দেশের সব মাল্টিলেভেল মার্কেটিং কোম্পানী (এমএলএম) অনুমোদনহীন

441

দেশের সব মাল্টিলেভেল মার্কেটিং কোম্পানী (এমএলএম) অনুমোদনহীন। ফলে, অভিনব কৌশলে যারা এই ব্যবসা চালাচ্ছেন, তাদের সব কার্যক্রমও অবৈধ। বাণিজ্য মন্ত্রনালয়ের ভাষ্যমতে, নতুন অর্থ বছরে একটিও লাইসেন্স নবায়ন করেনি তারা। তাই এই কোম্পানীগুলো অস্তিত্বহীন হয়ে গেছে। বিগত ২০১৪ সালে এমএলএম কোম্পানী আইন সংসদে পাশ হয়। এই আইনে বাণিজ্য মন্ত্রালয় থেকে লাইসেন্স গ্রহন বাধ্যতামূলক করে সরকার। একইসঙ্গে ব্যাংকিং ও নন ব্যাংকিং প্রতিষ্ঠানের ছাড়পত্র ও বাধ্যতামূলক করা হয়। সুনির্দিষ্ট করা হয় অপরাধের সংজ্ঞা ও শাস্তির বিধান। সবমিলিয়ে বলা যায় একেবারে আইনের বাইরে থাকা এমএলএম কোম্পানীগুলোকে এখন আইনের পরিধির মধ্যে বেশ কিছুটা আনা সম্ভব হয়েছে। কিন্তু প্রশ্নটি হলো ইতোপূর্বে সাধারণ সরল মানুষ যারা ডেসটিনি, ইউনিপেট,ু যুবকের মতো প্রতারক এমএলএম কোম্পানীর দ্বারা প্রতারিত হয়ে সর্বস্ব খুইয়েছেন তারা কি প্রতিকার পেলেন! আমরা মনে করি এই কোম্পানীগুলোর বিরুদ্ধে আইনগত ব্যবস্থা গ্রহনই শুধু যথেষ্ট নয়। প্রতারক এমএলএম কোম্পানীগুলোর সকল স্থাবর-অস্থাবর সম্পত্তি অধিগ্রহন ও বিক্রয়করে এদের দ্বারা প্রতারিত ক্ষতিগ্রস্থদের প্রাপ্য অর্থ ফেরতের প্রয়োনীয় আইনী উদ্যোগ এখনই একইসাথে গ্রহন করাও জরুরী।