আইয়ুব বাচ্চুকে শেষ শ্রদ্ধা

320

শহীদ মিনারে জনস্রোত : চট্টগ্রামে দাফন আজ
ডেস্ক রিপোর্ট: প্রিয় শিল্পীর জন্য মানুষের ভালোবাসা কতটা প্রবল হতে পারে গতকাল শুক্রবার শহীদ মিনারে না গেলে তা বোঝা যেত না। এ এক অন্যরকম হৃদয় উদ্বেলিত দৃশ্যচিত্র! বাংলাদেশের ব্যান্ড সঙ্গীতের কিংবদন্তি শিল্পী আইয়ুব বাচ্চুর প্রতি সর্বসাধারণের শেষ শ্রদ্ধা জানানোর জন্য সকাল সাড়ে ১০টা থেকে দুপুর সাড়ে ১২টা পর্যন্ত তার মরদেহ কেন্দ্রীয় শহীদ মিনারে রাখা হয়। অবশ্য তার কয়েক ঘণ্টা আগে থেকেই ওই এলাকায় শুরু হয় জন¯্রােত! আইয়ুব বাচ্চুর ভক্ত, অনুরাগীসহ রাজনৈতিক, সামাজিক ও সাংস্কৃতিক সংগঠনের শ্রদ্ধা নিবেদন পর্বে সঙ্গীত অঙ্গনের দিকপালরা যেমন এসেছিলেন, তাদের ছাপিয়ে সর্বস্তরের মানুষের ঢল ছিল লক্ষণীয়। দীর্ঘ সময় লাইনে দাঁড়িয়ে তারা প্রিয় শিল্পীর কফিনে শেষ শ্রদ্ধা ঢেলে দিয়েছেন ফুলেল অর্ঘ্য।ে কয়েক মিনিটেই ভালোবাসার ফুলে ফুলে ঢেকে যায় কফিন। সম্মিলিত সাংস্কৃতিক জোটের তত্ত্বাবধানে কেন্দ্রীয় শহীদ মিনারে আয়োজিত এই শ্রদ্ধা অনুষ্ঠানে আইয়ুব বাচ্চুর কফিন ঘিরে ছিলেন তার সঙ্গীত জীবনের সহযাত্রী তপন চৌধুরী, শাফিন আহমেদ, মানাম আহমেদ, কুমার বিশ^জিৎ, রবি চৌধুরী ও কবির বকুল। আরো ছিলেন সাংস্কৃতিক ব্যক্তিত্ব নাসির উদ্দিন ইউসুফ বাচ্চু, আইয়ুব বাচ্চুর ছোট ভাই ইরফান চৌধুরী প্রমূখ। বাংলা ব্যান্ড সঙ্গীতের এই কিংবদন্তি শিল্পীকে শ্রদ্ধা জানাতে এসে কান্নায় ভেঙে পড়েন সংস্কৃতিমন্ত্রী আসাদুজ্জামান নূর, সুমনা হক, ফোয়াদ নাসের বাবুসহ অগণিত ভক্ত-অনুরাগী। এক মিনিটের নীরবতা পালন করে শেষ হয় শ্রদ্ধা নিবেদনের পর্ব। শহীদ মিনারে শ্রদ্ধা নিবেদন শেষে তার মরদেহ নিয়ে যাওয়া হয় হাইকোর্ট সংলগ্ন জাতীয় ঈদগাহ মাঠে। সেখানে বাদ জুমা তার প্রথম নামাজে জানাজা অনুষ্ঠিত হয়। সেখানেও মানুষের ঢল নামে। এরপর মরদেহ নিয়ে যাওয়া হয় আইযুব বাচ্চুর প্রাণপ্রিয় রেকর্ডিং স্টুডিও মগবাজারের ‘এবি কিচেন’-এ। সেখানে দ্বিতীয় জানাজা শেষে তার মরদেহ নিয়ে যাওয়া হয় তেজগাঁওয়ে চ্যানেল আই ভবন প্রাঙ্গণে। সেখানেও শিল্পী, শুভার্থী ও সহকর্মীরা শ্রদ্ধা নিবেদনের পর বাদ আসর তৃতীয় জানাজা পড়ানো হয়। এরপর স্কয়ার হাসপাতালের হিমঘরে রাখা হয় শিল্পীর মরদেহ। আজ শনিবার ভোরে তার দুই ছেলেমেয়ের ঢাকায় পৌঁছানোর কথা রয়েছে। তারা আসার পর মরদেহ নিয়ে যাওয়া হবে জন্মভূমি চট্টগ্রামে। সেখানে চতুর্থ জানাজা শেষে এনায়েত বাজারের পারিবারিক কবরস্থানে মায়ের কবরের পাশে তাকে সমাহিত করা হবে। পারিবারিক সূত্র এ তথ্য নিশ্চিত করেছে।