চুয়াডাঙ্গা মঙ্গলবার , ১৪ ডিসেম্বর ২০২১
আজকের সর্বশেষ সবখবর

অন্তঃসত্ত্বা স্ত্রীকে পুড়িয়ে হত্যার দায়ে স্বামীর মৃত্যুদণ্ড

সমীকরণ প্রতিবেদনঃ
ডিসেম্বর ১৪, ২০২১ ১০:০৯ পূর্বাহ্ণ
Link Copied!

কুষ্টিয়ায় অন্তঃসত্ত্বা স্ত্রীকে আগুনে পুড়িয়ে হত্যার দায়ে স্বামী শাহিনুল ইসলামের মৃত্যুদণ্ডের আদেশ দিয়েছেন আদালত। গতকাল সোমবার সকালে কুষ্টিয়ার অতিরিক্ত জেলা ও দায়রা জজ আদালতের বিচারক মো. তাজুল ইসলাম এ রায় ঘোষণা করেন। এ সময় আসামি শাহিনুল ইসলাম আদালতে উপস্থিত ছিলেন।

আদালত সূত্রে জানা গেছে, কুষ্টিয়ার মিরপুর উপজেলার নওদা খাড়ারা গ্রামের শাজাহান মালিথার ছেলে শাহিনুল ইসলামের সঙ্গে হত্যাকাণ্ডের সাত বছর আগে নিহত চম্পা খাতুনের বিয়ে হয়। জমি সংক্রান্ত বিরোধের জেরে ২০১৪ সালের ৯ অক্টোবর রাতে শাহিনুল ইসলাম তার স্ত্রীর শাড়ি ও ঘরের বেড়ায় কেরোসিন ঢেলে আগুন লাগিয়ে দেয়। এতে চম্পার শরীরের অধিকাংশ আগুনে ঝলসে যায়। পরে গুরুতর অবস্থায় উদ্ধার করে তাকে কুষ্টিয়া জেনারেল হাসপাতালে নিয়ে যাওয়া হয়। আশঙ্কাজনক অবস্থায় উন্নত চিকিৎসার জন্য ঢাকা মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালের বার্ন ইউনিটে ভর্তি করা হয়। সেখানে চিকিৎসাধীন অবস্থায় মারা যান। এ ঘটনায় নিহত চম্পা খাতুনের চাচা ও ভেড়ামারা উপজেলার ভাটপাড়া এলাকার আইজুদ্দিনের ছেলে শাহাদাত আলী বাদী হয়ে মিরপুর থানায় মামলা করেন।

মামলার তদন্ত শেষে আসামি শাহিনুল ইসলামের বিরুদ্ধে আদালতে প্রতিবেদন দাখিল করা হয়। মামলায় সাক্ষ্য গ্রহণ শেষে বিচারক আজ এ রায় ঘোষণা করেন। কুষ্টিয়া জেলা ও দায়রা জজ আদালতের রাষ্ট্রপক্ষের কৌঁসুলি অনুপ কুমার নন্দী বলেন, অন্তঃসত্ত্বা স্ত্রীকে কেরোসিন দিয়ে পুড়িয়ে হত্যা মামলায় দোষী প্রমাণিত হওয়ায় শাহিনুল ইসলামকে ফাঁসি দিয়েছেন আদালত।

 

দৈনিক সময়ের সমীকরণ সংবিধান, আইন ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো মন্তব্য না করার জন্য পাঠকদের বিশেষভাবে অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য অপসারণ করার ক্ষমতা রাখে।