গ্রিন টি নাকি লেবু চা কোনটা স্বাস্থ্যের জন্য বেশি উপকারী?

13

স্বাস্থ্য ডেস্ক:
আজকাল আমরা সুস্থ থাকতে অনেক কিছুই করি। ভালো থাকতে ভালো ভালো খাওয়াদাওয়া, ওয়ার্কআউট- এসব অনেকেরই রোজকার রুটিন হয়ে গেছে। কিন্তু সুস্থ থাকতে কিছু পানীয়র দরকার আছে শরীরে। সকালে ঘুম থেকে উঠে কিছুক্ষণ শরীরচর্চা করে কেউ পান করেন গ্রিন টি আর কেউ আবার পান করেন লেবু চা। আমাদের শরীরের জন্য লেবু যেমন উপকারী, সেই সঙ্গে গ্রিন টিও জরুরি। কাজের মাঝেও মনকে চাঙ্গা করতে এক কাপ লেবু চা যথেষ্ট। আবার খুব রোদে বাইরে থেকে এসে লেবু চা আপনাকে এনার্জি এনে দেবে। লেবু আমাদের শরীরের অভ্যন্তরীণ রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতাকে শক্তিশালী করে তোলে। আবার শরীরের যে টক্সিন, সেগুলোকে লেবুই শরীর থেকে বের করে দিতে পারে বলে লেবু বডি ডিটক্সের জন্য খুব জরুরি। সেই সঙ্গে লেবুর রস দিয়ে যেটাই খাবেন তা ওজন কমাতে সহায়ক হিসেবে কাজ করবে। সকালে কাজে যাওয়ার আগে আপনার এনার্জি ড্রিংক হতে পারে লেবু পানি। কারণ সারা দিনের খাটা-খাটনির জন্য শরীরের দরকার শক্তি। এই শক্তি আপনি পেয়ে যেতে পারেন একটি পানীয়তেই। যারা ডায়াবেটিসে ভুগছেন তাদের জন্যও লেবু চা খুব উপকারী, যা ইনসুলিনের উৎপাদন বাড়ায়। লেবু চা নিয়মিত পান করলে আমাদের কার্ডিও-ভাসকুলার রোগে ভোগার ঝুঁকি কমে যায় অনেকটা প্রাকৃতিকভাবেই। অ্যান্টি ব্যাকটেরিয়াল সংক্রমণ এবং ভাইরাস সংক্রমণ থেকে মুক্তি পেতে পারেন নিয়মিত লেবু চা পানে।
এদিকে গ্রিন টিতে রয়েছে নানা পুষ্টি উপাদান যেমন- ভিটামিন এ, ভিটামিন সি, ভিটামিন ই, ক্যালসিয়াম, ম্যাগনেসিয়াম ছাড়াও বিভিন্ন খনিজ উপাদান, যা প্রতিটি মানুষের শরীরেই শক্তি বৃদ্ধি করতে ও সারা দিনের কাজ করতে প্রয়োজন। শরীরের রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতাও বাড়ে এই চা পান করলে। আবার শরীরকে বিভিন্ন ধরনের ক্যান্সার থেকে রক্ষা করতে পারে এই পানীয়। দুটো পানীয়ই স্বাস্থ্যের জন্য ভালো; কিন্তু যেহেতু লেবুতে এসিটিক এসিড রয়েছে, তাই সকালবেলা তা পানে এসিডিটি এবং গ্যাসের সমস্যা হতে পারে অনেকের। সেই হিসেবে যাদের গ্যাস্ট্রিকের সমস্যা আছে তারা গ্রিন টি বেছে নিতে পারেন। না হলে লেবু চা খেতে পারেন।