চুয়াডাঙ্গা সোমবার , ২৭ জুন ২০২২
আজকের সর্বশেষ সবখবর

ডিভিএম ডিগ্রির দাবিতে ঝিনাইদহ ভেটেরিনারি কলেজের শিক্ষার্থীদের মহাসড়ক অবরোধ

সমীকরণ প্রতিবেদনঃ
জুন ২৭, ২০২২ ২:৪৪ পূর্বাহ্ণ
Link Copied!

আসিফ কাজল:
ডক্টর অব ভেটেরিনারি মেডিসিন (ডিভিএম) ডিগ্রি প্রদানের দাবিতে সড়ক অবরোধ করে বিক্ষোভ করেছে সরকারি ভেটেরিনারি কলেজ শিক্ষার্থীরা। গতকাল রোববার সকাল ৮টা থেকে কলেজের প্রধান ফটকের সামনে ঝিনাইদহ-চুয়াডাঙ্গা মহাসড়ক অবরোধ করে বিক্ষোভ করেছে শিক্ষার্থীরা। এই অবস্থায় পায়ে হেটে যাত্রীদের যাতায়াত করতে বাধ্য হচ্ছে।

শিক্ষার্থীদের দাবী আদায় সংগ্রাম পরিষদের সাধারণ সম্পাদক মো. সজিবুল হাসান জানান ,ভর্তি বিজ্ঞপ্তিতে ডিভিএম ডিগ্রী দেওয়ার কথা থাকলেও কলেজ কর্তৃপক্ষ বিএসসি ভেট সাইন্স এন্ড এএইচএস ডিগ্রী প্রদান করার চেষ্টা করছে। তাতে শিক্ষার্থীদের আগামীতে চাকরির ক্ষেত্রে নানা সমস্যার সম্মুখীন হতে হবে। তাই তারা ডিভিএম ডিগ্রীর দাবি জানিয়েছেন। এর আগে মানববন্ধন, সড়ক অবরোধ, খুলনা প্রাণী সম্পদের বিভাগের কর্মকর্তাকে অবরুদ্ধ করার পরও তাদের এই দাবি মানা হয়নি। যে কারণে আবারো তারা নতুন করে সড়ক অবরোধ করতে বাধ্য হয়েছে।

ঝিনাইদহ সদর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা শেখ মোহম্মদ সোহেল রানা জানান, সকাল থেকে রাস্তা অবরোধ থাকায় তিনি সদর উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা এস এম শাহীন এর সাথে ঘটনাস্থলে যান। সেখানে শিক্ষার্থীরা দাবী করেন জেলা প্রশাসক ঘটনাস্থলে এসে তাদের দাবি আদায়ে কার্যকর আশ্বাস না দেয়া পর্যন্ত তারা সড়ক অবরোধ চালিয়ে যাবে। এই অবস্থায় তারা শিক্ষার্থীদের অবরোধ থেকে নিবৃত করাতে পারেননি।

এবিষয়ে ঝিনাইদহ ভেটেরিনারি কলেজের অধ্যক্ষ ড. আতাউর রহমান ভুইয়া জানান এই কলেজটি প্রথমে চট্রগ্রাম ভেটেরিনারি এন্ড এ্যনিম্যাল সাইন্স বিশ্ব বিদ্যালয়ের আওতাভুক্ত ছিল পরে এটি যশোর প্রযুক্তি বিশ্ব বিদ্যালয় এবং বর্তমানে শেরেবাংলা কৃষি বিশ্ববিদ্যালয়ের আওতায় রয়েছে। তিনি আরো বলেন কলেজের শিক্ষা কার্যক্রম পরিচালনা করে বিশ্ব বিদ্যালয়। অন্যদিকে এর বাজেট, অধ্যক্ষ, শিক্ষকগণ রয়েছেন প্রাণী সম্পদ মন্ত্রানালয়ের আওতায়। ফলে দুই মন্ত্রণালয়ের সমন্বয়হীনতার কারনে শিক্ষার্থীদের দাবী বাস্তবায়ন হচ্ছেনা।

জেলা প্রশাসক মনিরা বেগম জানান, বিষয়টি জেলা প্রশাসনের আওতাভুক্ত নয়। সে কারনে তিনি শিক্ষার্থীদের কোন আশ্বাস দিতে অপারগ বিধায় তিনি বিষয়টি প্রাণী সম্পদ মন্ত্রণালয়ে মৌখিক ভাবে অবহিত করেছেন।

দৈনিক সময়ের সমীকরণ সংবিধান, আইন ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো মন্তব্য না করার জন্য পাঠকদের বিশেষভাবে অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য অপসারণ করার ক্ষমতা রাখে।