ভেঙে দেওয়া হয়েছে টিনের চিমনি

48

মেহেরপুরে ইটভাটায় ভ্রাম্যমাণ আদালত পরিচালনা
মেহেরপুর অফিস:
মেহেরপুরে জেলা প্রশাসকের নির্দেশে অবৈধ ইটভাটা ভেঙে গুঁড়িয়ে দেওয়া হয়েছে। সেই সঙ্গে ইটভাটায় থাকা টিনের চিমনি ভেঙে দিয়ে কাঁচা ইট পানি দিয়ে নষ্ট করে দেওয়া হয়েছে। সরকারি আইন অমান্য করে টিনের চিমনি দিয়ে ইট পোড়ানোর কাজ শুরু করার পর গতকাল রোববার দুপুরে ভ্রাম্যমাণ আদালত বসিয়ে টিনের চিমনি ভেঙে গুঁড়িয়ে দেওয়াসহ সব কাঁচা ইট পানিতে ভিজিয়ে নষ্ট করা হয়।
জানা যায়, মেহেরপুর জেলা প্রশাসনের কঠোর হুঁশিয়ারি থাকা সত্বেও সরকারি আইন অমান্য করে মেহেরপুর সদর উপজেলার টঙ্গী গোপালপুর গ্রামের নিয়াজ উদ্দিনের ছেলে আব্দুর রাজ্জাক দুদু টিনের চিমনি তৈরি করে ইট পোড়ানোর কাজ শুরু করেন। খবর পেয়ে জেলা প্রশাসক মো. আতাউল গনির নির্দেশে জেলা প্রশাসনের সহকারী কমিশন এম এম আরাফাত হোসেনের নেতৃত্বে পুলিশ ও মেহেরপুর দমকল বাহিনীর সহযোগিতায় টিনের চিমনি ভাঙাসহ সেখানকার সব কাঁচা ইট পানি ছিটিয়ে নষ্ট কওে দেওয়া হয়।
উল্লেখ্য, মেহেরপুরে জেলা প্রসাশক মো. আতাউল গনি গত বছর টিনের চিমনির মালিকদের সঙ্গে মতবিনিময়কালে ঘোষণা দিয়েছিলেন পরিবেশের ভারসাম্য বজায় রাখতে মেহেরপুর জেলায় কোনো টিনের চিমনি থাকবে না।