চুয়াডাঙ্গা রবিবার , ১৮ সেপ্টেম্বর ২০১৬

আলমডাঙ্গা থানা পুলিশের অভিযানে বিভিন্ন মামলার ৬ আসামি আটক

সমীকরণ প্রতিবেদন
সেপ্টেম্বর ১৮, ২০১৬ ১২:৪৩ অপরাহ্ণ
Link Copied!

dfeআলমডাঙ্গা অফিস:  আলমডাঙ্গা থানা পুলিশের অভিযানে সাজাপ্রাপ্ত আসামিসহ বিভিন্ন মামলায় ৬জন গ্রেফতার হয়েছে। জানা যায়, গতকাল সকাল ১১টায় এসআই শাখাওয়াত সঙ্গীয় ফোর্সসহ গোপন সংবাদের ভিত্তিতে নাগদাহ গ্রামের লোকমান হোসেনের ছেলে হাসিবুল হক (৩৬) কে নিজ বাড়ি থেকে আটক করে। তার বিরুদ্ধে যৌতুক নিরোধ আইনে সিআর ১৬৪/০৯ মামলায় ১ বছর বিনাশ্রম কারাদণ্ড অনাদায়ে ৫ হাজার টাকা জরিমানার দন্ড ছিল। তাকে আটক করে থানায় নিয়ে আসা হয়। আজ তাকে চুয়াডাঙ্গা জেল হাজতে প্রেরণ করা হবে। এছাড়াও এইআই মাসনুন অভিযান চালিয়ে বিনোদপুর গ্রাম থেকে আব্দুল মান্নানের ছেলে আব্দুস সালাম (৩০) কে আটক করে। তার নামে জিআর ৭৩/১২ মামলা আছে। অন্যদিকে এসআই গিয়াস উদ্দিন ডাউকি ইউনিয়নের বাদেমাজু গ্রাম থেকে সিআর ৫৬/১৫ মামলার আসামি রহমত আলীর ছেলে মানোয়ার হোসেন (৪০) কে আটক করে। এছাড়াও থানা পুলিশ অভিযান চালিয়ে খাসখকরা ইউনিয়নের নওলামারি গ্রাম থেকে আলী হোসেনের ছেলে কলম (৪০) কে আটক করে। কলম খাসকররার একটি মেয়েকে অনেকদিন থেকে উত্যক্ত করে আসছিল। মেয়েটি একটি মাদ্রাসার ছাত্রী। এ ব্যাপারে তার পরিবারের লোকজন থানায় অভিযোগ করে। তার বিরুদ্ধে যে লোকটি সাক্ষি দিতে চেয়েছিল কলম ও তার লোকজন তাকে মেরে হাত-পা ভেঙে দেয়। খবর পেয়ে চুয়াডাঙ্গা পুলিশ সুপারের নির্দেশে আলমডাঙ্গা থানা অফিসার ইনচার্জ আকরাম হোসেন পুলিশ পাঠিয়ে কলমকে আটক করে নিয়ে আসে। তার নামে ১৭-১৬/০৯/২০১৬ মামলা আছে। এছাড়াও বেলগাছি গ্রাম থেকে বুড়ন শাহ’র ছেলে সোহরাব আলীকে আটক করে। তার নামে পারিজারি মামলা ২৫/১৫ আছে। এছাড়াও আলমডাঙ্গা বাড়াদি ইউনিয়নের নতিডাঙ্গা গ্রামের মফিজ উদ্দিনের স্ত্রী সুরাতন নেছা (৪০) কে ২৯ পুরিয়া গাঁজা এবং ৫০ গ্রাম হিরোইনসহ আটক করে। তার নামে মাদক আইনে মামলা হয়েছে। মামলা নয় ১৮- ১৬/০৯/২০১৬। তাদের সকলকেই গতকালই চুয়াডাঙ্গা জেল হাজতে প্রেরণ করা হয়েছে।

দৈনিক সময়ের সমীকরণ সংবিধান, আইন ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো মন্তব্য না করার জন্য পাঠকদের বিশেষভাবে অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য অপসারণ করার ক্ষমতা রাখে।