দেশে আরও ৩৮ জনের মৃত্যু, শনাক্ত ২১৯৮

64

গত ২৪ ঘণ্টায় চুয়াডাঙ্গায় নতুন একজন করোনা আক্রান্ত
সমীকরণ প্রতিবেদন:
দেশে করোনায় আরও ৩৮ জনের মৃত্যু হয়েছে। একই সময় ২১৯৮ জনের শরীরে করোনাভাইরাস শনাক্ত হয়েছে। ২৪ ঘন্টায় মৃত্যু হওয়া ৩৮ জনের মধ্যে ২৫ জন পুরুষ ও ১৩ জন নারী। দেশে এখন পর্যন্ত ৪ লাখ ৬৯ হাজার ৪২৩ জনের দেহে করোনার সংক্রমণ শনাক্ত হয়েছে। তাঁদের মধ্যে ৬ হাজার ৭১৩ জনের মৃত্যু হয়েছে। সুস্থ হয়েছেন ৩ লাখ ৮৫ হাজার ৭৮৬ জন। গতকাল বুধবার স্বাস্থ্য অধিদপ্তরের সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে এসব তথ্য জানানো হয়। গত ২৪ ঘণ্টায় দেশে ১৫ হাজার ৯৭২ জনের নমুনা পরীক্ষা করা হয়। পরীক্ষার সংখ্যা বিবেচনায় রোগী শনাক্তের হার ১৩ দশমিক ৭৬ শতাংশ। দেশে এখন পর্যন্ত সংক্রমণ বিবেচনায় মৃত্যুর হার ১ দশমিক ৪৩ শতাংশ। গত বছরের ডিসেম্বরে চীনের উহানে প্রথম করোনাভাইরাসের সংক্রমণ ধরা পড়ে। ক্রমেই মহামারি আকারে সংক্রমণ বিশ্বের প্রায় সব দেশে ছড়িয়ে পড়ে। বাংলাদেশে গত ৮ মার্চ প্রথম সংক্রমণ শনাক্তের কথা জানায় সরকার। শুরুর দিকে রোগী শনাক্তের হার কম ছিল। গত মে মাসের মাঝামাঝি থেকে সংক্রমণ বাড়তে শুরু করে। ওই মাসের শেষের দিক থেকে রোগী শনাক্তের হার ২০ শতাংশের ওপরে চলে যায়। আগস্টের তৃতীয় সপ্তাহ পর্যন্ত সেটি ২০ শতাংশের ওপরে ছিল। এরপর থেকে নতুন রোগীর পাশাপাশি শনাক্তের হারও কমতে শুরু করেছিল। একপর্যায়ে দৈনিক রোগী শনাক্তের হার ১০ শতাংশ পর্যন্ত নেমেছিল।
চুয়াডাঙ্গা:
চুয়াডাঙ্গায় নতুন করে একজনের শরীরে করোনা শনাক্ত হয়েছে। জেলায় এনিয়ে মোট করোনা শনাক্ত হয়েছে ১ হাজার ৫৯৪ জন। গতকাল বুধবার রাত ৮টায় জেলা সিভিল সার্জন অফিস এ তথ্য নিশ্চিত করেন। গতকাল জেলায় নতুন কেউ সুস্থ হয়নি। এখন পর্যন্ত জেলায় মোট সুস্থ হয়েছেন ১ হাজার ৪৮৪ জন। গতকাল নতুন আক্রান্ত ব্যক্তি দামুড়হুদা উপজেলার বাসিন্দা। আক্রান্ত ব্যক্তির বয়স ৪৪ বছর।
জানা যায়, গত মঙ্গলবার জেলা স্বাস্থ্যবিভাগ করোনা আক্রান্ত সন্দেহে নতুন ১২টি নমুনা সংগ্রহ করে পরীক্ষার জন্য প্রেরণ করে। গতকাল ১২টি নমুনার ফলাফল সিভিল সার্জন অফিসে এসে পৌঁছায়। এর মধ্যে ১টি নমুনার ফলাফল পজিটিভ ও বাকি ১১টি নমুনার ফলাফল নেগেটিভ আসে। গতকাল জেলা স্বাস্থ্যবিভাগ করোনা পরীক্ষার জন্য সদর উপজেলা থেকে ১৬টি ও দামুড়হুদা থেকে ১টি নমুনাসহ ১২টি নমুনা সংগ্রহ করে পরীক্ষার জন্য প্রেরণ করেছে।
চুয়াডাঙ্গা সিভিল সার্জন অফিসের সর্বশেষ তথ্যানুযায়ী জেলা থেকে এ পর্যন্ত মোট নমুনা সংগ্রহ ৬ হাজার ৯১৪টি, প্রাপ্ত ফলাফল ৬ হাজার ৭২৩টি, পজিটিভ ১ হাজার ৫৯৪টি, নেগেটিভ ৫ হাজার ৩৪২টি। শেষ খবর পাওয়া পর্যন্ত জেলায় হোম আইসোলেশনে ছিলেন ৪৮ জন ও প্রাতিষ্ঠানিক আইসোলেশনে ছিলেন ৯ জন। চুয়াডাঙ্গা জেলায় করোনা আক্রান্ত হয়ে এ পর্যন্ত মোট মৃত্যুর সংখ্যা ৪১ জন, এর মধ্যে ৪ জনের মৃত্যু হয়েছে জেলার বাইরে।