চুয়াডাঙ্গায় করোনায় আরও দুজন আক্রান্ত

40

সমীকরণ প্রতিবেদক :চুয়াডাঙ্গায় নতুন করে আরও দুজনের শরীরে করোনা শনাক্ত হয়েছে। এনিয়ে জেলায় মোট করোনা আক্রান্ত হয়েছে ১ হাজার ৮৯০ জন। এর মধ্যে সদর উপজেলায় ১ হাজার ৩ জন, আলমডাঙ্গায় ৩৫৮ জন, দামুড়হুদায় ৩২৬ জন ও জীবননগরে ২০০ জন। গতকাল জেলায় নতুন করে কেউ সুস্থ হয়নি। এখন পর্যন্ত জেলায় মোট সুস্থ হয়েছে ১ হাজার ৭৭১ জন। এর মধ্যে সদর উপজেলার ৯৫৩জন, আলমডাঙ্গার ৩৩৪ জন, দামুড়হুদার ৩০০ জন ও জীবননগরের ১৮৪ জন।

জানা যায়, গত মঙ্গলবার জেলা স্বাস্থবিভাগ করোনা পরীক্ষার জন্য ১৯ নমুনা সংগ্রহ করে পিসিআর ল্যাবে প্রেরণ করে। গতকাল উক্ত ১৯টি নমুনার ফলাফল সিভিল সার্জন অফিসে এসে পৌঁছায়। এর মধ্যে দুজনের শরীরে করোনা শনাক্ত হয়েছে। এছাড়া বাকী ১৭টি নমুনার ফলাফল নেগেটিভ। গতকাল জেলা স্বাস্থ্যবিভাগ করোনা পরীক্ষার জন্য আরও ২৪টি নমুনা সংগ্রহ করে পরীক্ষার জন্য প্রেরণ করেছে। এনিয়ে জেলায় মোট নমুনা সংগ্রহের সংখ্যা দাঁড়িয়েছে ৯ হাজার ৪৫৭টি।

চুয়াডাঙ্গা সিভিল সার্জন অফিসের সর্বশেষ তথ্যানুযায়ী জেলা থেকে এ পর্যন্ত মোট নমুনা সংগ্রহ ৯ হাজার ৪৫৭টি, প্রাপ্ত ফলাফল ৯ হাজার ২২২টি, পজিটিভ ১ হাজার ৮৯০টি ও নেগেটিভ ৭ হাজার ২৯৮টি। শেষ খবর পাওয়া পর্যন্ত চুয়াডাঙ্গায় ৬০ জন করোনা আক্রান্ত রোগী চিকিৎসাধীন অবস্থায় ছিলেন। এর মধ্যে সদর উপজেলায় অবস্থানকালে আক্রান্ত হয়েছেন ২৬ জন, আলমডাঙ্গায় ৬ জন, দামুড়হুদায় ১৫ জন ও জীবননগরে ১৩ জন। আক্রান্তদের মধ্যে বর্তমানে ৫২ জন হোম আইসোলেশনে আছেন। এর মধ্যে সদর উপজেলায় ২০ জন, আলমডাঙ্গায় ৬ জন, দামুড়হুদায় ১৫ জন ও জীবননগরে ১৩ জন। প্রাতিষ্ঠানিক আইসোলেশনে আছেন সদর উপজেলার ৩ জন ও আলমডাঙ্গার ২ জনসহ ৫ জন। এছাড়াও উন্নত চিকিৎসার জন্য চুয়াডাঙ্গার বাইরে রয়েছেন আরও ৩ জন। চুয়াডাঙ্গায় করোনা আক্রান্ত হয়ে এ পর্যন্ত মোট মৃত্যু হয়েছে ৫৩ জনের। এর মধ্যে সদর উপজেলার ২২ জন, আলমডাঙ্গায় ১৬ জন, দামুড়হুদায় ১১ জন ও জীবননগরে ৪ জন। এছাড়াও চুয়াডাঙ্গায় আক্রান্ত ৬ জনের মৃত্যু হয়েছে এ জেলার বাইরে।