চুয়াডাঙ্গা রবিবার , ১৩ নভেম্বর ২০১৬
আজকের সর্বশেষ সবখবর

গোপন সংবাদের ভিত্তিতে তিতুদহে পুলিশি অভিযান স্বাক্ষর জালিয়াতি মামলায় শুকুর পুলিশের খাঁচায়!

সমীকরণ প্রতিবেদন
নভেম্বর ১৩, ২০১৬ ১২:৪৬ অপরাহ্ণ
Link Copied!

15050161_1737033516620863_244700156_n

নিজস্ব প্রতিবেদক: ঐতিহ্যবাহী গড়াইটুপি মেলার অনুমোদন নিয়ে মহামান্য হাইকোর্টের ২জন বিজ্ঞ বিচারপতির স্বাক্ষর জালিয়াতির মামলার প্রধান আসামী শুকুর আলী অবশেষে পুলিশের হাতে গ্রেফতার হয়েছে। এই জালিয়াতি মামলায় দীর্ঘ ৩মাস পালিয়ে থাকার পর গতরাত আনুমানিক সোয়া ১টার দিকে পুলিশের একটি বিশেষ টিম গোপন সংবাদের ভিত্তিতে তাকে তার নিজ বাড়ী থেকে গ্রেফতার করে সদর থানা হাজতে রাখা হয়েছে। উল্লেখ্য, মহামান্য হাইকোর্টের বিচারপতি সালমা মাসুদ চৌধূরী ও বিচারপতি হাবিবুল গণির জাল স্বাক্ষরকৃত আদেশ নামা দাখিল করে মেলার মেয়াদ আরও ২ মাস বৃদ্ধি করতে চাইলে পুলিশের সন্দেহ হয়। পরে চুয়াডাঙ্গার অতিরিক্ত পুলিশ সুপার মোহাম্মদ বেলায়েত হোসেন হাইকোর্টের রেজিষ্ট্রার সোহাগ রঞ্জন পাল বরাবর আদেশ নামার একটি কপি প্রেরণ করে এর সত্যতা যাচাইয়ে উদ্যোগ নিলে থলের বিড়াল বেড়িয়ে পড়ে এবং গত ১৩ আগষ্ট তিতুদহ আব্দুল লতিফের ছেলে আ.লীগ নেতা শুকুর আলীকে প্রধান আসামী করে অজ্ঞাত ৪০/৫০ জনের নামে প্রতারণা ও স্বাক্ষর জালিয়াতি মামলা রুজু হয়। এরপর থেকেই শুকুর আলী পলাতক থেকে জামিন পেতে বিভিন্ন মহলে দৌড়ঝাঁপ করে ক্লান্ত হয়ে সবার অগোচরে নিজ বাড়ীতে পালিয়ে থাকা অবস্থায় গতরাতে পুলিশের খাঁচায় বন্দি হয় সে। আজ তাকে আদালতে সোপর্দ করা হতে পারে বলে জানা গেছে। এবিষয়ে ওসি তোজাম্মেল হক জানান, মহামান্য হাইকোর্টের ২জন বিজ্ঞ বিচারপতির স্বাক্ষর জালিয়াতি মামলার প্রধান আসামী শুকুর আলীসহ অজ্ঞাতদের গ্রেফতারে পুলিশ সচেষ্ট ছিলো। গতরাতে গোপন সংবাদে তার অবস্থান নিশ্চিত হওয়া মাত্রই পুলিশের একটি বিশেষ টিম তাকে গ্রেফতার করে। আজ তাকে আদালতে প্রেরণ করে স্বাক্ষর জালিয়াতি চক্র সনাক্তে জিজ্ঞাসাবাদের জন্য রিমান্ডের আবেদন করা হবে। এই মামলায় অন্য আসামীদের ধরতে পুলিশী অভিযান অব্যাহত রয়েছে।

দৈনিক সময়ের সমীকরণ সংবিধান, আইন ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো মন্তব্য না করার জন্য পাঠকদের বিশেষভাবে অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য অপসারণ করার ক্ষমতা রাখে।