চুয়ডাঙ্গায় চুরি হওয়া মোবাইল ও ল্যাপটপ উদ্ধার

30

নিজস্ব প্রতিবেদক:
চুয়াডাঙ্গায় বিভিন্ন সময় চুরি হওয়া ৭টি মোবাইল ও ১টি ল্যাপটপ উদ্ধারসহ চোরচক্রের এক সদস্যকে গ্রেপ্তার করে আদালতে সোপর্দ করেছে সদর থানার পুলিশ। দীর্ঘদিন পর হারানো মোবাইল ফিরে পেয়ে মহাখুশি এর প্রকৃত মালিকরা। গ্রেপ্তার রমজান আলী (২২) শহরের কাটপট্টি এলাকার সানোয়ারের ছেলে। গতকাল সোমবার বেলা সাড়ে ১১টার দিকে সদর থানার গোল চত্বরে এক সংবাদ সম্মেলনের মাধ্যমে এ তথ্য নিশ্চিত করা হয়।
সংবাদ সম্মেলনে সদর থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) আবু জিহাদ খান জানান, বর্তমান তথ্য প্রযুক্তির যুগে প্রতিটা মানুষের কাছে মোবাইল অত্যান্ত গুরুত্বপূর্ণ একটি সম্পত্তি। প্রতিটা মানুষই তাঁদের ব্যক্তিগত অনেক তথ্য এই মোবাইলে সংগ্রহ করে রাখেন। হঠাৎ মোবাইলটা চুরি বা হারিয়ে গেলে প্রচণ্ড মানসিক কষ্টে পড়ে যান তাঁরা। তিনি আরও বলেন, গত কয়েক মাসে চুয়াডাঙ্গা সদর থানায় বেশ কয়েকটি মোবাইল ফোন ও ল্যাপটপ চুরি বা হারিয়ে যাওয়ার অভিযোগ পাওয়া যায়। ওই সকল অভিযোগের বিষয়ে সদর থানার একজন চৌকশ অফিসার উপ-পরিদর্শক (এসআই) শামিম হোসেন দীর্ঘদিন ধরে কাজ করছিলেন। পুলিশের অনেক তথ্য-উপাত্ত বিশ্লেষণ করে গত রোববার সকালে শহরের কাঠপট্টি এলাকা থেকে রমজান আলীকে আটক করে পুলিশ। পরে প্রাথমিক জিজ্ঞাসাবাদে তাঁর দেওয়া তথ্যমতে বিভিন্ন স্থান থেকে ৭টি মোবাইল ও ল্যাপটপ উদ্ধার করে পুলিশ।
এদিকে, হারিয়ে যাওয়া বা চুরি হওয়া মুঠোফোন ও ল্যাপটপ দীঘদিন পর ফিরে পেয়ে আবেগাপ্লুত হয়ে পড়েন এর প্রকৃত মালিকরা। মুঠোফোনগুলোর মধ্যে একটি আইফোনও ছিল।