পেঁয়াজ বিক্রিতে ‘না’, ডিলারশিপ বাতিল!

91

মেহেরপুর অফিস:
টিসিবির পেঁয়াজ বিক্রয় করতে না চাওয়ায় মেহেরপুর জেলার টিসিবির ডিলারগণের ডিলারশিপ বাতিলের জন্য জেলা প্রশাসনের পক্ষ থেকে সুপারিশ করা হয়েছে। মেহেরপুর জেলা প্রশাসন সূত্রে জানা গেছে, দেশের ৬৪ জেলার মধ্যে ৬৩ জেলায় টিসিবির ডিলার কর্তৃক ন্যায্যমূল্যে পেঁয়াজ বিক্রি করা হলেও মেহেরপুর জেলার ১২ ডিলারের মধ্যে কেউ সে পেঁয়াজ সংগ্রহ করেননি।
এ বিষয়ে জেলা প্রশাসক মো. আতাউল গনি ডিলারদের সঙ্গে মতবিনিময় করেন। মতবিনিময়কালে জেলা প্রশাসক ডিলারদের টিসিবি থেকে পেঁয়াজ সংগ্রহ করে ন্যায্যমূল্যে সে পেঁয়াজ জেলা প্রশাসনের কার্যালয়ের সামনের খোলাবাজারে বিক্রি করার জন্য আহ্বান জানান। এতে ডিলাররা আপত্তি জানান এবং ব্যবসায়ীরা খোলাবাজারে পেঁয়াজ বিক্রি না করে তাদের ব্যবসায়ী প্রতিষ্ঠানে বিক্রির জন্য বেশি উৎসাহ দেখান। জেলা প্রশাসক মো. আতাউল গনি ডিলারদের ব্যবসাপ্রতিষ্ঠানের সামনে পেঁয়াজ বিক্রির সম্মতি না দেওয়ায় ডিলাররা গুদামে পেঁয়াজ তুলবেন না বলে জানান। এ ঘটনার পরপরই জেলা প্রশাসক মো. আতাউল গনি জেলার ১২ জন টিসিবির ডিলারের ডিলারশিপ বাতিল করার জন্য বাণিজ্য মন্ত্রণালয়ে সুপারিশ করেন। মেহেরপুর জেলায় টিসিবির যে ১২ জন ডিলার তাঁদের ডিলারশিপ হারাচ্ছেন, তাঁরা হলেন মেহেরপুর শহরের বোসপাড়ার মেসার্স আশিকুজ্জামান সবুজ, সদর উপজেলার গোভীপুরের মেসার্স শঙ্কর এন্টারপ্রাইজ, পিরোজপুরের সাগর ট্রেডার্স, কুতুবপুর মনোহরপুরের ফারুক ট্রেডার্স, মেহেরপুর শহরের কলেজ রোডের স্বপ্নচূড়া সঞ্চয় ও ঋণদান সমবায় সমিতি লিমিটেড, গাংনী উপজেলার বামুন্দি বাজারের জামান ট্রেডার্স, সততা এন্টারপ্রাইজ, গাংনী বাজারের আরিফ এন্টারপ্রাইজ, মুজিবনগর কেদারগঞ্জের এম আর এন্টারপ্রাইজ, দারিয়াপুরের রিফা এন্টারপ্রাইজ, মোনাখালীর ইসমাইল এন্টারপ্রাইজ ও ভবেরপাড়ার তুমি ট্রেডার্স।
এদিকে, টিসিবির ১২ ডিলারের ডিলারশিপ বাতিলের সুপারিশ করার পর জেলা প্রশাসকের ক্ষমতা বলে আব্দুর রাজ্জাক নামের এক ব্যক্তিকে গুদামে পেঁয়াজ তোলার অনুমতি দেওয়া হয়েছে। আজ সোমবার থেকে টিসিবির পেঁয়াজ মেহেরপুরে বিক্রি শুরু হবে বলে জানা গেছে।