চুয়াডাঙ্গা শুক্রবার , ২০ জানুয়ারি ২০২৩
আজকের সর্বশেষ সবখবর

চুয়াডাঙ্গা নতুন বাজার ও মুজিবনগরে দুই দোকানে অগ্নিকান্ড

প্রায় সাড়ে ৪ লাখ টাকার মালামাল পুড়ে ছাই
সমীকরণ প্রতিবেদনঃ
জানুয়ারি ২০, ২০২৩ ৯:০০ পূর্বাহ্ণ
Link Copied!

Girl in a jacket

প্রতিবেদক, মুজিবনগর:

চুয়াডাঙ্গা পৌর শহরের নতুন বাজার ও মেহেরপুরের মুজিবনগরে ইলেক্ট্রিক শর্ট সার্কিট থেকে আগুন লেগে দুটি দোকান পুড়ে সাড়ে ৪ লাখ টাকার মালামাল নষ্ট হয়েছে। গতকাল বৃহস্পতিবার বেলা তিনটার দিকে চুয়াডাঙ্গা নতুন বাজার ও গত বুধবার দিবাগত রাত সাড়ে ১২টার দিকে মুজিবনগরে এ ঘটনা ঘটে। স্থানীয় ব্যক্তি ও ফায়ার সার্ভিসের কর্মীরা আগুন নিয়ন্ত্রণে নেওয়ার পূর্বেই দোকানের সমস্ত মালামাল পুড়ে যায়।

জানা যায়, চুয়াডাঙ্গা পৌর শহরের নতুন বাজারে অবস্থিত সাইফুল স্টোরের মালিক সাইফুল গতকাল দুপুরে দোকান বন্ধ করে বাড়িতে চলে যায়। বেলা তিনটার দিকে মোবাইলে জানতে পারে তার দোকানে আগুন লেগেছে। স্থানীয় ব্যক্তিরা ও চুয়াডাঙ্গা ফায়ার সার্ভিসের সদস্যরা অনেক চেষ্টার পরে আগুন নিয়ন্ত্রণে নেয়। তবে অগ্নিকাণ্ডে তার দোকানের প্রায় সাড়ে তিন লাখ টাকার মালামাল পুড়ে যায়।

সাইফুল স্টোরের মালিক মিলন জানান, ‘বৃহস্পতিবার দুপুরে দোকান বন্ধ করে বাসার উদ্দেশ্য রওনা হই। পরে শুনি যে আমার দোকানে আগুন ধরে গেছে। আমি দ্রুত এসে দোকান খুলে দেখি আমার দোকানের প্রায় ৩ লাখ টাকার মালামাল সব পুড়ে ছাই হয়ে গেছে।’

অপর দিকে, মেহেরপুরের মুজিবনগরে প্রতিবন্ধী মনির মল্লিকের ইলেক্ট্রনিক দোকান পুড়ে প্রায় দেড় লাখ টাকার ক্ষতি হয়েছে। আয়ের একমাত্র সম্বল দোকানটি পুড়ে যাওয়ায় বিপাকে পড়েছেন তিনি। গত বুধবার দিবাগত রাত সাড়ে ১২টার দিকে মুজিবনগর উপজেলার বাগোয়ান ইউনিয়নের ২ নম্বর ওয়ার্ড ভবরপাড়া বাজারে এ ঘটনা ঘটে।  মনির হোসেন ভবরপাড়া গ্রামের এওল মল্লিকের ছেলে।

ক্ষতিগ্রস্ত দোকান মালিক মনির জানান, প্রতিদিনের ন্যায় গত বুধবার রাতেও তিনি দোকান বন্ধ করে বাড়ি চলে যান। রাত সাড়ে ১২টার দিকে ভবরপাড়া বাজারে চিৎকার চেচামেচি শুরু হলে তিনি বাড়ি থেকে বের হন। এসময় স্থানীয়দের থেকে জানতে পারেন তার দোকানে আগুন লেগেছে। এরই মধ্যে খবর পেয়ে ফায়ার সার্ভিসের একটি টিম ঘটনাস্থলে পৌঁছে যায়। এসময় তিনি গ্রামবাসী ও ফায়ার সার্ভিসের কর্মীদের সহায়তায় আগুন নেভানোর চেষ্টা করেন। কিছুক্ষণ পরে আগুও নিভে গেলেও ততক্ষণে দোকান ও দোকানের মালামাল সম্পূর্ণ পুড়ে ছাই হয়ে যায়।

ফায়ার সার্ভিসের স্টেশনের ভারপ্রাপ্ত স্টেশন ইনচার্জ জানান, খবর পেয়ে ফায়ার সার্ভিসের একটি টিম গ্রুত ঘটনাস্থলে পৌঁছে আগুন নিয়ন্ত্রণে নেয়। এ ঘটনায় পাশের দুটি দোকান আগুন লাগা থেকে রক্ষা পেলেও ইলেক্ট্রনিক্সের দোকানটি সম্পূর্ণ পুড়ে গেছে। ধারণা করা হচ্ছে ইলেক্ট্রিক শর্ট সার্কিট থেকে আগুনের সূত্রপাত ঘটেছে। ২ নম্বর ওয়ার্ড ভবরপাড়া ইউপি সদস্য সিবাস্তিন মল্লিক বলেন, ‘ছেলেটা খুব অসহায়। একইসঙ্গে সে প্রতিবন্ধী। অনেক কষ্টে সে দোকানটি করেছিল। আয়ের একমাত্র উৎস ছিল তার এই দোকানটি। আমি আশা করি প্রশাসন তাকে সাহায্য করবে, আমাদের পক্ষ থেকে যতটুকু সম্ভব তাকে সাহায্য করা হবে।’

Girl in a jacket

দৈনিক সময়ের সমীকরণ সংবিধান, আইন ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো মন্তব্য না করার জন্য পাঠকদের বিশেষভাবে অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য অপসারণ করার ক্ষমতা রাখে।