চুয়াডাঙ্গা বৃহস্পতিবার , ২০ জুলাই ২০১৭
আজকের সর্বশেষ সবখবর

কুষ্টিয়ায় শিল্পকলার ভবন নির্মাণ কাজের উদ্বোধনকালে সংস্কৃতি মন্ত্রী আসাদুজ্জামান নূর : মুক্তিযুদ্ধের চেতনায় বঙ্গবন্ধুর স্বপ্নের বাংলাদেশ দেখতে চায়

সমীকরণ প্রতিবেদন
জুলাই ২০, ২০১৭ ৪:৫২ পূর্বাহ্ণ
Link Copied!

আলমডাঙ্গা অফিস: গণপ্রজাতন্ত্রী বাংলাদেশ সরকারে সংস্কৃতি বিষয়ক মন্ত্রণালয় মন্ত্রী আসাদুজ্জামান নূর এমপি গতকাল বুধবার কুষ্টিয়া শিল্পকলা একাডেমি কমপ্লেক্স ভবন নির্মাণ কাজের আনুষ্ঠানিক উদ্বোধন করেন। সংস্কৃতি মন্ত্রনালয়ের অর্থায়নে এক একর জায়গার ওপর নির্মিত ৩০ কোটি টাকা ব্যায়ে নির্মিত হচ্ছে এই ৩ তলা বিশিষ্ট অত্যাধুনিক কমপ্লেক্স ভবন। যেখান থাকছে ৩টি অধ্যাধুনিক অডিটোরিয়াম যার মধ্যে রয়েছে অত্যাধুনিক ফিক্স অডিটোরিয়াম, মাল্টিপারপাস অডিটোরিয়াম ও এরিনা মঞ্চ। উদ্বোধনী আনুষ্ঠানে কুষ্টিয়া জেলা প্রশাসক মো. জহির রায়হানের সভাপতিত্বে উপস্থিত ছিলেন বাংলাদেশ আওয়ামী লীগের যুগ্ম-সাধারণ সম্পাদক ও কুষ্টিয়া-৩ (সদর) আসনের সংসদ সদস্য মাহবুবউল আলম হানিফ। এছাড়া উপস্থিত ছিলেন সংস্কৃতি বিষয়ক মন্ত্রণালয়ের সচিব মো. ইব্রাহীম হোসেন খান, বাংলাদেশ শিল্পকলা একাডেমীর মহাপরিচালক লিয়াকত আলী লাকী, কুষ্টিয়া পুলিশ সুপার মেহেদী হাসান প্রমূখ। সাংস্কৃতির রাজধানি খ্যাত কুষ্টিয়া বাসির দীর্ঘদিনের দাবি এবার বাস্তবায়ন হতে চলেছে। কুষ্টিয়া সদর আসনের সংসদ বাংলাদেশ আওয়ামী লীগের যুগ্ম আহবায়ক মহবুবুল আলম হানিফ বলেন বর্তমান সরকার কাজ করতে চাচ্ছে, আর বিরোধী দল বিভিন্ন অজুহাতে বিশেষ করে ধর্মিয় অনুভুতিকে কাজে লাগিয়ে দেশে বিশৃংখলা সৃষ্টি করতে চাচ্ছে। দেশ এগিয়ে যাচ্ছে, জননেত্রী শেখ হাসিনা দেশকে ২১ সালের মধ্যে মধ্যম আয়ের দেশে রুপান্তর করতে চায়।যুবকদের বলি কু পথ পরিহার করে সুপথে এসো, লেখাপড়ার পাশাপাশি খেলা ধুলা ও সাংস্কৃতির চর্চা করো। মাননীয় মন্ত্রী বলেন আমরা উন্নয়নের রোড মেপে বাংলাদেশকে দেখতে চায়। কোন জঙ্গি দেশ নয়, সুখি সম্মৃদ্ধি শালি মধ্যম আয়ের দেশ দেখতে চায়, মুক্তিযুদ্ধের চেতনার বাংলাদেশ, বঙ্গবন্ধুর স্বপ্নের বাংলাদেশ দেখতে চায়।
উল্লেখ্য, এর আগে গত ৯ই মার্চ সংস্কৃতি মন্ত্রী আসাদুজ্জামান নূর এমপির কুষ্টিয়া সফরে বাংলাদেশ ও ভারত সরকারের মধ্যে ‘শিলাইদহ রবীন্দ্র কুঠিবাড়ী সম্প্রসারিত উন্নয়ন কার্যক্রম‘ শীর্ষক ১৮.১৭ কোটি টাকার প্রকল্পের সমঝোতা স্মারক শিলাইদহ কুঠিবাড়ী বকুলতলায় স্বাক্ষরিত করতে আসেন।

দৈনিক সময়ের সমীকরণ সংবিধান, আইন ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো মন্তব্য না করার জন্য পাঠকদের বিশেষভাবে অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য অপসারণ করার ক্ষমতা রাখে।