স্বাস্থ্যমন্ত্রী ও দুই মেয়রের পদত্যাগ দাবি বিএনপির

135

সমীককরণ প্রতিবেদন:
পূর্বাভাসের পরও ডেঙ্গু পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে কার্যকর ব্যবস্থা গ্রহণে ব্যর্থতার জন্য স্বাস্থ্যমন্ত্রী জাহিদ মালেক এবং ঢাকা উত্তর সিটি করপোরেশনের মেয়র আতিকুল ইসলাম ও দক্ষিণ সিটির মেয়র সাঈদ খোকনের পদত্যাগ দাবি করেছে বিএনপি। গতকাল সোমবার রাতে গুলশানে দলের স্থায়ী কমিটির বৈঠক থেকে পদত্যাগ দাবি করা হয়। স্থায়ী কমিটির বৈঠকের পর বিএনপির মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর সাংবাদিকদের বলেন, ডেঙ্গু পরিস্থিতি প্রকট আকার ধারণ করতে পারে বলে আন্তর্জাতিক উদরাময় গবেষণা কেন্দ্র বাংলাদেশ (আইসিডিডিআরবি) আগেই সরকারকে সতর্ক করেছিল। কিন্তু সরকার কোনো ব্যবস্থা নেয়নি। উপরন্তু ডেঙ্গুকে মেয়রেরা গুজব বলেছিলেন। বিএনপি সিদ্ধান্ত নিয়েছে, ডেঙ্গু প্রতিরোধে এলাকায় সচেতনতা সৃষ্টির জন্য লিফলেট বিতরণ করবে। এতে ডক্টরস অ্যাসোসিয়েশন অব বাংলাদেশের (ড্যাব) পাশাপাশি দলের নেতা-কর্মীদের অংশ নিতে বলা হয়েছে। বৈঠকে জাতীয় পার্টির (জাপা) চেয়ারম্যান এইচ এম এরশাদের মৃত্যুতে শূন্য হওয়া রংপুর-৩ আসনের উপনির্বাচনে বিএনপির অংশ নেওয়ার সিদ্ধান্ত হয়। তবে প্রার্থী মনোনয়নের জন্য স্থায়ী কমিটি দলের ভারপ্রাপ্ত চেয়ারম্যানের ওপর দায়িত্ব দিয়েছে। এ ছাড়া বন্যায় ক্ষতিগ্রস্ত কৃষকদের কৃষিঋণ মওকুফ করার দাবি জানানো হয়। সন্ধ্যায় সোয়া সাতটা থেকে রাত নয়টা পর্যন্ত গুলশানে বিএনপির চেয়ারপারসনের কার্যালয়ে স্থায়ী কমিটির বৈঠক হয়। এতে মির্জা ফখরুল ইসলাম, খন্দকার মোশাররফ হোসেন, মওদুদ আহমেদ, জমিরউদ্দিন সরকার, গয়েশ্বর চন্দ্র রায়, আমীর খসরু মাহমুদ চৌধুরী, সেলিমা রহমান, ইকবাল হাসান মাহমুদ অংশ নেন।