চুয়াডাঙ্গা বৃহস্পতিবার , ১১ আগস্ট ২০১৬
আজকের সর্বশেষ সবখবর

চুয়াডাঙ্গায় দুর্ভোগ আর জটিলতায় চলেছে চিকিৎসা সেবা

সমীকরণ প্রতিবেদন
আগস্ট ১১, ২০১৬ ৯:০৮ অপরাহ্ণ
Link Copied!

নিজস্ব প্রতিবেদক: চিকিৎসাসেবা একটি জনগুরুত্বপূর্ণ ও স্পর্শকাতর ইস্যু হওয়া সত্ত্বেও এ নিয়ে নৈরাজ্য, হয়রানি, দুর্ভোগ আর জটিলতার যেন শেষ নেই। যতই দিন যাচ্ছে এর মাত্রা চুয়াডাঙ্গা জেলাতে অধিকহারে বৃদ্ধি পাচ্ছে। সার্বিক পরিস্থিতি দেখে মনে হয় দেশের স্বাস্থ্য খাত ভুয়া প্রতারক মাস্তান আর দুর্বৃত্তের খপ্পরে পড়েছে। এর থেকে নিড়াসের যেন কোনো পথ খোলা নেই। আমাদের চারদিকে ভুয়া চিকিৎসক, ডিবি পুলিশ, সাংবাদিক এবং ভেজাল ও বিষাক্ত খাবারের ছড়াছড়ি। এমনকি ভুয়া মুক্তিযোদ্ধা আবিষ্কৃত হয়েছে প্রশাসনের উচ্চপর্যায়ে। আমরা কেবল ভেজালে, ভুয়ায়, অসততায়, দুর্নীতিতে আক্রান্ত নই, উচ্চমূল্যেও আক্রান্ত। এর অবসান কিভাবে হবে তা কেই জানে না। কেবল তাই নয় এসবের পাশাপাশি চিকিৎসাসেবায় অতিরিক্ত খরচ বেড়ে গেছে। বিশেষ করে চুয়াডঙ্গার বেসরকারি হাসপাতালের চিকিৎসাসেবা এখন গরিব মানুষের নাগালের বাইরে। বেসরকারি হাসপাতালের কর্তৃপক্ষ থেকে শুরুকরে ডাক্তার, নার্স সবার মধ্যেই অতি বাণিজ্যিক মানসিকতা কাজ করে। ফলে চিকিৎসা যে একটা সেবা এই কথার তাৎপর্য ও উপযোগিতা আস্তে আস্তে হারিয়ে যাচ্ছে। দেশের চিকিৎসাসেবার খরচ ভয়ানকভাবে বেড়েছে। সংক্রামক ও অসংক্রামক জটিল রোগ বাড়ার সঙ্গে সঙ্গে পাল্টা দিয়ে বাড়ছে এসব রোগের পরীক্ষা-নিরীক্ষা, চিকিৎসা ফি, ওষুধ পথ্যের দাম। এছাড়া বেড়েছে অস্ত্রোপচার, হাসপাতালের বেডের ভাড়া ও অন্যান্য খরচ। রোগী ও তাদের পরিবার চিকিৎসা খরচ মেটাতে গিয়ে সর্বস্ব হারিয়ে সহায়-সম্বলহীন হয়ে পড়ছে। নিম্নবিত্ত ও মধ্যবিত্তের জীবনে নাভিশ্বাস উঠছে। বেসরকারি খাতের ওপর সরকারের নির্ভরতা বাড়তে থাকায় চুয়াডাঙ্গার অনেক হাসপাতালের মালিকই সেবার বদলে বাণিজ্যিক কেন্দ্রীক মানসিকতা গড়ে উঠেছে। ফলে বিনামূল্যে চিকিৎসার কথা ধীরে ধীরে ভুলে যাচ্ছে রোগী। এমন পরিস্থিতি কোনোভাবেই মেনে নেয়া যায় না। যতই দিন যাচ্ছে কেবল চিকিৎসা ব্যয়ই বাড়ছে না, ভুয়া চিকিৎসকের সংখ্যা অধিকহারে বৃদ্ধি পাচ্ছে। ফলে একদিকে যেমন ডাক্তারদের প্রতি মানুষ আস্থা এবং শ্রদ্ধা কোনোটাই আর অটুট রাখতে পারছে না অন্যদিকে রোগীরাও আতঙ্কিত হয়ে পড়ছে। ডাক্তারদের সেবাবিমুখ বাণিজ্যিক মানসিকতা ও প্রবণতা দিন দিন বেড়েই চলেছে। দেশের বেসরকারি হাসপাতাল কর্তৃর্পক্ষ ও ডাক্তারদের টাকা রোজগারের মোহ এতটাই পেয়ে বসেছে, তারা আজকাল মানুষকে আর মানুষ মনে করছেন না। সেবাপরায়ণ মনোভাব তাদের ভেতর থেকে আস্তে আস্তে তিরোহিত হয়ে গেছে। তার পরিবর্তে সেখানে বাসা বেঁধেছে কসাইসুলভ মনোভাবের। অথচ একসময় ডাক্তারি মহান পেশা হিসেবে বিবেচিত হতো। ডাক্তারদের প্রতি মানুষের অগাধ শ্রদ্ধা ছিল, ছিল নিঃস্বার্থ ভালোবাসা। অথচ ইদানীং সে ভালোবাসা ক্রমে ক্রমে উধাও হয়ে রূপ নিয়েছে ক্রোধে। যার কারণে দেশের মানুষ ডাক্তারদের এখন কেবল হেঁয়ালির চোখেই দেখে না, তাদের কসাই অভিধায় অভিহিত করতেও কোনোরকম কার্পণ্য করে না

দৈনিক সময়ের সমীকরণ সংবিধান, আইন ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো মন্তব্য না করার জন্য পাঠকদের বিশেষভাবে অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য অপসারণ করার ক্ষমতা রাখে।