যুক্তরাষ্ট্রে নির্বাচন: তবে কী স্যান্ডার্স বনাম ট্রাম্প?

83

বিশ্ব প্রতিবেদন
যুক্তরাষ্ট্রের আসন্ন প্রেসিডেন্ট নির্বাচনে ডোনাল্ড ট্রাম্পের বিপক্ষে প্রতিযোগিতা করার মত কে আছে এমন প্রশ্ন ঘুড়ে বেড়িয়েছে অনেকের মনে। আগামী নির্বাচনে ভারমন্টের সিনেটর বার্নি স্যান্ডার্সকেই এ লড়াইয়ে সবচেয়ে সম্ভাব্য প্রার্থী হিসেবে বিবেচনা করা হচ্ছে। মূলত নিউ হ্যাম্পশায়ারের প্রাইমারিতে জেতার পরই তাকে নিয়ে আসন্ন প্রেসিডেন্ট নির্বাচনের ট্রাম্পের প্রতিদ্বন্দ্বী ভাবা হচ্ছে। ডেমোক্রেটিক পার্টির প্রাইমারিতে এখন পর্যন্ত বার্নি স্যান্ডার্স ও পিট বুটিগিগের মধ্যেই জোর লড়াই হচ্ছে। নিউ হ্যাম্পশায়ারের তারই লক্ষণ । এ থেকেই কিছুটা বোঝা যাচ্ছে তার জনপ্রিয়তা রয়েছে। শেষ পর্যন্ত যুক্তরাষ্ট্র পরবর্তী প্রেসিডেন্ট হিসেবে কাকে বেছে নিবে তা দেখা যাবে নির্বাচনে। তবে ৭৮ বছর বয়সী স্বঘোষিত সোশাল ডেমোক্রেট স্যান্ডার্সকে মনোনয়ন দিতে তার নিজের দলই প্রস্তুত কি না এ নিয়ে যুক্তরাষ্ট্রের জনমনে প্রশ্ন উঠেছে বলে খবর বিবিসির। জানা গেছে, প্রায় বছরখানেক ধরে চলা একের পর এক সমাবেশ, বৈঠক, বিতর্ক আর মাঠ পর্যায়ের কাজের পর তার প্রচারণা এখন অনেকের চেয়ে এগিয়ে। তবে মাত্র কয়েক মাস আগেও হৃদরোগের সমস্যায় হাসপাতালে ভর্তি হয়েছিলেন স্যান্ডার্স। তবে গত চার বছরে আগেও স্যান্ডার্স আইওয়াতে নিউ হ্যাম্পশায়ারে জিতেছিলেন।