চুয়াডাঙ্গায় নতুন একজন করোনায় আক্রান্ত

53

গত ২৪ ঘণ্টায় দেশে আরও ৮ জনের মৃত্যু, শনাক্ত ৬৫৬
সমীকরণ প্রতিবেদন:
গত ২৪ ঘণ্টায় করোনাভাইরাসে সংক্রমিত হয়ে দেশে আরও ৮ জনের মৃত্যু হয়েছে। একই সময় নতুন সংক্রমিত হয়েছে ৬৫৬ জন। গতকাল বুধবার স্বাস্থ্য অধিদপ্তরের নিয়মিত সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে এ কথা জানানো হয়েছে। আগের দিনের (গত মঙ্গলবার) তুলনায় গত ২৪ ঘণ্টায় দেশে করোনায় শনাক্ত ও মৃত্যু কমেছে। আগের দিন শনাক্ত হন ৭০২ জন এবং মারা যান ২০ জন। বিজ্ঞপ্তিতে বলা হয়, ২৪ ঘণ্টায় করোনাভাইরাসে সংক্রমিত হয়ে সুস্থ হয়েছেন ৬১৭ জন। গত ২৪ ঘণ্টায় ১৫ হাজার ৪১০টি নমুনা পরীক্ষা করা হয়েছে। নমুনা পরীক্ষা বিবেচনায় শনাক্তের হার ৪ দশমিক ২৬ শতাংশ। আগের দিন এটি ছিল ৪ দশমিক ৬৫ শতাংশ। গতকাল বুুধবার পর্যন্ত করোনাভাইরাস সংক্রমিত হয়ে বাংলাদেশে মোট মৃত্যু হয়েছে ৭ হাজার ৯৫০ জন। দেশে করোনাভাইরাসে মোট সংক্রমিত হয়েছে ৫ লাখ ২৯ হাজার ৬৮৭ জন। করোনায় সংক্রমিতের মধ্যে এ পর্যন্ত সুস্থ হয়েছেন ৪ লাখ ৭৪ হাজার ৪৭২ জন। বাংলাদেশে গত বছরের ৮ মার্চ প্রথম করোনা রোগী শনাক্ত হয়। এরপর ১৮ মার্চ করোনায় আক্রান্ত হয়ে প্রথম মৃত্যুর ঘটনা ঘটে। গত বছরের ডিসেম্বরে চীনের উহানে প্রথম করোনাভাইরাসের সংক্রমণ ধরা পড়ে। ক্রমেই মহামারি আকারে সংক্রমণ বিশ্বের প্রায় সব দেশে ছড়িয়ে পড়ে। শুরুর দিকে রোগী শনাক্তের হার কম ছিল। গত বছরের মে মাসের মাঝামাঝি থেকে সংক্রমণ বাড়তে শুরু করে। ওই মাসের শেষের দিক থেকে রোগী শনাক্তের হার ২০ শতাংশের ওপরে চলে যায়, যা আগস্টের তৃতীয় সপ্তাহ পর্যন্ত বজায় ছিল। এরপর থেকে নতুন রোগীর পাশাপাশি শনাক্তের হারও কমতে শুরু করেছিল।
চুয়াডাঙ্গা:
চুয়াডাঙ্গায় নতুন আরও একজন করোনা শনাক্ত হয়েছে। এ নিয়ে জেলায় মোট করোনা শনাক্তের সংখ্যা দাঁড়িয়েছে ১ হাজার ৬৫৮ জনে। গতকাল বুধবার রাত আটটায় জেলা সিভিল সার্জন অফিস এ তথ্য নিশ্চিত করে। গতকাল জেলায় নতুন তিনজন সুস্থ হয়েছে। এ নিয়ে জেলায় মোট সুস্থ হয়েছেন ১ হাজার ৫৪৯ জন।
গত মঙ্গলবার জেলা স্বাস্থ্য বিভাগ করোনা পরীক্ষার জন্য ১৯টি নমুনা সংগ্রহ করে পরীক্ষার জন্য প্রেরণ করে। গতকাল উক্ত ১৮টি নমুনার ফলাফল নেগিটিভ ও একটি নমুনার ফলাফল পজিটিভ আসে। গতকাল জেলা স্বাস্থ্য বিভাগ করোনা পরীক্ষার জন্য সদর উপজেলা থেকে ১৪টি নমুনা সংগ্রহ করে কুষ্টিয়া পিসিআর ল্যাবে প্রেরণ করেছে।
চুয়াডাঙ্গা সিভিল সার্জন অফিসের সর্বশেষ তথ্যানুযায়ী জেলা থেকে এ পর্যন্ত মোট নমুনা সংগ্রহ ৭ হাজার ৬৭৮টি, প্রাপ্ত ফলাফল ৭ হাজার ৪৬৩টি, পজিটিভ ১ হাজার ৬৫৮টি, নেগেটিভ ৫ হাজার ৮০৫টি। শেষ খবর পাওয়া পর্যন্ত জেলায় হোম আইসোলেশনে ছিলেন ৬ জন ও প্রাতিষ্ঠানিক আইসোলেশনে ছিলেন ১ জন।