চুয়াডাঙ্গা শনিবার , ২৩ ডিসেম্বর ২০১৭
আজকের সর্বশেষ সবখবর

আল্লাহর রহমত ও কুদরত

সমীকরণ প্রতিবেদন
ডিসেম্বর ২৩, ২০১৭ ১০:৩৭ পূর্বাহ্ণ
Link Copied!

ধর্ম ডেস্ক: বিশ্ব ইতিহাসের দিকে তাকালে দেখা যাবে আদিকাল থেকে যুগে যুগে, দেশে দেশে আল্লাহ তায়ালা মানুষকে নানাভাবে পরীক্ষা করেছেন। মানুষের অন্যায়-অত্যাচার ও পাপাচারের শাস্তি দুনিয়াতে পাপিষ্ঠরা যেমন ভোগ করে থাকে, তেমনি তাদের সঙ্গে সৎ লোকদেরও ভোগ করতে হয়। আবার অভাবিতভাবে অনেকের প্রতি আল্লাহর করুণাও বর্ষিত হয়। পবিত্র কোরানে বিভিন্ন জাতির জঘন্য পাপাচারের জন্য চরম ও কঠোর শাস্তির বহু কাহিনী বর্ণিত হয়েছে, বহু অবিশ্বাস্য, বিস্ময়কর ঘটনার কথাও বলা হয়েছে। একজন মুসলমানকে এ কথা মনে-প্রাণে বিশ্বাস করতে হবে যে, মানুষের জীবনে আপতিত বিপর্যয় তারই কৃতকর্মের ফল। মানুষ ভুল করলে সে ভুলের মাশুল তাকে দিতে হবে। পাপ করলে পাপের প্রায়শ্চিত্ত হয়। আল্লাহ তায়ালা কোরানের নানা স্থানে স্পষ্ট বলেছেন যে, ‘তোমাদের ওপর যে বিপদ-আপদ পতিত তা তোমাদেরই কৃতকর্মের ফল।’ আবার এমনও বলেছেন যে, ‘তোমরা নিজেদের ধ্বংসের দিকে নিক্ষেপ কর না।’ সুতরাং বোঝা যাচ্ছে যে, অনেক বিপদ-বিপর্যয় মানুষরাই ডেকে আনে। বস্তুত সৎ লোকের দ্বারা কখনো অন্যায়, পাপাচার, অপকর্ম সাধিত হতে পারে না, তবে মানুষ মাত্রই যেহেতু ভুল-ভ্রান্তির শিকার হতে পারে, সে ভুলের মাশুল ভোগ করা ও স্বাভাবিক তওবা করলে আল্লাহ তায়ালা ক্ষমাও করতে পারেন। কারো অপকর্ম ও পাপাচারের কারণে আল্লাহর পক্ষ থেকে কোনো বিপদ-আপদ পতিত হলে, বিপর্যয় ঘটলে তাতে সৎ, নিরীহ, নিরপরাধ লোক ক্ষতিগ্রস্ত হয়, এটাই বিধাতার বিধান। এরূপ আকস্মিক দুর্ঘটনা-বিপর্যয়ে যারা প্রাণ হারায়, মারা যায়; তাদের মধ্যে বিশ্বাসী কিছু লোক শহিদি মর্যাদার অধিকারী হয়ে থাকে। যেমন আগুনে পুড়ে মরা, পানিতে ডুবে মরা, ভবন ধসে মরা ইত্যাদি।

দৈনিক সময়ের সমীকরণ সংবিধান, আইন ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো মন্তব্য না করার জন্য পাঠকদের বিশেষভাবে অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য অপসারণ করার ক্ষমতা রাখে।