ওয়ানডে না খেলা হলেও ড্রেসিংরুমে অন্তত ছিলেন। এবারই প্রথম সৌম্য বাদ পড়তে যাচ্ছেন পারফরম্যান্সের কারণে।
২০১৪ সালের জুনে মিরপুরে ভারতের বিপক্ষে উজ্জ্বল অভিষেকের পর শুধু চোটের কারণে তাসকিনের হাতছাড়া হয়েছে তিনটি ওয়ানডে সিরিজ। পারফরম্যান্সের কারণে এবারই প্রথম স্কোয়াডের বাইরে থাকছেন ২২ বছর বয়সী পেসার। তবে ১৫ জানুয়ারি থেকে শুরু ত্রিদেশীয় সিরিজে বাংলাদেশ দলে চমকে দেওয়ার মতো নাম থাকার সম্ভাবনা সীমিত। এই সিরিজে কোনো পরীক্ষা-নিরীক্ষায় যেতে চাইছে না টিম ম্যানেজমেন্ট। অনেক দিন পর স্কোয়াডে জায়গা পেতে পারেন ওপেনার এনামুল হক।

দৈনিক সময়ের সমীকরণ সংবিধান, আইন ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো মন্তব্য না করার জন্য পাঠকদের বিশেষভাবে অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য অপসারণ করার ক্ষমতা রাখে।