জীবননগরে অপহরণ চক্রের সদস্য ভেবে ভ্যান চালককে পিটিয়ে জখম

299

jibonnagar news pic 12-6-17

জীবননগর অফিস: জীবননগর উপজেলার মনোহারপুর ইউনিয়নের কালা গ্রামে অপহরণ চক্রের সদস্য ভেবে গ্রামবাসী এক ভ্যান চালককে পিটিয়ে জখম করেছে। স্থানীয় এলাকাবাসী সুত্রে জানা গেছে, গতকাল সোমবার সকাল সাড়ে ৭টার সময় জীবননগর উপজেলার মনোহারপুর ইউনিয়নের কালা গ্রামের ঈদগা পাড়ার মিনাজুল ইসলামের মেয়ে দশম শ্রেনীর ছাত্রী মারুফা খাতুন (১৬) প্রাইভেট পড়ার উদ্দ্যেশে জীবননগর বাজারে রওনা হওয়ার সময় বাড়ির সামনে থেকে তুলে নিয়ে যাওয়ার অভিযোগ তুলে সন্দেহমূলকভাবে জীবননগর পৌরসভার লক্ষীপুর গ্রামের শাজাহানের ছেলে ভ্যান চালক লিটুকে (৩২) জনতা আটক করে পিটিয়ে রক্তাক্ত জখম করে। এদিকে অপরহণ চক্রের সদস্য আটকের ঘটনা শুনে উৎসুক জনতা ভীড় জমাতে থাকে। প্রায় এক ঘন্টা যাবৎ কালা গ্রামে জনতার ভীড়ে রাস্তা চলাচল বন্ধ থাকে। একপর্যায় ঘটনাস্থলে পুলিশ ছুটে এসে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রনে আনে এবং লিটুকে উদ্ধার করে চিকিৎসার জন্য জীবননগর হাসপাতালে ভর্তি করেন। এব্যাপারে স্কুল ছাত্রী মারুফার কাছে ঘটনাটি জানতে চাইলে তিনি জানান, প্রতিদিনের মত সকালে প্রাইভেট পড়ার জন্য বাড়ির সামনে ভ্যানের জন্য দাড়ালে ভ্যান চালক তাকে হাত চেপে ধরে, তখন সে চিৎকার করলে স্থানীয় জনগন ভ্যান চালককে সন্দেহমূলকভাবে অপহরণ চক্রের সদস্য ভেবে আটক করে মারধর করতে থাকে। এব্যাপারে অভিযুক্ত ভ্যান চালক লিটুর কাছে বিষয়টি জানতে চাইলে তিনি বলেন, আমি সকালে কালা গ্রামে ভাড়া নিয়ে যায়, আসার পথে মেয়েটি রাস্তার পাশে দেখতে পেয়ে বাজারে যাবেন কি না জানতে চাই এমন সময় রাস্তার পাশ দিয়ে একটি গাড়ি যাওয়ায় মেয়েটির হাত ধরে আমি রাস্তার পাশে সরিয়ে দিই। তখন কয়েকজন ব্যাক্তি অপহরণ করছে বলে চিৎকার করে এবং আমার কিছু বলার আগেই তারা আমার ভ্যান থামিয়ে মারধর করতে থাকে।