রাহুলের পদত্যাগের সিদ্ধান্তে কংগ্রেসের নাকোচ

19

বিশ্ব ডেস্ক:
ভারতের লোকসভা নির্বাচনে ভরাডুবির পর কংগ্রেসের ওয়ার্কিং কমিটির সভাপতি পদ থেকে পদত্যাগের সিদ্ধান্ত নিয়েছিলেন রাহুল গান্ধী। তবে শনিবার দিল্লিতে দলের ওয়ার্কিং কমিটির বৈঠকে রাহুলের পদত্যাগের প্রস্তাব খারিজ করে দেন কমিটির সবাই। এ সময় দলের সভাপতির হাল ধরার মতো আর কেউ দলে নেই এমন ইঙ্গিতও দেন তারা। পাশাপাশি দলকে নতুন ভাবে গড়ে তোলার দায়িত্বও তুলে দেওয়া হয় রাহুলের হাতে। সেখানে সনিয়া গান্ধী, রাহুল, প্রিয়ঙ্কা, মনমোহন সিংহসহ দলের শীর্ষ নেতৃত্বরা উপস্থিত ছিলেন। কংগ্রেস মুখপাত্র রণদীপ সিংহ সুরজেওয়ালা বলেন, ‘রাহুল গান্ধী ইস্তফার ইচ্ছা প্রকাশ করেছিলেন, কিন্তু তা সরাসরি খারিজ করে দেওয়া হয়।’ ‘রাহুল পদত্যাগ করতে পারেন’, এমন কথা শুনেই দিল্লিতে চলে আসতে থাকেন দলের নবীন নেতারা। তারা কোনোভাবেই চান না, রাহুল কোনোভাবেই পদত্যাগ করুন। এ বিষয়ে রাজস্থানের মুখ্যমন্ত্রী অশোক গহলৌত এক টুইট বার্তায় লিখেছেন, ‘সভাপতির ইস্তফার প্রসঙ্গ ভিত্তিহীন ও অপ্রাসঙ্গিক। এটা আমরা কখনওই মানব না। রাহুল গান্ধীর অক্লান্ত পরিশ্রম ও লড়াকু মেজাজের কারণেই এনডিএ-কে শক্ত চ্যালেঞ্জের মুখে ফেলেছিল কংগ্রেস।’ এছাড়াও অনিল শাস্ত্রীর জানান, রাহুল গান্ধীর পদত্যাগের প্রস্তাব অপ্রাসঙ্গিক কথা। পদত্যাগ করা মানে দায়িত্ব থেকে পালিয়ে যাওয়া। বরং এই পরিস্থিতির মুখোমুখি দাঁড়িয়ে লড়াই করে যেতে হবে। একই সঙ্গে প্রবীণ নেতাদের অনেকেই মনে করছেন, নিজের আশপাশে রাহুল যাদের রেখেছেন, তারাই ভুল পরামর্শ দিয়েছেন। এসব ভুল নিয়ে নতুন চিন্তাভাবনা করে এগোতে হবে।