চুয়াডাঙ্গা শহরে বৈদ্যুতিক সর্ট সার্কিটে রাইচ কুকার বিস্ফোরণ লক্ষাধিক টাকার মালামালসহ এক লক্ষ টাকা পুড়ে ছাঁই

DSC08837

আফজালুল হক: চুয়াডাঙ্গা শহরে হকপাড়ায় বৈদ্যুতির সর্ট সার্কিট থেকে আগুন লেগে পুরো বাড়ি পুড়ে ছাঁই হওয়ার ঘটনা ঘটেছে। গতকাল বুধবার বিকাল ৫টার দিকে শহরের হক পাড়ায় জিল্লুর রহমান জিলুর বাড়িতে  এ ঘটনা ঘটে। জানা গেছে, জিলুর স্ত্রী ও ছেলে কয়েকদিন আগে শ্বশুড় বাড়িতে বেড়াতে গেলে বাড়িতে কেউ না থাকায় জিলু রাইস কুকারে ভাত দিয়ে বাইরে যান। কিছুক্ষণ পরে ফিরে এসে দেখেন রাইস কুকার বিস্ফোরিত হয়ে সারা ঘরে আগুন জ্বলছে দাউ দাউ করে। পরে স্থানীয়দের খবর দিলে ঘন্টা ব্যাপি  পরিশ্রমে আগুন নিয়ন্ত্রনে আনে। ততক্ষনে বাড়িঘরের সব জিনিসপত্রসহ নগদ ১ লক্ষ টাকা পুড়ে কয়লা ও ছাঁইয়ে পরিনত হয়েছে। বিছানা থেকে শুরু করে টিভি, ফ্রিজ, আসবাবপত্র ও ড্রয়ারে রাখা নগদ ১লক্ষ টাকা কোন কিছুই আর অবশিষ্ট নেই। এদিকে সব কিছু হারিয়ে সর্বহারা জিলুর পরিবার। যদিও বাড়িটি শহরের  রেল স্টেশনের অদূরেই। ফায়ার সার্ভিসকে আসতে হবে মাত্র ১ কিলোমিটার দূর থেকে সেটাও সম্ভব হয়নি। DSC08845কারণ ওই মহল্লায় ফায়ার সার্ভিসের গাড়ি ঢোকার মত রাস্তা নেই। বাড়িতে শুধুই আহাজারি, টিনশেডের ঘরগুলো পুড়ে কোন রকমে দাড়িয়ে আছে শুধু অবকাঠামো। বলা চলে একেবারে সর্বশান্ত অবস্থা। যে তার এই অবস্থার পর এলাকার সকল শ্রেণীর মানুষ যে যেমন পারছে সাধ্যমত সাহায্যর হাত বাড়িয়ে দিচ্ছে এবং সার্বিক সহযোগিতার জন্য চুয়াডাঙ্গা পৌর মেয়রসহ দানশীল ব্যক্তিদের দৃষ্টি আকর্ষন করেছেন। জিল্লুর রহমান জিলু চুয়াডাঙ্গা হকপাড়ার মৃত কিসমত আলীর ছেলে।