মহেশপুরে একই পরিবারের ৪ জনকে পিটিয়ে জখম

143

জীবননগর অফিস: মহেশপুর উপজেলার কুসুমপুর গ্রামে তুচ্ছ ঘটনাকে কেন্দ্র করে একই পরিবারের ৪ জনকে পিটিয়ে জখম করার অভিযোগ উঠেছে। গতকাল মঙ্গলবার সকাল সাড়ে ৮টার দিকে মহেশপুর উপজেলার স্বরুপপুর ইউনিয়নের কুসুমপুর গ্রামে এ ঘটনা ঘটে। আহতদের স্থানীয়রা উদ্ধার করে চিকিৎসার জন্য জীবননগর উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করে। আহতরা হলেন- কুসুমপুর গ্রামের মৃত আব্দুল ওহাব মন্ডলের ছেলে দিন মোহাম্মদ (৫২), দিন মোহাম্মদের স্ত্রী সুফিয়া খাতুন (৪২), দিন মোহাম্মদের ছেলে রুবেল (২৮) এবং রুবেলের স্ত্রী সাহেরা খাতুন (২২)।
আহত দিন মোহাম্মদ অভিযোগ করে বলেন, গতকাল মঙ্গলবার সকাল সাড়ে ৮টার দিকে আমার বাড়ির সামনে একই গ্রামের মেহের ও তার স্ত্রী ময়লা ফেলে যায় আমি তাদের ময়লা ফেলতে নিষেধ করলে তারা আমাকে গালিগালাজ করতে থাকে। এ সময় দুই পক্ষের মধ্যে কথাকাটি হয়। একপর্যায় মেহের, শওকত, আশরাফ তাদের বাড়ি থেকে লাঠি, হাসুয়া ও রড নিয়ে আসে এবং আমাদের উপর হামলা করে। একপর্যায়ে মেহেরের হাতে থাকা হাসুয়া দিয়ে আমার এবং আমার ছেলের মাথায় কোপ মারে এবং আমার পরিবারের অন্য সদস্যদের মারধর করতে থাকে। এ সময় গুরুত্বর রক্তাত্ত্ব জখম অবস্থায় মাটিতে পড়ে গেলে স্থানীয় প্রতিবেশী ছুটে এসে আমাদের উদ্ধার করে জীবননগর হাসপাতালে ভর্তি করে।


এ ব্যাপারে মেহেরের সাথে মুঠোফোনে যোগাযোগ করা হলে ফোনটি রিসিভ না করায় শেষ পর্যন্ত তার বক্তব্য নেওয়া সম্ভব হয়নি। এ ব্যাপারে স্বরুপপুর ইউপি সদস্য আবুবক্করের সাথে কথা বললে তিনি বলেন, যখন এ ঘটনা ঘটে তখন আমি বাজারে ছিলাম। বাজার থেকে এসে শুনতে পারি মেহেরের সাথে দিন মোহাম্মদের বাড়ির ময়লা ফেলাকে কেন্দ্র করে দিন মোহাম্মদ ও তার ছেলেকে মাথায় কোপ মেরে আহত করেছে। একটি তথ্যনুসন্ধ্যানে জানা গেছে, শওকত, মেহের ও আশরাফ ক্ষমতার দাপট দেখিয়ে গ্রামে প্রায় এ ধরনের ঘটনা ঘটিয়ে আসছে। এদিকে শওকত, মেহের ও আশরাফের এহেন দাপটে এলাকার সাধারণ মানুষ হতাশ।